• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • Christmas Weekend Trip| Valkimachan|| জঙ্গলের মাদকতায় মন মাতাতে চান? বড়দিনের ছুটিতে ডেস্টিনেশন হোক ভালকি মাচান

Christmas Weekend Trip| Valkimachan|| জঙ্গলের মাদকতায় মন মাতাতে চান? বড়দিনের ছুটিতে ডেস্টিনেশন হোক ভালকি মাচান

ভালকিমাচান।

ভালকিমাচান।

Christmas Weekend Trip Valkimachan: পূর্ব বর্ধমানের আউশগ্রামের অরণ্যময় ভালকি মাচান। এখানের শান্ত পরিবেশে মন জুড়িয়ে দেবেই দেবে।

  • Share this:

#আউশগ্রাম: কথায় বলে বাঙালির পায়ের তলায় সরষে। আবার মরশুমটা যদি শীতের তবে তো কথাই নেই। তার ওপর এখন চলছে বড়দিনের উৎসব। বর্ষ বিদায়, ইংরেজি নতুন বছরের সেলিব্রেশন সব কিছুর সঙ্গেই ভ্রমণকে জুড়ে নেওয়া বাঙালির মজ্জাগত। এই সময় আপনার জন্য প্রস্তুত পূর্ব বর্ধমানের আউশগ্রামের অরণ্যময় ভালকি মাচান। এখানের শান্ত পরিবেশে মন জুড়িয়ে দেবেই দেবে।

পাহাড় সমুদ্র হয়ে গিয়েছে অনেকবার। হাতে ছুটিও বিশেষ নেই? তবে আপনার নাগালের মধ্যেই রয়েছে ভালকি মাচান। এটি জঙ্গল মহলের একটা অংশ। এই শীতে সেই জঙ্গলের মাদকতাই আলাদা। শাল সেগুন মহুয়ায় ঘেরা চারপাশ। সবুজের অবাক করা বৈচিত্র আপনাকে মুগ্ধ করবেই। রাতে হাড় কাঁপানো ঠান্ডা। সকালে শিশির ভেজা লাল মাটির পথ। সোঁদা মাটির গন্ধ নিয়ে আপনার অপেক্ষায় শাল-পিয়ালের দল৷ জঙ্গলের নেশায় বুঁদ হতে চাইলে আপনার শীতের সপ্তাহান্তের ডেস্টিনেশন হতেই পারে ভালকি মাচান৷

আরও পড়ুন: বড়দিনের আগেই মুর্শিদাবাদে পর্যটকদের ভিড়! কোভিড বিধি মেনেই মানুষের জমায়েত!

এক সময় এই জঙ্গলে শিকারে আসতেন বর্ধমানের রাজারা। রয়েছে সেই সময়ের ওয়াচ টাওয়ার। আছে ফুলে সুসজ্জিত জলাশয়। সেখানে রয়েছে নৌবিহারের ব্যবস্হা। গরম কফির কাপে চুমুক দিয়ে বেরিয়ে পড়ুন। নাগালের মধ্যেই আদিবাসীদের গ্রাম। তাদের জীবন চর্চা প্রত্যক্ষ করুন কাছ থেকে। দুপুরে অনুভব করুন শহুরে কোলাহলহীন অপার শান্তি। নিস্তব্ধতা ভাঙার জন্য রয়েছে জানা অজানা নানা পাখির কল কাকলি।গোধূলিতে রয়েছে আদিবাসীদের সমবেত নাচ,ধামসা মাদল।

আরও পড়ুন: চুপ করে জেগে থাকে 'চুপি-চর', কলকাতা থেকে যেতে মাত্র আড়াই ঘণ্টা

তবে আর দেরি কেন, চলুন বেরিয়ে পড়া যাক। ডানকুনি পার হলেই দুর্গাপুর এক্সপ্রেস ওয়ে ধরে ঘন্টা আড়াইয়ের ব্যবধান। ট্রেনে মানকর রেল স্টেশনে নামতে হবে৷ তারপর ই রিকশায় পৌঁছে যাওয়া যায় ভালকি মাচানে৷বর্ধমান স্টেশনে নেমে গাড়ি ভাড়া করে যাওয়া যায়।থাকার জন্য রয়েছে আউশগ্রাম পঞ্চায়েতের অরণ্যসুন্দরী রিসর্ট৷ এছাড়াও যমুনাদিঘিতে রয়েছে রয়েছে রাজ্য মৎস উন্নয়ন নিগমের রিসর্ট৷ আগাম বুক করার ব্যবস্থা রয়েছে। আবার কাছে পিঠে বোলপুর বা গুসকরাতেও থাকা যায়।

Saradindu Ghosh

Published by:Shubhagata Dey
First published: