• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • বাজেট কমিয়ে প্রতিমার সৌন্দর্য্য বাড়ানোর প্রতিযোগিতা চলছে, রাস উৎসব ঘিরে সেজে উঠছে পূর্বস্থলী

বাজেট কমিয়ে প্রতিমার সৌন্দর্য্য বাড়ানোর প্রতিযোগিতা চলছে, রাস উৎসব ঘিরে সেজে উঠছে পূর্বস্থলী

প্রতিবার বিশাল বিশাল থিমের মন্ডপ ও প্রতিমা দেখতে বহু দর্শনার্থী ভিড় করেন পূর্বস্থলীতে। এবার করোনা আবহে ভিড়ে রাশ টানতে তৎপর প্রশাসন।

প্রতিবার বিশাল বিশাল থিমের মন্ডপ ও প্রতিমা দেখতে বহু দর্শনার্থী ভিড় করেন পূর্বস্থলীতে। এবার করোনা আবহে ভিড়ে রাশ টানতে তৎপর প্রশাসন।

প্রতিবার বিশাল বিশাল থিমের মন্ডপ ও প্রতিমা দেখতে বহু দর্শনার্থী ভিড় করেন পূর্বস্থলীতে। এবার করোনা আবহে ভিড়ে রাশ টানতে তৎপর প্রশাসন।

  • Share this:

#বর্ধমান: রাস উৎসবকে সামনে রেখে সেজে উঠছে পূর্ব বর্ধমানের পূর্বস্থলী। করোনা আবহে এবার বাজেট কম হলেও উৎসাহে ঘাটতি নেই উদ্যোক্তাদের।রাত দিন এক করে চলছে পুজোর প্রস্তুতি। মন্ডপ এবার বড় না হলেও প্রতিমায় বাড়তি বাজেট বরাদ্দ করা হয়েছে। থাকছে বাহারি আলোকসজ্জা। প্রতিবার বিশাল বিশাল থিমের মন্ডপ ও প্রতিমা দেখতে বহু দর্শনার্থী ভিড় করেন পূর্বস্থলীতে। এবার করোনা আবহে ভিড়ে রাশ টানতে তৎপর প্রশাসন।

কাটোয়ার কার্তিক পুজো, কালনার সরস্বতী পুজোর মতই বিখ্যাত পূর্বস্থলীর রাস উৎসব। ইদানিং নবদ্বীপের রাস উৎসবের সঙ্গে সমানে সমানে পাল্লা দেবার চেষ্টা চালায় পূর্বস্থলী। গত কয়েক বছর ধরে পূর্বস্থলীর রাস উৎসব রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তের দর্শনার্থীদের আকর্ষণের অন্যতম কেন্দ্র হয়ে দেখা দিয়েছে। কিন্তু এবার সেই উৎসবে বাধ সেধেছে করোনার সংক্রমণ।

এমনিতেই পূর্বস্থলী এলাকায় সংক্রমণের হার জেলার অন্যান্য বেশ কিছু এলাকা থেকে বেশি। উৎসবকে কেন্দ্র করে সেই সংক্রমণ যাতে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে না যায় তা নিশ্চিত করতে এবার পুজোর আড়ম্বর কম করার আবেদন জানিয়েছে প্রশাসন। সেই আবেদনে সাড়া দিয়ে এবার পুজোর বাজেট অনেকটাই কমিয়েছে বড় পুজো কমিটিগুলি।

পূর্বস্থলীতে শতাধিক রাস উৎসবের মণ্ডপ তৈরি হয়। পূর্বস্থলীর নজরুল মঞ্চে এক ছাতার তলায় পুজোর অনুমোদন দেওয়ার ব্যবস্থা করেছে জেলা প্রশাসন। ইতিমধ্যেই সেখান থেকে বেশিরভাগ বারোয়ারি পুজো কমিটি অনুমোদন নেওয়ার কাজ সম্পন্ন করেছেন। করোনা ভাইরাস উৎসবের আতিশয্য কমালেও এবারও শ্রীরামপুর,সমুদ্রগড়, জাহান্নগরের বেশ কয়েকটি পুজো কমিটি নজর কাড়বে বলেই মনে করছেন বাসিন্দারা।

ইতিমধ্যেই প্রশাসনের পক্ষ থেকে পুজোর উদ্যোক্তাদের নিয়ে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। সেই বৈঠকে করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে পুজোর আয়োজন করার জন্য পুজো কমিটিগুলির কাছে আবেদন জানানো হয়েছে। এবার পুজোয় সংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, মেলা বসানো থেকে পুজো কমিটিকে বিরত থাকতে বলেছে জেলা প্রশাসন। প্রশাসনের সঙ্গে সহমত পোষণ করেছেন বেশিরভাগ পুজোর উদ্যোক্তাই।

পূর্বস্থলী রাস উৎসবের উদ্যোক্তারা বলছেন, অন্যান্যবার বেশ কয়েকটি পুজো কমিটির বাজেট পনেরো লাখ টাকা ছাড়িয়ে যায় এবার সেখানে চার পাঁচ লাখ টাকার মধ্যেই পুজোর আয়োজন করা হচ্ছে। মণ্ডপে বাজেট কমিয়ে ফেলা হলেও প্রতিমার সৌন্দর্য্য বাড়ানোর প্রতিযোগিতা চলছে। সেই সঙ্গে থাকছে মানানসই আলোকসজ্জাও। তবে দর্শনার্থীদের সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মুখে মাস্ক লাগিয়ে প্রতিমা, আলোকসজ্জা মন্ডপ দেখা নিশ্চিত করতে বাড়তি স্বেচ্ছাসেবক নিয়োগ করা হচ্ছে।

Published by:Pooja Basu
First published: