অশ্লীল ভিডিও-তে হবু স্ত্রীর মুখ, হাওড়ায় ভুয়ো ভিডিও দেখে বিয়ে ভেস্তে দিল বর!

অশ্লীল ভিডিও-তে হবু স্ত্রীর মুখ, হাওড়ায় ভুয়ো ভিডিও দেখে বিয়ে ভেস্তে দিল বর!

প্রতীকী ছবি৷

  • Share this:

#হাওড়া:  নিয়ম মেনেই সেজে উঠেছিল বিয়ের আসর, চারিদিকে আলোর রোশনাই৷ বাড়ির মেয়ের বিয়ে বলে কথা৷ অতিথিদের জন্য রান্নাও প্রায় সারা৷ অপেক্ষা শুধু বর আসার৷ সেই অপেক্ষার যে শেষ হবে না তা ঘুণাক্ষরেও টের পায়নি পাত্রীপক্ষ| সন্ধ্যা পেরিয়ে রাত বাড়তে থাকে সময়ের সাথে সাথে | এই আসবে আসবে করে রাত ন'টার সময় বরের বাড়ির সাথে যোগাযোগ করলে জানা যায় পাত্র বিয়ে করতে নারাজ | অনেক বোঝানোর চেষ্টা করলেও বৃথা হয় চেষ্টা |

কথা বলে জানা যায় যে বিয়ের সকালেই পাত্রের মোবাইলে হোয়াটসঅ্যাপে অচেনা নম্বর থেকে একটি অশ্লীল ভিডিও আসে৷ সেই অশ্লীল ছবিতে দেখা যায় খোদ পাত্রীকেই | সেই ভিডিও পাওয়ার পরই পাত্র পক্ষ বিয়ে না করার সিদ্ধান্ত নেন৷| এই খবর শুনেই পুলিশে পাত্রীপক্ষ দু'টি অভিযোগ দায়ের করে৷ পাত্রপক্ষের বিরুদ্ধে বিয়ে করতে না আসা ও যে ভিডিও প্রকাশ্যে আসে সেই ভিডিওটিতে সম্পূর্ণ সুপারইম্পোজ করে মেয়েটির মুখ বসানো হয়েছে বলে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছে পাত্রীপক্ষ | ভিডিওটির বিষয়ে তদন্ত ভার দেওয়া হয়েছে সাইবার ক্রাইম থানাকে ৷

দিন যাচ্ছে, সাইবার অপরাধের নিত্যনতুন কায়দা মানুষকে ফাঁদে ফেলছে। তবে বুধবার হাওড়ার জগাছা থানা এলাকায় যে অভিযোগ সামনে এসেছে, তা খুব একটা তাঁরাও শোনেননি বলে জানাচ্ছেন পুলিশ কর্তারা। ভিডিওটি ভুয়ো এবং তাতে পাত্রীর মুখ ‘সুপার ইম্পোজ’ বা ‘এডিট’ করে বসানো হয়েছে বলে প্রাথমিক তদন্তে জানতে পেরেছে পুলিশ | ওই ভিডিও দেখিয়ে খোদ পাত্র বিয়ে বাতিল করার সিদ্ধান্ত জানানোয় মাথায় হাত পড়ে পাত্রীপক্ষের। বিয়ের অনুষ্ঠানের জন্য বিপুল খরচ করে ফেলেছিলেন মেয়ের বাড়ির লোকজন৷ কে বা কারা পাত্রের মোবাইলে ওই ‘ভুয়ো’ ভিডিও পাঠিয়েছে, তাকে চিহ্নিত করার কাজ শুরু করেছে পুলিশ |

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, উনসানির গোয়ালবাটি এলাকার এক বাসিন্দার মেয়ের সঙ্গে উনসানির দক্ষিণপাড়া এলাকার বাসিন্দা এক যুবকের বিয়ে স্থির হয়। গত ১৩ জানুয়ারি পাত্র-পাত্রীর সম্মতিতে এবং আত্মীয়, পরিজনদের উপস্থিতিতে বিয়ের দিনক্ষণও স্থির হয়। ২৩ ফেব্রুয়ারি বিয়ের দিন ঠিক করা হয়। অভিযোগ, দুই বাড়িতেই যখন বিয়ের অনুষ্ঠানের তোড়জোড় চূড়ান্ত পর্যায়ে, তখন মোবাইলে আসা একটি অশ্লীল ভিডিও সব ওলোটপালোট করে দেয় | পাত্রীর পরিবারের দাবি , সম্পূর্ণ ভুয়ো একটি ভিডিও।  এই বিষয়ে জগাছা থানার এক পদস্থ পুলিশকর্তা জানান,  ইতিমধ্যে পাত্রকে ডেকে এক দফা জেরা করা হয়েছে। পুলিশ জানতে পেরেছে, পাত্রের হোয়াটসঅ্যাপে ভিডিওটি পাঠিয়েছে একজন। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। সাইবার অপরাধের বিভিন্ন ধারায় মামলা রুজু করা হবে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম থেকে ছবি সংগ্রহ করে তার উপর বিভিন্ন কারুকার্য করে অশালীনভাবে ফের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছেড়ে দেওয়ার একাধিক অভিযোগ সাম্প্রতিক সময়ে সামনে এসেছে বিভিন্ন জায়গায়। কিন্তু একটি ভিডিও ক্লিপিংকে কেন্দ্র করে বিয়ের দিনেই তা ভেস্তে যাওয়ার ঘটনায় অনেকেই হতবাক।

Debashish Chakraborty

Published by:Debamoy Ghosh
First published:
0

লেটেস্ট খবর