গলসীতে ফের বোমা উদ্ধার, অশান্তির আশঙ্কায় উদ্বিগ্ন বাসিন্দারা

গলসীতে ফের বোমা উদ্ধার, অশান্তির আশঙ্কায় উদ্বিগ্ন বাসিন্দারা

বার বার বিভিন্ন এলাকা থেকে বোমা উদ্ধার হওয়া আগামী দিনের অশান্তির ইঙ্গিত বলেই মনে করছেন এলাকার বাসিন্দারা।

বার বার বিভিন্ন এলাকা থেকে বোমা উদ্ধার হওয়া আগামী দিনের অশান্তির ইঙ্গিত বলেই মনে করছেন এলাকার বাসিন্দারা।

  • Share this:

#পূর্ব বর্ধমান: ফের পূর্ব বর্ধমানের গলসিতে বোমা উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল। গলসির শিড়রাই এলাকা থেকে গ্রাম ভর্তি বোমাগুলি পাওয়া যায়। একটি ঝোপের মধ্যে বোমাগুলি লুকিয়ে রাখা হয়েছিল। গোপন সূত্রে খবর পেয়ে তল্লাশি চালায় গলসি থানার পুলিশ। সেই তল্লাশিতে প্লাস্টিকের ড্রাম ভর্তি বোমাগুলি পাওয়া যায়। এরপর খবর দেওয়া হয় বোম স্কোয়াডে। বোম স্কোয়াডের প্রশিক্ষিত কর্মীরা ফাঁকা মাঠে বোমাগুলি নিয়ে গিয়ে সেগুলি নিষ্ক্রিয় করে। কে বা কারা ওই বোমাগুলি মজুত করেছিল তা খতিয়ে দেখছে গলসি থানার পুলিশ। তবে এ ব্যাপারে কাউকে গ্রেফতার করা যায়নি।

বিধানসভা নির্বাচন যতই এগিয়ে আসছে ততই এলাকায় এলাকায় রাজনৈতিক উত্তেজনা বাড়ছে। গলসির বিভিন্ন এলাকায় রাজনৈতিক ক্ষমতা দখলকে কেন্দ্র করে বোমাবাজি নতুন ঘটনা নয়। বার বার বিভিন্ন এলাকা থেকে বোমা উদ্ধার হওয়া আগামী দিনের অশান্তির ইঙ্গিত বলেই মনে করছেন এলাকার বাসিন্দারা। তাঁরা বলছেন, এলাকার শান্তি বজায় রাখতে এখনই উদ্যোগী হওয়া জরুরি। এলাকায় আর কোথাও বোমা যাতে মজুত করা না হয় তা নিশ্চিত করতে পুলিশকে আরও তৎপর হওয়া দরকার।

গলসিতে একের পর এক জায়গা থেকে বোমা উদ্ধার হতে থাকায় উদ্বিগ্ন পুলিশও। এর আগে গলসি রামনগর গ্রাম থেকে বোমা উদ্ধার হয়েছিল। এরপর ভাসাপুল, লোয়াপুর এলাকা থেকেও বোমা উদ্ধার হয়। এবার বোমা উদ্ধার হল শিড়রাই এলাকায়। তাতেই চিন্তিত এলাকার শান্তিপ্রিয় বাসিন্দারা। তাঁরা বলছেন, এলাকার দখলকে কেন্দ্র করে আগেও বোমাবাজিতে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে এই এলাকা। ইদানিং কিছুদিন তা বন্ধ রয়েছে। তাই এলাকা যাতে ফের অশান্ত না হয়ে উঠতৈ পারে তা নিশ্চিত করতে পুলিশের আগেভাগে সতর্ক হওয়া জরুরি।

গলসি থানার পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে ঝোপের মধ্যে প্লাস্টিকের ড্রামে বোমা রাখা রয়েছে বলে স্থানীয় সূত্রে খবর মেলে। সেই খবর পাবার পরই পুলিশ অভিযানে যায়। ওই এলাকায় তল্লাশি চালাতেই ঝোপের মধ্যে প্লাস্টিকের ড্রামে ওই বোমাগুলি উদ্ধার করা হয়। কোথা থেকে ওই বোমা আনা হয়েছিল, কারা কি কারণে তা মজুত করেছিল তা জানা চেষ্টা চালানো হচ্ছে। ওই এলাকায় যাতে ভবিষ্যতে বোমা মজুত করা না হয় তা নিশ্চিত করতে নিয়মিত নজরদারি চালানো হবে।

Published by:Pooja Basu
First published:

লেটেস্ট খবর