Anubrata Mandal: ভোটের আগে ফের 'নজরবন্দি' অনুব্রত মণ্ডল, মমতার কথা মেনে কালই যাচ্ছেন আদালতে

Anubrata Mandal: ভোটের আগে ফের 'নজরবন্দি' অনুব্রত মণ্ডল, মমতার কথা মেনে কালই যাচ্ছেন আদালতে

ভোটের আগে নজরবন্দি অনুব্রত মন্ডল। ফাইল ছবি।

২৯ এপ্রিল বীরভূমে নির্বাচন। অষ্টম অর্থাৎ শেষ দফা নির্বাচনে স্বাভাবিকভাবেই কমিশনের পাখির চোখ বীরভূম।

  • Share this:

    #কলকাতা: ফের নির্বাচন কমিশনের (Election Commission) ‘নজরবন্দি’ অনুব্রত মণ্ডল (Anubrata Mandal)। আজ অর্থাৎ মঙ্গলবার বিকেল ৫টা থেকে ৩০ এপ্রিল, শুক্রবার সকাল ৭টা পর্যন্ত ‘নজরবন্দি’ থাকবেন বীরভূমের (Birbhum TMC Leader) এই দাপুটে নেতা। বীরভূমে ভোটের আগে সিদ্ধান্ত নির্বাচন কমিশনের। যদিও কমিশন নজরবন্দি করার পরেও এক্কেবারে ভাবলেশহীন অনুব্রত। দুঁদে তৃণমূল নেতা জানিয়েছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পরামর্শ মেনে সম্ভবত আগামিকাল আদালতের দ্বারস্থ হবেন তিনি।

    ২৯ এপ্রিল বীরভূমে নির্বাচন (West Bengla Assembly Election Phase 8)। অষ্টম অর্থাৎ শেষ দফা নির্বাচনে স্বাভাবিকভাবেই কমিশনের পাখির চোখ বীরভূম। এমতাবস্থায় অন্যান্যবারের মতো অনুব্রত মণ্ডলকে ফের 'নজরবন্দি' করা হয়তে পারে, তা নিতে একপ্রকার জল্পনা ছিলই। সেই জল্পনার অবসান ঘটে কমিশনের নির্দেশের পরেই। যদিও 'নজরবন্দি' হওয়ার পরে অনুব্রত বলেন, "আমাকে নজরবন্দি করা কমিশনের রুটিন ডিউটি। ১৪ সালের খাতা খুলছে, রুটিনে যা আছে তাই করতে হবে। তবে ভাল হয়েছে। লাভই হয়েছে, কোনও লক্সান নেই। আমি যেখানে যাব, ওঁরা সঙ্গে ছুটবে। ফাইন খেলা হবে, যাঁরা সঙ্গে থাকবে গোলটা পাস করে দেবে। ভয়ঙ্কর খেলা হবে।"

    জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যেই অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে একধিক অভিযোগ জমা পড়েছে। নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা গিয়েছে, অনুব্রত মণ্ডলের গতিবিধি ভিডিওগ্রাফি (Videography) করা হবে। নজরদারিতে থাকবেন কেন্দ্রীয় বাহিনীর কয়েকজন জওয়ান (Central Force)। তাঁর সঙ্গে সর্বক্ষণ থাকবেন একজন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট।

    উল্লেখ্য, এর আগে ২০১৬ সালের বিধানসভা ভোট, ২০১৯ সালের লোকসভা ভোটের সময় নজরবন্দি করা হয়েছিল অনুব্রত মণ্ডলকে।

    Published by:Shubhagata Dey
    First published:

    লেটেস্ট খবর