Home /News /south-bengal /
West Bengal News: কেন্দ্রীয় সরকারের লোগো, সেই গাড়িতেই চলছিল ছাগল চুরি! তার পরের ঘটনা মারাত্মক...

West Bengal News: কেন্দ্রীয় সরকারের লোগো, সেই গাড়িতেই চলছিল ছাগল চুরি! তার পরের ঘটনা মারাত্মক...

যা ঘটল ....

যা ঘটল ....

West Bengal News: খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে জখম দুজনকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

  • Share this:

#বর্ধমান: কেন্দ্রীয় সরকারের গাড়িতে ছাগল চুরি! এমনই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়াল বর্ধমানে। এলাকার বাসিন্দারা গাড়িটি আটক করে চালক ও এক যাত্রীকে ব্যাপক মারধর করে। তাদের কান ধরে ওঠবোস করায়।  উত্তেজিত জনতা গাড়িতে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে জখম দুজনকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। বর্ধমান থানার সরাইটিকর শান্তিপাড়ার এই ঘটনা ঘটেছে।

গাড়িতে লাগানো ভারত সরকারের অন ডিউটি বোর্ড। সেই গাড়ি ব্যবহার করেই ছাগল চুরি করা হচ্ছিলো বলে অভিযোগ।ছাগল চোর সন্দেহে চললো মারধর,করানো হল কানধরে উঠবোস। ভাঙচুর চালানো হয় গাড়িতেও।পরে পুলিশ পৌঁছে অভিযুক্তদের উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বর্ধমান হাসপাতালে পাঠায়।

আরও পড়ুন: নতুন কোনো পরিকল্পনা? অনুব্রত মণ্ডলকে চাপে ফেলে SSKM-এ সিবিআই! এরপর?

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে,বর্ধমান থানার সরাইটিকর অঞ্চলে গত দেড় মাস ধরে ছাগল চুরি হচ্ছিলো। একের পর এক ছাগল চুরির ঘটনায় এলাকায় ক্ষোভ বাড়ছিলো।আজ দুপুরে সরাইটিকর শান্তিপাড়ায় ভারত সরকারের অন ডিউটি বোর্ড লাগানো একটি গাড়িতে দু জনকে জোর করে একটি ছাগলকে তুলতে দেখা যায়। সেই সময় স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। তাদের আটকে জিজ্ঞাসাবাদ করে কোনও সদুত্তর না পাওয়ায় ছাগল চোর সন্দেহে স্থানীয়রা  তাদের মারধর শুরু করে। কান ধরে ওঠবোসও করানো হয় । গাড়িটিতেও ব্যাপক ভাঙচুর চালানো হয়।পরে পুলিশ পৌঁছে তাদের উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য বর্ধমান হাসপাতালে নিয়ে যায়। গাড়িটির ভেতর একটি ছাগল ছিল। তা দেখেই বাসিন্দাদের মধ্যে ক্ষোভের পারদ চড়তে শুরু করে। বাসিন্দারা বলেন, গত কয়েক মাসে এভাবে এলাকা থেকে অনেক ছাগল চুরি হয়েছে।

আরও পড়ুন: রামপুরহাট গণহত্যা মামলায় CBI-এর অবস্থান নিয়ে ধন্দ! যা হল আদালতে...

পুলিশ অভিযুক্তদের আটক করে তদন্ত শুরু করেছে। পুলিশ জানিয়েছে, সত্যিই গাড়িটি কোনও সরকারি দফতরের সঙ্গে যুক্ত কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সরকারি দফতরের বোর্ড ব্যবহার করে অভিযুক্তরা এই কাজ করে থাকতে পারে। চিকিৎসার পর এ ব্যাপারে তাদের বিস্তারিত জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে।

Published by:Arpita Roy Chowdhury
First published:

Tags: Bardhaman news, West Bengal news

পরবর্তী খবর