• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • Bardhaman : রাত পোহালেই শুরু ঘুড়ির মেলা! রাজনৈতিক দলের চিহ্ন দেওয়া ঘুড়ির চাহিদা তুঙ্গে

Bardhaman : রাত পোহালেই শুরু ঘুড়ির মেলা! রাজনৈতিক দলের চিহ্ন দেওয়া ঘুড়ির চাহিদা তুঙ্গে

রাত পোহালেই শুরু ঘুড়ির মেলা! এই শহরে রব উঠবে 'ভো কাট্টা'

রাত পোহালেই শুরু ঘুড়ির মেলা! এই শহরে রব উঠবে 'ভো কাট্টা'

Bardhaman : করোনা আবহে এই মেলায় কোনও ভয় নেই। কারণ এক জায়গায় প্রচুর লোক সমাগমের কোনও ব্যাপার নেই।

  • Share this:

#বর্ধমান: ঘুড়ি ওড়াতে তৈরি বর্ধমান (Bardhaman)। রাজ আমল থেকে বর্ধমান শহরে পৌষ সংক্রান্তিতে ঘুড়ির মেলা অনুষ্ঠিত হয়। তবে করোনা আবহে এই মেলায় কোনও ভয় নেই। কারণ এক জায়গায় প্রচুর লোক সমাগমের কোনও ব্যাপার নেই। যে যার বাড়ির ছাদে ঘুড়ি লাটাই নিয়ে ওঠার অপেক্ষা। চলবে পেটকাটি চাঁদিয়ালের কাটাকুটি খেলা। থেকে থেকে রব উঠবে 'ভো কাট্টা'।

রাত পোহালেই পৌষ সংক্রান্তি। পিঠে পুলির উৎসব। পূর্ব বর্ধমান (Bardhaman) জেলায় আরও একটি উৎসব হয়ে থাকে এই দিনটিতে। ঘুড়ির উৎসব। যা ঘুড়ির মেলা নামেই পরিচিত। বর্ধমান ও কালনা শহরে সেই রাজ আমল থেকে জনপ্রিয় এই ঘুড়ির মেলা। প্রতি বছরই বিশেষ ধরনের ঘুড়ির চাহিদা থাকে। এবার পুর ভোটের আগে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের প্রতীক ছাপ দেওয়া ঘুড়ির চাহিদা তুঙ্গে। ঘুড়ি তৈরির কারখানাগুলিতেও গত কয়েকদিন ধরে চরম ব্যস্ততা চলেছে। তবে বর্ধমানে বিধি নিষেধের কারণে শেষ মুহূর্তে ঘুড়ির বিক্রি তেমন না হওয়ায় মন মরা বিক্রেতারা।

আরও পড়ুন- ময়নাগুড়ির ঘটনা দুর্ভাগ্যজনক, আহতদের দ্রুত চিকিৎসার ব্যবস্থা হচ্ছে! উদ্বিগ্ন হয়ে ট্যুইট মুখ্যমন্ত্রীর

ব্যবসায়ীরা বলছেন, বছর দশেক আগেও ঘুড়ির মেলা নিয়ে যে উন্মাদনা দেখা যেত এখন তা নেই। নতুন প্রজন্ম এখন অন্য নানা বিনোদনে ব্যস্ত। টিভি, মোবাইল, ভিডিও গেমের প্রতি তাদের আকর্ষণ বেড়েছে। তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে কমেছে ফুটবল, ক্রিকেট খেলা বা ঘুড়ি ওড়ানো। আগে কালী পুজোর পর শীত পড়তেই ঘুড়ি ওড়ানো শুরু হতো। শেষ হতো পৌষ সংক্রান্তিতে। এখন সেভাবে আকাশে আর ঘুড়ি দেখাই যায় না।

ঘুড়ির প্রতি আকর্ষণ ফিরিয়ে আনতে অন্য উপায় নিতে হয়েছে উৎপাদকদের। নবীন প্রজন্মকে ঘুড়ির প্রতি আকৃষ্ট করতে বিভিন্ন কার্টুন চরিত্র ফুটিয়ে তোলা হযচ্ছে। ছোটা ভিম, মোটু-পাতলু, পোকেমন সহ বিভিন্ন কার্টুন চরিত্রর ছবি ঘুড়িতে ফুটিয়ে তোলা হচ্ছে। ভোটের মুখে বিভিন্ন দলের নেতানেত্রীদের ছবি দেওয়া ঘুড়ি তৈরি করেও বাজার ধরছেন অনেকে। এবারও সামনে পুরভোট এই দুই শহরে। তাই চাহিদা বেড়েছে রাজনৈতিক দলের প্রতীক দেওয়া ঘুড়ির।

শরদিন্দু ঘোষ 

Published by:Swaralipi Dasgupta
First published: