Home /News /south-bengal /
Barasat:সোশ্যাল মিডিয়ায় আলাপ, যুবকের সঙ্গে দেখা করতে যান তরুণী...তারপর যা হল, শিউরে উঠবেন

Barasat:সোশ্যাল মিডিয়ায় আলাপ, যুবকের সঙ্গে দেখা করতে যান তরুণী...তারপর যা হল, শিউরে উঠবেন

সোশ্যাল মিডিয়ায় পরিচয় তরুনীর সঙ্গে, এর পর তরুণী যুবকের সঙ্গে দেখা করতে আসলে, তাঁকে ঘুরতে নিয়ে যাওয়ার নাম করে রাজারহাট নারায়ণপুরের গেস্ট হাউসে নিয়ে গিয়ে শ্রীলতাহানির অভিযোগ

  • Share this:

    #বারাসাত: সোশ্যাল মিডিয়ায় পরিচয় তরুনীর সঙ্গে, এর পর তরুণী যুবকের সঙ্গে দেখা করতে আসলে, তাঁকে ঘুরতে নিয়ে যাওয়ার নাম করে রাজারহাট নারায়ণপুরের গেস্ট হাউসে নিয়ে গিয়ে শ্রীলতাহানির অভিযোগ! জানা যায়, দিন কয়েক আগে বারাসাতের এক তরুনীর সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় পরিচয় হয় হাওড়ার বাসিন্দা মিল্টন ঘোষের । এর পর মিল্টন তরুনীর সঙ্গে দেখা করতে চায়। তরুণী জানান, বারাসাতে আসলে তাঁর সঙ্গে দেখা করতে পারবে! এর পরেই মিল্টন বারাসাতে দেখা করতে যায় তরুনীর সঙ্গে।

    আরও পড়ুন: রাস্তায় পড়ে দু'টি আঙুল, কাতরাচ্ছেন হোমগার্ড, সাতসকালে মর্মান্তিক দৃশ্যের সাক্ষী বেলুড়

    তরুণীকে ঘুরতে নিয়ে যাওয়ার নাম করে গাড়িতে করে রাজারহাট নারায়ণপুরের একটি গেস্ট হাউসে নিয়ে আসে অভিযুক্ত। সেখানেই জোর করে শ্রীলতাহানি করে বলে অভিযোগ তরুনীর। তরুণীর চিৎকার ছুটে আসেন গেস্ট হাউসের কর্মীরা। তাঁরাই তরুণীকে উদ্ধার করে।  গেস্ট হাউসের পক্ষ থেকে নারায়ণপুর থানায় পুরো বিষয়টি জানানো হয়। পুলিশ গেস্ট হাউজে এসে যুবককে আটক করে। পরবর্তীতে তরুনীর পরিবারেরতরফে নারায়ণপুর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে মিল্টন ঘোষ নামে ওই যুবককে গ্রেফতার করে নারায়নপুর থানার পুলিশ। শনিবার, অভিযুক্তকে ব্যারাকপুর আদালতে তোলা হয়েছে।

    আরও পড়ুন: আবহাওয়া বদলাচ্ছে! বইবে ঝোড়ো হাওয়া, ঘণ্টাখানেকের মধ্যেই ৩ জেলায় ঝেঁপে বৃষ্টির পূর্বাভাস!

    অন্যদিকে, ধূপগুড়ি ১৪ নম্বর ওয়ার্ডে আত্মহত্যার মুহূর্তের লাইভ ভিডিও করে আত্মঘাতী গৃহবধূ। বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের জের, প্রেমিকের সঙ্গে বিবাদ, গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা গৃহবধূর। মৃত্যুর আগের মুহূর্ত পর্যন্ত আত্মহত্যার ভিডিও করলেন নিজেই, প্রেমিকের হোয়াটসঅ্যাপে পাঠিয়ে ঝুলে পড়েন দড়িতে!চাঞ্চল্য । গৃহবধূর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়ায় ধূপগুড়িতে। গলায় ফাঁস দিয়ে ঝোলার আগে নিজের মোবাইলে ভিডিও তুলে কলকাতার বাসিন্দা তুহিন সাহা নামে তার এক ঘনিষ্ঠ যুবককে পাঠায় সেই গৃহবধূ। শুক্রবার বিকেলে ধূপগুড়ি শহরের ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের এক গৃহবধুর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয় তাঁর দোতালার ঘর থেকে। পরকীয়া সম্পর্কে জটিলতা সৃষ্টি হওয়ার জন্যই গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছে বলে পরিবারের দাবি। গৃহবধূর পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, কলকাতার যুবক তুহিনের সঙ্গে সাম্প্রতিক কালে সামাজিক গণমাধ্যমে তার পরিচয় হয়। সেই পরিচয় ধীরে ধীরে গভীর হয় বলে পরিবার সূত্রে দাবি। এমনকি বেশ কিছুদিন আগে কলকাতার সেই যুবকের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন ওই গৃহবধূ।

    Anup Chakraborty

    Published by:Rukmini Mazumder
    First published:

    Tags: Barasat

    পরবর্তী খবর