দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

পুজো মিটতেই ভয়াবহ বাস দুর্ঘটনা! নয়ানজুলিতে উল্টে গেল যাত্রী বোঝাই বাস, আর্ত চিৎকার-হাহাকার...

পুজো মিটতেই ভয়াবহ বাস দুর্ঘটনা! নয়ানজুলিতে উল্টে গেল যাত্রী বোঝাই বাস, আর্ত চিৎকার-হাহাকার...

পূর্ব বর্ধমান জেলার দেওয়ানদিঘি থানা এলাকার পাড়ুই মোড়ে এই ঘটনা ঘটেছে। বর্ধমান কুসুমগ্রাম রোডে একটি সেতুর কাছে বুধবার দুর্ঘটনাটি ঘটে।

  • Share this:

#দেওয়ান দিঘি: পুজো মিটতেই বড় ধরনের বাস দুর্ঘটনা। তাতে আহত হলেন পুরুষ মহিলা শিশু মিলিয়ে ২৫ জন যাত্রী। রাস্তা ছেড়ে নয়ানজুলিতে গিয়ে পড়ল বাস। আহত হলেন বাসে থাকা বেশির ভাগ যাত্রী। বর্ধমানের দেওয়ান দিঘিতে এই ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয় বাসিন্দারা তৎপর হয়ে বাস থেকে আহতদের উদ্ধার করেন। তারাই গাড়ির ব্যবস্থা করে আহত যাত্রীদের কুড়মুন হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে চিকিৎসা ব্যবস্থা করেন। অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচেছেন সকলেই। তবে কয়েক জনের আঘাত বেশ গুরুতর। বুধবার এই দুর্ঘটনা ঘটেছে ।

নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নয়ানজুলিতে যাত্রী বোঝাই বাস উল্টে জখম হয়েছেন পঁচিশ জন যাত্রী। পূর্ব বর্ধমান জেলার দেওয়ানদিঘি থানা এলাকার পাড়ুই মোড়ে এই ঘটনা ঘটেছে। বর্ধমান কুসুমগ্রাম রোডে একটি সেতুর কাছে বুধবার দুর্ঘটনাটি ঘটে। আহতদের উদ্ধার করে কুড়মুন হাসপাতালে পাঠানো হয়। পুলিশও খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমসপুর-বর্ধমান রুটের বাসটি এ দিন দুর্ঘটনার কবলে পড়ে। বাসটি বর্ধমান থেকে সোমসপুর যাচ্ছিল। পথে বর্ধমান কুসুমগ্রাম রোডে পাড়ুই মোড়ে হঠাৎ নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে নয়ানজুলিতে নেমে গিয়ে বাসটি উলটে যায়। বাসে বেশ কয়েকজন যাত্রী ছিলেন। তাদের মধ্যে পুরুষ-মহিলা মিলিয়ে পঁচিশ জন আহত হয়েছেন বলে জানা গিয়েছে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, বাসের চালক মোবাইল কানে দিয়ে কথা বলতে বলতে গাড়ি চালানোর ফলেই এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। আহতদের মধ্যে কয়েকজনকে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বাকিদের চিকিৎসা চলছে বলে জানা গিয়েছে। এলাকার বাসিন্দারা বলছেন, এমনিতেই ওই এলাকায় রাস্তা সংস্কারের কাজ চলছে। রাস্তার ওপর পাথর ছড়িয়ে রয়েছে। তার ওপর মোবাইলে কথা বলতে গিয়ে বাসের নিয়ন্ত্রণ হারান চালক। তার জেরেই দুর্ঘটনা ঘটে। বাসটিকে নয়ানজুলিতে উল্টে যেতে দেখেছেন অনেকেই। তারা ছুটে এসে উদ্ধার কাজে হাত লাগান। খবর পেয়ে আশপাশের গ্রাম থেকেও অনেক এসেছে যাত্রীদের বাস থেকে উদ্ধার করে গাড়িতে চাপিয়ে হাসপাতালে পাঠান।

Saradindu Ghosh

Published by: Shubhagata Dey
First published: October 28, 2020, 9:13 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर