• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • ANUBRATA MANDAL GIVES A THREAT BISWABHARATHI S VICE CHANCELLOR BIDYUT CHAKRAVARTY DD

West Bengal Election 2021 : ‘‘ ইলেকশন পেরিয়ে গেলে তোমাকে আমরা যে শিক্ষা দেব...’’-অনুব্রত মণ্ডলের ঝাঁঝালো মন্তব্য কাকে?

Photo-News 18 Bangla

West Bengal Election 2021 -র আগে তোপ দাগলেন অনুব্রত মণ্ডল৷

  • Share this:

    #বীরভূম: ‘‘ইলেকশন পেরিয়ে গেলে তোমাকে আমরা যে শিক্ষা দেব,বোলপুরবাস যে শিক্ষা দেবে তুমি সারা জীবন মনে রাখবে।’’ তৃণমূলের কর্মী সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী কে প্রকাশ্যে হুমকি বীরভূম জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের। পাশাপাশি উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী কে ‘‘ভয়ঙ্কর পাগল ও ননসেন্স ’’ বলে আখ্যা অনুব্রতর।

    ২০২০ সালে অগাস্ট মাসে শান্তিনিকেতন পৌষ মেলার মাঠে পাঁচিল তোলাকে কেন্দ্র করে ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হয়। তারপর থেকে ধীরে ধীরে বিশ্বভারতীর সঙ্গে রাজ্য সরকার এবং বীরভূম জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের সম্পর্কে চিড় ধরে। গতবছর বীরভূম জেলা সফরে এসে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়কে দেওয়া রাস্তা ফিরিয়ে নেন। বিশ্বভারতীর উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তীকে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রকাশ্যে বলেন, ‘‘বিদ্যুৎ চক্রবর্তী বিজেপির মার্কা মারা উপাচার্য।’’ করোনা আবহের পর থেকেই বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ এক বছরেরও বেশি ধরে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস বন্ধ করে রেখেছে। খুব স্বাভাবিক ভাবেই বেড়াতে আসা পর্যটকদের শান্তিনিকেতন পরিদর্শন করতে সমস্যায় পড়ছেন। এর ফলে অনেক পর্যটকই শান্তিনিকেতন আসতে পারছেন না। মাথায় হাত পড়েছে শান্তিনিকেতন কে ঘিরে পর্যটন ব্যবসায়ীদের।

    তাই মঙ্গলবার বীরভূম জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের তরফ থেকে বোলপুর গীতাঞ্জলি প্রেক্ষাগৃহে হোটেল ব্যবসায়ী, টোটো চালক, এবং পর্যটন ব্যবসার সঙ্গে যে সমস্ত মানুষ যুক্ত তাদেরকে নিয়ে একটি কর্মী সম্মেলন ছিল। সেই কর্মী সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল। অনুব্রত মণ্ডল বক্তব্য রাখতে গিয়ে বলেন, ‘‘বিশ্বভারতীর উপাচার্য একটা ভয়ঙ্কর পাগল। দিল্লি থেকে উড়িয়ে এনে বোলপুরে বহিরাগত একজনকে বিজেপির প্রার্থী করা হয়েছে।’’ তিনি আরও বলেন, ‘‘উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী ভাবছেন বোলপুরের বিজেপি বিধায়ক থাকলে তার বিশ্ববিদ্যালয় কাজ করতে সুবিধা হবে। শান্তিনিকেতন থেকে রবীন্দ্রনাথকে মুছে ফেলার চেষ্টা করছে উপাচার্য। আমরা তা কিছুতেই হতে দেব না।’’

    Indrajit Ruj

    Published by:Debalina Datta
    First published: