corona virus btn
corona virus btn
Loading

অফিসের মধ্যে বসে রাত পর্যন্ত মদ্যপান! অভিযোগ সরকারি অফিসারের বিরুদ্ধে

অফিসের মধ্যে বসে রাত পর্যন্ত মদ্যপান! অভিযোগ সরকারি অফিসারের বিরুদ্ধে
  • Share this:

#পশ্চিম মেদিনীপুর: অফিসের মধ্যে বসে রাত পর্যন্ত মদ্যপান করার অভিযোগ উঠল পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশপুর BL&LRO প্রশান্ত বিশ্বাসের বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয় অফিসের মধ্যে মিলল মদের বোতল সহ তরিতরকারির প্লেট। ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল রাতে। জানা যায়, গতকাল রাত ৯ টা নাগাদ BL&LRO অফিসে হইহুল্লোড়ের শব্দ পায় এলাকার মানুষ। এরপরই তারা অফিসের ভেতরে গিয়ে দেখেন, অফিসের ভিতরে যথারীতি মদ্যপান ও মচ্ছব চলছে। এরপরই ক্ষোভে ফেটে পড়ে এলাকার মানুষ। তারা অফিস ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। খবর দেওয়া হয় কেশপুর থানায়।

রাতেই ঘটনাস্থলে যায় কেশপুর থানার পুলিশ, কেশপুরের বিডিও। এবিষয়ে BL&LRO কে বিডিও জিজ্ঞেস করলেও তিনি কোনো সদুত্তর দিতে পারেননি। এই ঘটনায় কার্যতই চাঞ্চল্য দেখা দিয়েছে পশ্চিম মেদিনীপুর জেলা প্রশাসন স্তরে। এবিষয়ে কেশপুরের বিধায়ক শিউলী সাহা জানান, এরমধ্যে শাষকদলের কেউ যুক্ত নেই। কিছু বহিরাগত মানুষকে নিয়ে অফিসের ভেতরে এইসব কাজ চলছিল। আমি বিষয়টি জেলাপ্রশাসন, বিডিও, জেলা ভূমি সংস্কার উন্নয়ন আধিকারিককে জানিয়েছি। বিডিও ইতিমধ্যেই উনার দফতর থেকে সন্দেহজনক কিছু CO সংগ্রহ করে নিয়ে গিয়েছে। বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষ।

তদন্তের পরেই প্রশান্ত বিশ্বাসের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। অন্যদিকে এবিষয়ে ভূমি সংস্কার উন্নয়ন দপ্তরের অতিরিক্ত জেলাশাসক উত্তম অধিকারী জানান, একজন অফিসার প্রয়োজনে রাত পর্যন্ত অফিসের কাজ করতেই পারে, কিন্তু এইক্ষেত্রে তাঁর বিরুদ্ধে যে অফিসে মদ্যপানের অভিযোগটা উঠেছে, মদের বোতল মিলেছে অফিস থেকে, এটা মারাত্মক অভিযোগ। তিনি ইতিমধ্যেই বিষয়টি কেশপুর বিডিওকে বিভাগীয় তদন্ত করে তার রিপোর্ট জেলাপ্রশাসনকে জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন বলেও জানান।

First published: March 5, 2020, 8:22 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर