Home /News /south-bengal /

মতাদর্শ ভিন্ন, উদ্দেশ্য এক, সকলে মিলে দাঁড়ালেন NEET পরীক্ষার্থীদের পাশে

মতাদর্শ ভিন্ন, উদ্দেশ্য এক, সকলে মিলে দাঁড়ালেন NEET পরীক্ষার্থীদের পাশে

করোনা সংক্রান্ত পরীক্ষা নিরীক্ষা এবং স্বাস্থ্যবিধি মানার কারণে পরীক্ষা শুরুর তিন ঘণ্টা আগে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছনোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল৷ Photo Collected

করোনা সংক্রান্ত পরীক্ষা নিরীক্ষা এবং স্বাস্থ্যবিধি মানার কারণে পরীক্ষা শুরুর তিন ঘণ্টা আগে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষাকেন্দ্রে পৌঁছনোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল৷ Photo Collected

পরীক্ষার্থীদের নিরাপদে এবং নিশ্চিন্তে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিতে পথে শাসক বিরোধী দুই পক্ষই।

  • Share this:

    #নদিয়া: মতাদর্শ ভিন্ন, উদ্দেশ্য এক, দাঁড়াতে হবে পরীক্ষার্থীদের পাশে, রবিবার সকালে একই চিত্র দেখাগেলো নদীয়ার কল্যাণী শহরে শাসক তৃণমূল ও বিরোধী সিপিআইএমের গণসংগঠন এর দুই শিবিরের

    পরীক্ষার্থীদের নিরাপদে এবং নিশ্চিন্তে পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিতে পথে শাসক বিরোধী দুই পক্ষই। রবিবার সকালে নদিয়ার কল্যাণীতে একই চিত্র দুই রাজনৈতিক দলের। নিট পরীক্ষার্থীদের ও অভিভাবকদের পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিতে কল্যাণী শহর তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে গাড়ির ব্যবস্থা করে তাদের পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দেওয়ার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল সকাল থেকেই।

    অন্যদিকে পিছিয়ে ছিল না সিপিআইএমের ছাত্র-যুব- শ্রমিক ও অন্যান্য গণসংগঠনের কর্মী সমর্থকরা। এদিন সকাল থেকেই ছাত্র যুব শ্রমিক সংগঠনের কর্মী সমর্থক নেতৃত্বরা গাড়ির ব্যবস্থা করে বিভিন্ন কেন্দ্রে পরীক্ষার্থী ও তার সঙ্গে অভিভাবকদের পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করল।পরীক্ষার্থীর সংখ্যা যাই হোক না কেন লক্ষ্য যে এক, তা প্রমাণ করল এই শহর। রাজনৈতিক মতাদর্শ ভিন্ন হলেও উদ্দেশ্য ছিল নিরাপদ ও নিশ্চিন্তে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা কেন্দ্রে পৌঁছে দিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ানোর। সেই চিত্র কল্যাণী শহরের বুকে ধরা পড়ল রবিবার সকালে।

    রবিবার সারা দেশের পাশাপাশি এ রাজ্যে ও নিট নেওয়া হয়। রাজ্যের মোট ৭৭ হাজারেরও বেশি পরীক্ষার্থী আবেদন করেছে এই সর্বভারতীয় মেডিক্যাল প্রবেশিকার জন্য। তবে রাজ্যজুড়ে ১৮৯টি পরীক্ষা কেন্দ্রে এই পরীক্ষা নেওয়া হলেও রাজ্যের অনেক জেলাতেই পরীক্ষাকেন্দ্র করা হয়নি। যার জেরে হয়রানির মুখে পড়ে পূর্ব মেদিনীপুর, দক্ষিণ ২৪ পরগনা সহ কয়েকটি জেলার পরীক্ষার্থীরা। রবিবারের প্রবেশিকা পরীক্ষার জন্য নদিয়া মুর্শিদাবাদ সহ বিভিন্ন জেলা থেকে কলকাতার পরীক্ষাকেন্দ্রে গাড়ি ভাড়া করে পরীক্ষা দিতে খরচ হয়েছে ৮ থেকে ১০হাজার আবার কোনও কোনও পরীক্ষার্থী কুড়ি হাজার টাকা পর্যন্ত গাড়ি ভাড়া করে পরীক্ষা দিতে আসতে হয়েছে। করোনা পরিস্থিতিতে বাস পরিষেবা থাকলেও গাড়ি ভাড়া করি পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা কেন্দ্র পর্যন্ত আশাকে নিরাপদ বলে মনে করেছেন অভিভাবক- অভিভাবিকা রা। অন্যদিকে ন্যাশনাল টেস্টিং এজেন্সি স্বাস্থ্য বিধি মোতাবেক কলকাতার পরীক্ষা কেন্দ্র গুলোতে এদিন দেখা গেলেও পরীক্ষার যাবতীয় প্রস্তুতি করা হয়েছিল।

    Ranjit Sarkar
    Published by:Pooja Basu
    First published:

    Tags: NEET, South bengal news

    পরবর্তী খবর