corona virus btn
corona virus btn
Loading

মেমারি রেল স্টেশনের প্ল্যাটফর্ম থেকে ৬৬ বছরের মহিলাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ!

মেমারি রেল স্টেশনের প্ল্যাটফর্ম থেকে ৬৬ বছরের মহিলাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ!
  • Share this:

Saradindu Ghosh

#বর্ধমান: রেল স্টেশনের প্ল্যাটফর্ম থেকে বয়স্ক মহিলাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করা হল! এমনই চাঞ্চল্যকর ঘটনা ঘটেছে পূর্ব বর্ধমানের মেমারি রেল স্টেশনে। দশ দিন আগে সেই ঘটনার কথা জানাজানি হলেও রেল পুলিশ বা আর পি এফ তেমন কোনও ব্যবস্থা নেয়নি বলে অভিযোগ। ঘটনার কথা শুনে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এগিয়ে এলে নড়েচড়ে বসে রেল পুলিশ। ওই স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার চাপেই মূলত ধর্ষণের মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে রেল পুলিশ। বৃহস্পতিবার ওই মহিলাকে বর্ধমান মেডিকেল কলেজে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটে ৬ জুন মাঝরাতে। ছেষট্টি বছর বয়সী ওই মহিলা থাকেন মেমারি রেল স্টেশনের দু’নম্বর প্লাটফর্মে। রাত তখন দেড়টা। ওই মহিলা গায়ে চাদর চাপা দিয়ে ঘূমোচ্ছিলেন। সে সময় একজন তাঁর চাদর টেনে নেয়। ঘুম ভেঙে যাওয়ায় ওই মহিলা বাধা দেন। অভিযোগ, এরপর ওই ব্যক্তি মহিলাকে মুখ চেপে ধরে টেনে হিঁচড়ে নিয়ে যায়। প্ল্যাটফর্মের শেষ প্রান্তে  দাঁড়িয়ে থাকা এক মালগাড়ির পেছনে নিয়ে গিয়ে ওই মহিলাকে ধর্ষণ করা হয়। সারারাত সেখানেই পড়ে ছিলেন ওই মহিলা।

পরদিন সকালে ঘটনার কথা সবাইকে জানান তিনি। অভিযোগ, রেল পুলিশ ও আরপিএফকেও জানানো হয়েছিল। কিন্তু তাঁরা এ ব্যাপারে বিশেষ তৎপরতা দেখায়নি বলে অভিযোগ। আরপিএফ তাঁকে কিছু ওষুধ দিয়েছিল, রেল পুলিশ স্টেশনে রাত কাটানো অন্যান্যদের ওই মহিলার ওপর নজর রাখতে বলে দায় এড়ায় বলে অভিযোগ স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সদস্যদের।

স্থানীয় সূত্রে খবর পেয়ে ওই স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সদস্যরা বিষয়টি নিয়ে খোঁজ খবর শুরু করে। তাঁরা ওই মহিলার সঙ্গে কথা বলে বিস্তারিত ভাবে ঘটনার কথা শোনেন। এরপর জিআরপি ও আরপিএফের সঙ্গে কথা বলেন তাঁরা। তাঁদের বক্তব্য, সহায় সম্বলহীন অনেককেই বাধ্য হয়ে স্টেশনের প্ল্যাটফর্মে রাত কাটাতে হয়। তাঁদের খাদ্য বাসস্থানের পাশাপাশি নিরাপত্তাটুকুও যে নেই এই ঘটনাই তার প্রমাণ। অবিলম্বে ঘটনার যথোপযুক্ত তদন্ত ও দোষীর দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি তোলেন তাঁরা। বর্ধমান রেল পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ইতিমধ্যেই ওই মহিলাকে নিয়ে এসে তাঁর চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে। মহিলার মেডিকেল টেস্টের ব্যবস্থা হচ্ছে। দ্রুত যাতে অভিযুক্তকে ধরা সম্ভব হয় তার চেষ্টা চলছে।

Published by: Simli Raha
First published: June 18, 2020, 5:19 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर