অভিযোগ উঠল ভূরি ভূরি, নির্বাচন কমিশনের দাবি চতুর্থ দফার ভোট মিটেছে শান্তিতেই

অভিযোগ উঠল ভূরি ভূরি, নির্বাচন কমিশনের দাবি চতুর্থ দফার ভোট মিটেছে শান্তিতেই
Photo : Twitter
  • Share this:

#কলকাতা: নির্বাচন কমিশনের দাবি, চতুর্থ দফার ভোট শান্তিতেই মিটেছে। কিন্তু, অভিযোগ উঠল ভূরি ভূরি। বিজেপি তো বীরভূমের দুটি কেন্দ্রেই ফের ভোট করানোর দাবিতে সরব। কেন্দ্রীয় বাহিনী ঠিক মত মোতায়েন করা হয়নি বলে অভিযোগ সিপিএম-কংগ্রেসের। দিল্লিতে কমিশনের কাছে গিয়ে নালিশ তৃণমূলেরও।

রাজ্যের দায়িত্বপ্রাপ্ত নির্বাচন কমিশনের বিশেষ পর্যবেক্ষকের আকাশ পথে নজরদারি.... প্রায় একশো শতাংশ বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী....এত কিছুর পরেও, পশ্চিমবঙ্গে চতুর্থ দফার ভোটে একের পর এক অভিযোগ। ছাপিয়ে গেল আগের তিন দফাকে। বিজেপির দাবি, বীরভূম ও বোলপুর কেন্দ্রে ফের ভোট করাতে হবে।

সিপিএমেরও দাবি, বোলপুর লোকসভা কেন্দ্রের বিভিন্ন বুথে পুনর্নির্বাচন হোক। সিপিএম-কংগ্রেস এক সুরে আঙুল তুলেছে রাজ্য পুলিশের দিকে। তাদের দাবি, কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ঠিক মতো মোতায়েন করা হয়নি।

দিল্লিতে নির্বাচন কমিশনের কাছে গিয়ে নালিশ জানায় তৃণমূলও। তাদের নিশানায় আসানসোলের বিজেপি প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়।

বিরোধীরা নানা অভিযোগ করলেও নির্বাচন কমিশনের দাবি, চতুর্থ দফার ভোটও শান্তিতেই মিটেছে। এ দিন বহরমপুর লোকসভা কেন্দ্রের সালার, বোলপুরের কেতুগ্রাম ও ইলামবাজার এবং আসানসোলের পাণ্ডবেশ্বরে একজনের ভোট অন্যজন দিয়ে দেন বলে অভিযোগ ওঠে। সালার ও কেতুগ্রামের তিন প্রিসাইডিং অফিসারকে সরিয়ে দেয় কমিশন।

বুথের মধ্যে মোবাইল ফোনে কথা বলায়, কৃষ্ণনগরের বিজেপি প্রার্থী কল্যাণ চৌবে এবং বীরভূমের বিজেপি প্রার্থী দুধকুমার মণ্ডলকে শোকজ করা হয় ৷

First published: 10:55:25 PM Apr 29, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर