• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • শিক্ষককে ব্লাকমেল করে টাকা হাতানোর চেষ্টা, গ্রেফতার দুই স্কুল পড়ুয়া

শিক্ষককে ব্লাকমেল করে টাকা হাতানোর চেষ্টা, গ্রেফতার দুই স্কুল পড়ুয়া

ধৃত মূল অভিযুক্ত মিজানুর মণ্ডল

ধৃত মূল অভিযুক্ত মিজানুর মণ্ডল

স্কুল শিক্ষককে ভয় দেখিয়ে ব্ল্যাকমেল ৷ এরপর তার কাছ থেকে টাকা হাতানোর চেষ্টা ৷ এই ঘটনায় জড়িত দু’জন স্কুল পড়ুয়াকে গ্রেফতার করল পুলিশ ৷

  • Share this:

    #বাঁকুড়া: স্কুল শিক্ষককে ভয় দেখিয়ে ব্ল্যাকমেল ৷ এরপর তার কাছ থেকে টাকা হাতানোর চেষ্টা ৷ এই ঘটনায় জড়িত দু’জন স্কুল পড়ুয়াকে গ্রেফতার করল পুলিশ ৷

    ওই দুই ছাত্রের কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে ১টি পিস্তল, ৪ রাউন্ড কার্তুজ, ১টি গোপন ক্যামেরা, ১টি ছুরি এবং ১টি ভয় দেখানো টাইম বম্ব । ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার সোনামুখী শহরে । এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায় । ওই দুই ছাত্রের কাছে কীভাবে এল আগ্নেয়াস্ত্র এবং এর সঙ্গে আরও কেউ যুক্ত রয়েছে কিনা সেটিও তদন্ত করে দেখছে বাঁকুড়ার সোনামুখী থানার পুলিশ ৷ ধৃত দুই ছাত্র কে পাঠানো হয়েছে বাঁকুড়া জুভেনাইল কোর্টে।

    স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, সোনামুখী শহরের এক শিক্ষকের কাছ থেকে মোটা টাকা হাতানোর চেষ্টা করেছিল বাঁকুড়ার সোনামুখি শহরের একটি স্কুলেপ নবম ও একাদশ শ্রেণীর দুই ছাত্র । টাকা হাতানোর জন্য তারা প্ল্যানও কষে তারা ৷ টাকা হাতানোর জন্য ওই শিক্ষকের বাড়ির সামনে একটি দেশলাই বাক্সের মধ্যে এক রাউন্ড কার্তুজ ও একটি চিপস নামিয়ে রেখে আসে অভিযুক্ত দুই ছাত্র । এরপর ওই শিক্ষকের মোবাইলে ফোন করে অভিযুক্ত দুই ছাত্র ৷ ফোন করে দেশলাই বাক্স উদ্ধার করা নির্দেশ দেয় ওই দুই ছাত্র ৷

    সূত্রের খবর, দেশলাই বাক্সের মধ্যে চিপস ছাড়াও ছিল পুলিশের উদ্ধার হওয়া কার্তুজের ভিডিও এবং হুমকি চিঠি । সেই হুমকিতে আধ ঘন্টার মধ্যে ৫০ হাজার টাকার মুক্তিপণ চেয়ে বসে ওই ছাত্র । আর তা না দিলে তার পরিনাম ভয়ঙ্কর হবে বলেও হুমকি দেয় ।  ভিডিও দেখে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন শিক্ষক ও তাঁর পরিবার। বিষয়টি নিয়ে সোনামুখী পুলিশের দ্বারস্থ হয় আতঙ্কিত শিক্ষক । ঘটনার তদন্ত শুরু করে সোনামুখী থানার পুলিশ। ভিডিও ফুটেজ দেখে ও কন্ঠস্বর শুনে ঘটনার তদন্তে নামে পুলিশ। মোবাইল টাওয়ার লোকেশন ও কন্ঠ স্বরের সূত্র ধরে কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই অভিযুক্ত দুই ছাত্রকে আটক করে পুলিশ । তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে বেরিয়ে আসে পুরো ঘটনা । ছাত্রদের জিজ্ঞাসাবাদ করে শিক্ষকের বাড়ি থেকেই উদ্ধার হয় গোপন ক্যামেরা । জেরায় ওই দুই ছাত্র স্বীকার করে ব্লাকমেল করার জন্য ওই গোপন ক্যামেরা তাঁরা শিক্ষকের বাড়িতে লাগায় । শিক্ষকদের ভয় দেখিয়ে টাকা কমানোর জন্যই তারা এই উপায় অবলম্বন করেছিল । তবে এই ছাত্রদের সঙ্গে কেউ যুক্ত রয়েছে কিনা এবং এই ছাত্রদের কাছে কীভাবে এল আগ্নেয়াস্ত্র তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ । ধৃত দুই ছাত্রকে আজ পাঠানো হয়েছে বাঁকুড়া জুভেনাইল আদালতে ।

    আরও পড়ুন: জাতীয় সড়কে ভয়াবহ গাড়ি দুর্ঘটনা ! ২০ ফুট গর্তে পড়েও বেঁচে গেলেন চার যাত্রী

    First published: