Home /News /purba-bardhaman /
East Bardhaman News: বাড়ি থেকে বেরোলেই বিপদ! এ কী হচ্ছে কালনায়!

East Bardhaman News: বাড়ি থেকে বেরোলেই বিপদ! এ কী হচ্ছে কালনায়!

কাবু

কাবু ষাঁড়কে নিয়ে তোলা হচ্ছে গাড়িতে

ষাঁড়ের তাড়ায় অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছিল এলাকার মানুষ। ঘর থেকে বেরোনোই দায় হয়ে পড়েছিল বাসিন্দাদের। কোনও ভাবেই ষাঁড়টিকে কাবু করতে পারছিলেন না স্থানীয়রা। তারপর..

  • Share this:

    #পূর্ব বর্ধমান: ষাঁড়ের তাড়ায় অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছিল এলাকার মানুষ। ঘর থেকে বেরোনোই দায় হয়ে পড়েছিল বাসিন্দাদের। কোনও ভাবেই ষাঁড়টিকে কাবু করতে পারছিলেন না স্থানীয়রা। এরইমধ্যে ষাঁড়ের গুঁতোয়ে মৃত্যু হয়েছে একজনের, আহত আরও এক ব্যক্তি। অবশেষে ঘুমপাড়ানি ইনজেকশনে জব্দ হল পূর্ব বর্ধমান জেলার কালনার শ্যামগঞ্জ পাড়ায়, দু জন ব্যক্তিকে আহত করা এই ষাঁড়।

    কালনার শ্যামগঞ্জ পাড়া এলাকা থেকে ঘাতক সেই ষাঁড়টিকে উদ্ধার করা হয় এদিন। এই উদ্ধার কাজে হাজির ছিলেন কালনা পৌরসভার উপ পৌরপতি, কালনা মহকুমা শাসকের দফতরের আধিকারিকরা, কালনা দমকল বিভাগের আধিকারিক, BLDO অফিসার সহ বিশিষ্টজনেরা। এদিন ষাঁড়টিকে ঘুম পাড়ানোর ইনজেকশন দিয়ে কাবু করার পর বন দফতরের হাতে তুলে দেওয়া হয়।

    আরও পড়ুন-  এবার কড়া পদক্ষেপ ট্রাফিক পুলিশের! কত বাড়ল জরিমানা? দেখুন

    প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত কয়েকদিনে বেশ কয়েকজন মানুষকে এই ষাঁড়টি শিংয়ের গুঁতোয় জখম করেছিল। এর পরই প্রশাসনের তরফে ষাঁড়টিকে ধরার ব্যবস্থা করা হয়। অবশেষে জব্দ করা গেল ষাঁড়টিকে। প্রশাসনের এই পদক্ষেপে খুশি হয়েছেন স্থানীয়রা।

    আরও পড়ুন- মাটির নীচে ঘর বানিয়ে ফেলল চার বালক! দেখলে তাক লেগে যাবে!

    স্থানীয়রা বলেন, পুলিশ দ্রুততার সঙ্গে সমস্ত কাজটা করেছে। পশু আইনকে মান্যতা দিয়ে প্রশাসন ষাঁড়টিকে ঘুম পাড়ানোর ওষুধ দিয়ে বশে এনেছে। এতে স্বস্তি পেয়েছেন তাঁরা। গত কয়েকদিন ধরে নাজেহাল হয়ে পড়েছিলেন তাঁরা। ঘর থেকে বেরোলেই আতঙ্কে ছিলেন, এই বুঝি ষাঁড় এসে গুঁতো মারে। পুলিশের কাজের প্রশংসা করেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

    Malobika Biswas

    First published:

    Tags: East Bardhaman, Kalna

    পরবর্তী খবর