নৃশংস পঞ্চায়েতি নিদান! পরিবারের সামনেই নাবালিকাকে ধর্ষণের নির্দেশ

Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jul 27, 2017 12:05 PM IST
নৃশংস পঞ্চায়েতি নিদান! পরিবারের সামনেই নাবালিকাকে ধর্ষণের নির্দেশ
Elina Datta | News18 Bangla
Updated:Jul 27, 2017 12:05 PM IST

#মুজফরবাদ: ধর্ষণের বদলে ধর্ষণ ৷ গ্রাম পঞ্চায়েতের সালিশি সভার এমন নির্দেশের মূল্য চোকাতে হল নিরপরাধ বছর ষোলোর কিশোরীকে ৷ পরিবারের চোখের সামনে খোলা পঞ্চায়েতি সভায় ধর্ষণ করা হল এক নাবালিকাকে ৷ ঘটনাটি ঘটেছে পাকিস্তানের পঞ্জাব প্রদেশের রাজপুর গ্রামে ৷

ধর্ষণে অভিযুক্ত এক যুবকের শাস্তির নিদানে বসেছিল এক সালিশি সভা ৷ চোখের বদলে চোখ এই নীতিতেই বিশ্বাসী গ্রাম পঞ্চায়েত দোষীর শাস্তি হিসেবে সাজা দিলেন এক নিরপরাধীকে ৷ নির্যাতিতার ভাইয়ের উদ্দেশ্যে অভিযুক্ত যুবকের কিশোরী বোনকে সর্বসমক্ষে ধর্ষণ করে প্রতিশোধ নেওয়ার নির্দেশ দিল সালিশি সভা ৷

যেমন নির্দেশ, তেমন কাজ ৷ পঞ্চায়েতের নিদান শুনেই মেয়েটির পরিবার ও অভিযুক্ত উমর ওয়াদ্দারের বোনের উপর ঝাঁপিয়ে পড়ে আশফাক ৷ গ্রামের সকলের সামনেই চলে কিশোরী নির্দোষ মেয়েটির উপর যৌন নির্যাতন ৷

১৮ জুলাই এমন ঘটনা ঘটলেও, পরে খবর পেয়ে মামলা করে পুলিশ ৷ অভিযুক্ত আশকাক ও ওয়াদ্দার সহ অপরাধে বাধা না দিয়ে এমন নৃশংস ঘটনার সাক্ষী থাকার জন্য রাজপুর গ্রামের ২০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ ৷

সংবাদ সংস্থা পিটিআই সূত্রে খবর, মুলতান প্রদেশের মুখ্য পুলিশ আধিকারিক এহসান ইউনিস জানিয়েছেন, রাজপুর গ্রামের বাসিন্দা আশফাকের কিশোরী বোনকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে উমর ওয়াদ্দারের বিরুদ্ধে ৷ ঘটনার বিচার চাইতেই গ্রামে এমন সালিশি সভা বসানো হয়েছিল ৷ সেখানেই আক্রান্তের দাদাকে প্রতিশোধ নিতে অভিযুক্তের বোনকে সর্বসমক্ষে ধর্ষণের নিদান দেওয়া হয় ৷

এই ঘটনায় অভিযুক্ত আশকাক ও ওয়াদ্দার সহ গ্রাম পঞ্চায়েতের সমস্ত সদস্যের নামে এফআইআর দায়ের হয়েছে ৷

First published: 12:05:10 PM Jul 27, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर