Home /News /off-beat /
Viral Video: প্লেনে অপরিচিত বাচ্চার সঙ্গে স্ন্যাকস ভাগ করে খেলেন মহিলা; ভিডিও দেখলে আসল মজা

Viral Video: প্লেনে অপরিচিত বাচ্চার সঙ্গে স্ন্যাকস ভাগ করে খেলেন মহিলা; ভিডিও দেখলে আসল মজা

Viral Video: একজন মহিলার স্ন্যাকস ভাগ করে নেওয়ার একটি ভিডিও নিয়ে ইন্টারনেটে জোর চর্চা শুরু হয়েছে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: ভাগ করে খাওয়ার (Food Share) কথা আমাদের ছোট থেকেই শেখানো হয়। তবে, সবাই খাবার ভাগ করে খাবার খেতে পছন্দ করে না! তা সে শিশুই হোক বা বড় কেউ।

সিনেমা হলে টব থেকে আচমকা কেউ পপকর্ন (Popcorn) নিয়ে নিলে বা আইসক্রিমে (Ice cream) থেকে কামড় দিয়ে দিলে নিশ্চয় অনেকেরই সেটা ভালো লাগবে না। কিন্তু আবার অনেকেই আছেন, যাঁরা এটি উপভোগ করেন!

আরও পড়ুন- বিশ্বের সবচেয়ে দামী পনির! এক কেজির যা দাম, বাড়িতে বাইক চলে আসবে

স্কুলের টিফিন থেকে অফিসে দুপুরের খাবার ভাগাভাগি করা পর্যন্ত, অনেক ভোজনরসিক একসঙ্গে বসে একে অপরের খাবার থেকে খেতে পছন্দ করেন। এই দুই ধরনের ভোজনরসিক, যাঁরা ভাগ করতে পছন্দ করেন এবং যাঁরা ভাগ করতে পছন্দ করেন না, তাঁরা একসঙ্গে মোটেই চলতে পারেন না।

সম্প্রতি, একজন মহিলার স্ন্যাকস ভাগ করে নেওয়ার একটি ভিডিও নিয়ে ইন্টারনেটে জোর চর্চা শুরু হয়েছে। চেলসি নামের ওই মহিলা প্লেনে নিজের সিটে বসে গামি ওয়ার্মস (Gummy Worms) নামে স্ন্যাকসজাতীয় কিছু খাচ্ছিলেন।

ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে আমরা প্রথমে চেলসিকেই দেখতে পেয়েছি। এর পরেই দেখা যায় যে সামনের সিটে বসা একটি বাচ্চা দুই সিটের মাঝখান দিয়ে হাত বাড়িয়ে তাঁর থেকে স্ন্যাকস চেয়ে বসে।

ব্যাপারটার মধ্যে অস্বাভাবিক কিছুই নেই! একে তো সে বাচ্চা, তার উপরে ওরকম রঙ-বেরঙের গামি ওয়ার্মস দেখলে যে কারও মুখে পুরে দিতে ইচ্ছে করবে। তা, চেলসি বাচ্চাটাকে নিরাশ করেননি।

প্রথমে তার হাতে একটা গামি ওয়ার্মস ধরিয়ে দেন তিনি। কিন্তু বাচ্চা নাছোড়বান্দা- তার আরও চাই! সে হাত বাড়িয়ে অপেক্ষা করেই চলেছিল, যতক্ষণ না মহিলা তাকে গোটা চারেক গামি ওয়ার্মস দেন।

আরও পড়ুন- রসগোল্লার ইংরেজি জানেন? উত্তর খুঁজতে হোঁচট খেয়েছেন ৯৯% মানুষই! এবার আপনার পালা

আর এর পরেই ভিডিওতে যা দেখা যায়, তা অনেকেরই চোখের কোণে জল এনে দেবে। শিশুটি গামি ওয়ার্মস পেয়ে মহা খুশি হয়ে মহিলার হাত ধরতে চেয়েছিল। চেলসি জানিয়েছেন, সে তাঁকে নিজের বন্ধু করে নিয়েছে!

ভিডিওটি মহিলা তাঁর ইনস্টাগ্রাম (Instagram) অ্যাকাউন্ট @rttchelsea-তে আপলোড করেছেন। ২৬ লক্ষেরও বেশি ব্যবহারকারী ভিডিওটি দেখেছেন। কয়েক লক্ষ ব্যবহারকারী ভিডিওটি পছন্দ করেছেন। সাধে কী আর বলে ইংরেজিতে- শেয়ারিং ইজ কেয়ারিং!

Published by:Suman Majumder
First published:

Tags: Viral Video

পরবর্তী খবর