Vastu Tips: খাওয়ার ঘরের দেওয়ালে এই রঙ থাকলে জীবনে সমস্যা দেখা দেবে, সতর্ক হন এখনই!

Photo Courtesy: News18 Telugu

এই নির্দেশগুলো মেনে চলতে পারলে জীবনে সমৃদ্ধি আসবে, পরিবারের সদস্যদের স্বাস্থ্য ভালো থাকবে এবং মনেও বিরাজ করবে আনন্দ, প্রসন্নতা।

  • Share this:

কলকাতা: খাওয়ার ঘরের নিজস্ব কিছু নিয়ম আছে! নিয়ম বলতে এখানে কিন্তু আমরা ফ্যামিলি এটিকেটের কথা বলছি না! মানে কী ভাবে চেয়ারে বসতে হবে, কোলে ন্যাপকিন কী ভাবে পাততে হবে, গ্লাসটা থালার কোন দিকে থাকবে, ছুরি আর কাঁটার মধ্যে কোনটা কোন হাতে ধরতে হবে- এই সব কিছুই বিদেশি শিষ্টাচারের অন্তর্গত। আমরা কথা বলছি বিশুদ্ধ ভারতীয় জীবনধারা এবং তার শাস্ত্রনির্ভর পন্থা নিয়ে। এই প্রসঙ্গে আচার্য ইন্দু প্রকাশ (Acharya Indu Prakash) খাওয়ার ঘর এবং বাস্তুশাস্ত্রের নির্দেশিত মতাবলীর কয়েকটি দিক আমাদের সামনে তুলে ধরেছেন। তাঁর মতে, এই নির্দেশগুলো মেনে চলতে পারলে জীবনে সমৃদ্ধি আসবে, পরিবারের সদস্যদের স্বাস্থ্য ভালো থাকবে এবং মনেও বিরাজ করবে আনন্দ, প্রসন্নতা।

১. খাওয়ার ঘরের টেবিল এমন ভাবেই পাতা উচিত যাতে পরিবারের সদস্যেরা পূর্ব, উত্তর বা পশ্চিম দিকের মধ্যে যে কোনও এক দিকে মুখ করে খাওয়ার সুযোগ পান, এতে স্বাস্থ্য ভালো থাকে।

২. দক্ষিণ দিকে অধিষ্ঠান করেন যমরাজা, মৃত্যুপুরীর অবস্থানও ওই দিকেই! এই কারণে বাস্তুশাস্ত্র কখনই দক্ষিণ দিকে মুখ করে খাদ্য গ্রহণ করা সমর্থন করে না, তা পরিবারের সদস্যদের স্বাস্থ্যে নেতিবাচক প্রভাব ফেলে।

২. খাওয়ার ঘরের টেবিলের উপরটা গোলাকার বা আয়তাকার হলেই ভালো হয়, অন্য আকৃতি সংসারে অশান্তি ডেকে আনে।

৩. যেহেতু বিষয়টা খাদ্য সম্পর্কিত, সেহেতু খাওয়ার ঘর সব সময়ে পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখা উচিত, এতে খাদ্যদাত্রী দেবী লক্ষ্মী তুষ্ট হন। অপরিচ্ছন্নতা দেবী লক্ষ্মী সহ্য করতে পারেন না, তাই খাওয়ার ঘরে শুচি পরিবেশ বিরাজ করলে পরিবারে অন্নকষ্ট দেখা দেয় না।

৪. খাওয়ার ঘরে পর্যাপ্ত পরিমাণে আলো থাকা উচিত, না হলে সেখানে নেতিবাচক শক্তি প্রভাব বিস্তার করে। পাশাপাশি, আলোকিত পরিবেশে বসে একসঙ্গে খাওয়ার অভ্যাস পরিবারের সদস্যদেরও মন ভালো রাখতে সাহায্য করে।

৫. খাওয়ার ঘরের দেওয়ালে সব সময়ে হালকা সবুজ, হালকা গোলাপি, আকাশনীল, হালকা কমলা, হালকা অথচ উজ্জ্বল হলুদ এবং ঘি রঙ থাকা উচিত, এতে পরিবারের সদস্যদের মন ভালো থাকে।

৬. একই ভাবে কালো রঙ খাওয়ার ঘরের দেওয়ালে থাকা কখনই উচিত নয়, তা পরিবারে অশুভ এবং অশান্তির কারণ হয়ে দাঁড়ায়!

Published by:Siddhartha Sarkar
First published: