corona virus btn
corona virus btn
Loading

শিলিগুড়ির হাতিঘিষায় কোয়ারান্টাইনের বিরুদ্ধে সরব গ্রামবাসীরা, চলল বিক্ষোভ

শিলিগুড়ির হাতিঘিষায় কোয়ারান্টাইনের বিরুদ্ধে সরব গ্রামবাসীরা, চলল বিক্ষোভ

সোমবার এই কোয়ারান্টাইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে সামিল হাতিঘিষা নাগরিক মঞ্চ। জনবহুল এলাকায় নয়, মেডিকেলে তা চালু করুক। এই দাবীতেই সরব হন তারা।

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: করোনা মোকাবিলায় তৈরী রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তর। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন মেডিকেল কলেজ এবং জেলা, সদর, মহকুমা হাসপাতালে আইশোলেশন ওয়ার্ড চালু করেছে। পাশাপাশি N 95 মাস্ক সহ প্রতিরোধক চিকিৎসা সরঞ্জামেরও ব্যবস্থা করা হয়েছে সর্বত্রই। করোনার সাপোর্টিভ যে চিকিৎসা রয়েছে তার ব্যবস্থাও করেছে। সেইসঙ্গে রাজ্যে কলকাতা এবং শিলিগুড়িতে কোয়ারান্টাইন সেন্টার খুলছে।

শিলিগুড়ির নকশালবাড়ি ব্লকের হাতিঘিষায় ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্টের অফিসে কোয়ারান্টাইন সেন্টার খুলেছে। বেড সহ যাবতীয় ব্যবস্থা করেছে দার্জিলিং জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর। সোমবার এই কোয়ারান্টাইনের বিরুদ্ধে বিক্ষোভে সামিল হাতিঘিষা নাগরিক মঞ্চ। জনবহুল এলাকায় নয়, মেডিকেলে তা চালু করুক। এই দাবীতেই সরব হন তারা। দীর্ঘক্ষন ধরে চলে বিক্ষোভ। স্থানীয়দের দাবী, পাশেই দুটো হাই স্কুল রয়েছে। অদূরে কলেজ। রয়েছে চা বাগানও। প্রচুর চা শ্রমিক কাজ করেন বাগানে। এই ধরনের সেন্টার খুললে এলাকায় করোনার জীবাণু ছড়াতে পারে। এতেই আতঙ্কিত হয়ে পড়েন স্থানীয়রা। অবিলম্বে সেন্টারটি অন্যত্র সরানোর দাবী তোলেন।

খবর পেয়ে নকশালবাড়ির বিডিও ঘটনাস্থলে এলেও বিক্ষোভ সরেনি। তিনি কথা বলেন আন্দোলনকারীদের সঙ্গে। কিন্তু তারা পিছু হঠেননি। পরে পৌঁছন জেলার স্বাস্থ্য আধিকারীক সুজয় বিষ্ণু। তিনি স্থানীয়দের পুরো বিষয়টি বোঝান। এই সেন্টারে আক্রান্ত রুগীদের রাখা হবে না। বা কারোর করোনার চিকিৎসাও হবে না। স্রেফ বয়স্ক মানুষদের কোয়ারান্টাইন করে রাখা হবে। স্বাস্থ্য আধিকারীকের আশ্বাসে অবশেষে বিক্ষোভ প্রত্যাহার করে গ্রামবাসীরা। জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর নিজেদের সিদ্ধান্তে অটল।

গ্রামবাসীদের আতঙ্ক কিন্তু কাটেনি। যেহেতু এলাকায় প্রচুর সাধারন মানুষের বাস। পাশেই স্কুল, কলেজ রয়েছে। তাই আতঙ্কিত তারা। যদিও এখোনো পর্যন্ত কাউকেই কোয়ারান্টাইনে আনা হয়নি। পর্যবেক্ষন স্বাভাবিক শুরু হয়নি। তবে সবরকম ব্যবস্থাই করে রেখেছে জেলা স্বাস্থ্য দপ্তর। তবে স্থানীয়রা কোন পথে হাঁটে সেদিকে নজর জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরের।

Published by: Pooja Basu
First published: March 16, 2020, 11:13 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर