corona virus btn
corona virus btn
Loading

সারানো হচ্ছে না বেহাল রাস্তা, পঞ্চায়েত প্রধানকে এক কিলোমিটার হাঁটালেন গ্রামবাসীরা

সারানো হচ্ছে না বেহাল রাস্তা, পঞ্চায়েত প্রধানকে এক কিলোমিটার হাঁটালেন গ্রামবাসীরা
প্রধানকে ঘিরে গ্রামবাসীদের বিক্ষোভ৷

গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান ধনেশ্বর বর্মন গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে পৌঁছাতেই গ্রামবাসীরা তাঁকে পঞ্চায়েত অফিসে ঢুকতেই দেননি।

  • Share this:

#রায়গঞ্জ: রায়গঞ্জ পঞ্চায়েত অফিসে তালা লাগিয়ে প্রধানকে অফিসে ঢুকতে না দিয়ে প্রায় এক কিলোমিটার হাঁটিয়ে বেহাল রাস্তার পরিস্থিতি দেখালেন গ্রামবাসীরা। এমনই ঘটনা ঘটল রায়গঞ্জ থানার বরুয়া গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায়।

রায়গঞ্জ ব্লকের বরুয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের বি এড কলেজ মোড় থেকে বাজিতপুর পর্যন্ত এক কিলোমিটার রাস্তা দীর্ঘদিন ধরে বেহাল হয়ে পড়েছিল। এক মাস আগে রাস্তা মেরামতির দাবিতে এলাকার মানুষ পঞ্চায়েত অফিস ঘেরাও করেছিল। রায়গঞ্জ ব্লকের যুগ্ম সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিক এলাকায় পৌঁছে রাস্তা মেরামতির আশ্বাস দিয়েছিলেন। দীর্ঘ একমাস অতিক্রান্ত হওয়ার পরও রাস্তা সারাই না হওয়ায় এলাকার বাসিন্দারা গ্রাম পঞ্চায়েত অফিস ঘেরাও করেন।

গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান ধনেশ্বর বর্মন গ্রাম পঞ্চায়েত অফিসে পৌঁছাতেই গ্রামবাসীরা তাঁকে পঞ্চায়েত অফিসে ঢুকতেই দেননি। পঞ্চায়েতে তালা লাগিয়ে প্রধান ধনেশ্বর বর্মনকে প্রায় এক কিলোমিটার হাঁটিয়ে এলাকায় নিয়ে আসেন এলাকাবাসী।রাস্তার বেহাল অবস্থা নিজের চোখে দেখাবার পর গ্রামবাসীরা তাঁকে ঘেরাও করে রাখেন।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় রায়গঞ্জ  থানার পুলিশ। প্রধান ধনেশ্বর বর্মন জানিয়েছেন, পঞ্চায়েতের বেশ কয়েকটি রাস্তা মেরামতির জন্য বরাত দেওয়া হয়েছে।এই রাস্তা মেরামতির জন্য যে পরিমাণ রাবিশ বরাত দেবার  প্রয়োজন ছিল সেই পরিমাণ রাবিশ বরাত দেওয়া হয়নি। কিন্তু এলাকা পরিদর্শন করে তিনি সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করলেন।

স্থানীয় সদস্যকে পুরো রাস্তা মেরামতির জন্য যে পরিমাণ রাবিশ প্রয়োজন তা দেবার নির্দেশ দেন তিনি। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত রাস্তা মেরামতি করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে । গ্রামবাসীরা তাঁকে হাঁটিয়ে নিয়ে যাওয়া প্রসঙ্গে প্রধান জানান, গ্রামের ছেলে হাঁটতে ভালই লাগে। গ্রামবাসীদের সঙ্গে হেঁটে আসতে ভাল লেগেছে।

গ্রামবাসী সুকান্ত সরকার জানিয়েছেন, দীর্ঘদিন ধরে রাস্তা বেহাল হয়ে আছে। প্রধানকে জানানো সত্বেও তিনি কোনও উদ্যোগ গ্রহণ না করায় আজ তাঁকে পঞ্চায়েত অফিস থেকে হাঁটিয়ে এলাকায় আনা হয়েছে। ব্লক আধিকারিকরা ঘটনাস্থলে না আসা পর্যন্ত তাঁকে ঘেরাও করে রাখা হয়। পরবর্তীতে পুলিশের হস্তক্ষেপে প্রধান ঘেরাও মুক্ত হন।

Uttam Paul

Published by: Debamoy Ghosh
First published: July 17, 2020, 9:13 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर