Home /News /north-bengal /
Alipurduar: একেবারে অবিশ্বাস্য উপায়ে তরমুজ চাষ করলেন আলিপুরদুয়ারের প্রত্যন্ত গ্রামের যুবক

Alipurduar: একেবারে অবিশ্বাস্য উপায়ে তরমুজ চাষ করলেন আলিপুরদুয়ারের প্রত্যন্ত গ্রামের যুবক

পলি মালচিং পদ্ধতিতে দোঁয়াশ মাটিতেই এবার তরমুজ চাষ।

পলি মালচিং পদ্ধতিতে দোঁয়াশ মাটিতেই এবার তরমুজ চাষ।

Alipurduar: তরমুজের গুণগতমান ঠিক থাকলে এই পদ্ধতিতে তরমুজ চাষে উদ্যোগী হবেন অনান্যরাও এবং তরমুজ চাষে এই বৈচিত্র্য কৃষকদের ক্ষেত্রে লাভজনক হবে বলে তিনি আশাবাদী।

  • Share this:

    আলিপুরদুয়ার: তরমুজ একটি অত্যন্ত জনপ্রিয় ও সুস্বাদু গ্রীষ্মকালীন ফল। প্রচন্ড গরমে তরমুজ দেহ ও মনে আনে প্রশান্তি। এটি পুষ্টিগুণেও ভরপুর। বৈশাখের চাঁদিফাটা রোদে যখন নাজেহাল অবস্থা সাধারণ মানুষের, তীব্র গরম থেকে ক্ষণিকের স্বস্থি পেতে এবং ডিহাইড্রেশনের সমস্যা থেকে রেহাই পেতে বাজারে উপচে পড়ে তরমুজ ক্রেতারা। তরমুজের ব্যাপক জনপ্রিয়তার কথা মাথায় রেখেই গতানুগতিক চাষের পদ্ধতি থেকে বেড়িয়ে এবার দোঁয়াশ মাটিতেই সুস্বাদু তরমুজ চাষ করে তাক লাগালেন আলিপুরদুয়ারের প্রত্যন্ত গ্রামের যুবক।

    আরও পড়ুন: "জেলে গেলে প্রাণে বাঁচবেন, নইলে..." অনুব্রত মণ্ডলকে নিয়ে 'বিস্ফোরক' মন্তব্য দিলীপ ঘোষের!

    বিশেষ কায়দায় পলি মালচিং পদ্ধতিতে তরমুজ চাষের অনুকূল পরিবেশ তৈরি করে রীতিমত চমকে দিয়েছেন কুমারগ্রাম ব্লকের পশ্চিম চকচকার কৃষক প্রতাপ বিশ্বাস। তরমুজ চাষের জন্য প্রচুর সূর্যালোক ও শুষ্ক জলবায়ু প্রয়োজন। ফলটি ঠান্ডা সহ্য করতে পারে না, ফল পাকার সময় সূর্যালোকের অভাব হলে ফলের স্বাদ অর্থাৎ মিষ্টতা  ঘ্রাণ নষ্ট হয়ে যায়। ফলস্বরূপ উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন নদীর চরেই বেলে মাটিতেই প্রতি বছর চাষ য় এই তরমুজ। পরীক্ষামূলকভাবে নিজের জমিতে তরমুজ চাষের বিষয়ে বন্ধুর থেকে খোঁজ পায় প্রতাপ। বিষয়টি নিয়ে রীতিমত খোঁজ খবর চালান তিনি, দিন রাত চর্চা করে শুরু হয় এই বছর তরমুজ চাষ। আধুনিক কৃষি বিজ্ঞানকে হাতিয়ার করে পলি মালচিং পদ্ধতি অবলম্বন করেন তিনি।

    জানা যায়,ফসলের ক্ষেতে আর্দ্রতা সংরক্ষণে পলি মালচিং বিশেষভাবে উপকারী, এ প্রযুক্তি ব্যবহারে জমিতে রসের ঘাটতি হয় না। আগাছা কম জন্মায়, এমনকি বেশ কিছু পোকামাকড়ের আক্রমণ রোধ করা যায়। এবার এই পন্থাই অবলম্বন করে নিজের ২৫ ডেসিমেল জমিতে পরীক্ষামূলক ভাবে শুরু করে তরমুজ চাষ। প্রতাপ বিশ্বাস জানান, চাষ আবাদে বৈজ্ঞানিক পদ্ধতির সাথে চাষের চিরাচরিত রীতির একত্রিকরণে চাষে লাভের পরিমাণ বেশি থাকে। তাই তরমুজ চাষের ক্ষেত্রেও আধুনিক পলি মালচিং পদ্ধতিকেই বেছে নিয়েছেন তিনি। কুমারগ্রামের কৃষি আধিকারিক রাজিব পোদ্দার জানান, উচু জমিতে সাধারণত তরমুজ চাষ করা হয়। জল পেলে তরমুজ নষ্ট হয়ে যায়,বালি মাটিতে জল ধরে রাখার ক্ষমতা কম , তাই বেলে মাটি অথবা বেলে দোঁয়াশ মাটিতে হয় এই চাষ। তরমুজের গুণগতমান ঠিক থাকলে এই পদ্ধতিতে তরমুজ চাষে উদ্যোগী হবেন অনান্যরাও এবং তরমুজ চাষে এই বৈচিত্র্য কৃষকদের ক্ষেত্রে লাভজনক হবে বলে তিনি আশাবাদী।

    দীপেন্দ্র লাহিড়ী

    Published by:Rachana Majumder
    First published:

    Tags: Alipurduar, Watermelon

    পরবর্তী খবর