করোনা নিয়ম মেনেই শিলিগুড়িতে কালী পুজোর আয়োজন

করোনা নিয়ম মেনেই শিলিগুড়িতে কালী পুজোর আয়োজন
কোভিড বিধি মেনেই শিলিগুড়িতে কালী পুজা করা হবে। কাল থেকেই শুরু হচ্ছে যাবতীয় অনুমতির পর্ব। এবারে পুলিশ কমিশনারেট এলাকায় ছোট বড় মিলিয়ে ৪১৭টি পুজার অনুমতি দেওয়া হবে।

কোভিড বিধি মেনেই শিলিগুড়িতে কালী পুজা করা হবে। কাল থেকেই শুরু হচ্ছে যাবতীয় অনুমতির পর্ব। এবারে পুলিশ কমিশনারেট এলাকায় ছোট বড় মিলিয়ে ৪১৭টি পুজার অনুমতি দেওয়া হবে।

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: কোভিড বিধি মেনেই শিলিগুড়িতে কালী পুজা করা হবে। কাল থেকেই শুরু হচ্ছে যাবতীয় অনুমতির পর্ব। এবারে পুলিশ কমিশনারেট এলাকায় ছোট বড় মিলিয়ে ৪১৭টি পুজার অনুমতি দেওয়া হবে। আজ পুজা উদ্যোক্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে এই বার্তাই দেন শিলিগুড়ির পুলিশ কমিশনার ত্রিপুরারী অর্থব এবং মহকুমা শাসক সুমন্ত সহায়। হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে পুজা মণ্ডপে থাকবে "নো এন্ট্রি" লেখা বোর্ড। মণ্ডপ তৈরিও হবে খোলামেলা। যাতে বাইরে থেকেই প্রতিমা দর্শন করা যায়। কোনোভাবেই ভিড় করা যাবে না মণ্ডপে।

দুর্গা পুজোয় অষ্টমী এবং নবমীতে হাইকোর্টের নির্দেশ উড়িয়ে ভিড় লক্ষ্য করা গিয়েছিল শিলিগুড়ির বিভিন্ন মণ্ডপে। সেখান থেকে শিক্ষা নিয়েই কালী পুজায় আরও কড়াকড়ি করবে পুলিশ। কেননা আক্রান্তের গ্রাফে উত্তরবঙ্গে শীর্ষে শিলিগুড়ি। বাজি বা পটকা পোড়ানো যাবে না। কেননা এতে কোভিড আক্রান্তদের ক্ষেত্রে সমস্যা বাড়বে। রাজ্য সরকার বাজি বন্ধের আর্জি জানিয়েছিল। তারপর হাইকোর্ট রায় দেওয়ায় চাপ বাড়ল পুলিশের। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বিভিন্ন পাড়ায়, মণ্ডপে সাদা পোশাকের পুলিশ মোতায়েন করা হবে। কেউ বাজি পোড়ালে আইন অনুযায়ী তার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে পুলিশ জানিয়েছে। নিরঞ্জন ঘাটেও কড়া নজর থাকবে। দুর্গা পুজোর বিসর্জনের দিনে মহানন্দা ঘাটে তিল ধারনের জায়গা ছিল না। থিক থিক ভিড় লক্ষ্য করা গিয়েছিল। কালী পুজায় ভিড় এড়াতে ঘাটে ১৪৪ ধারা জারি করা হতে পারে। এখনও বিষয়টি আলোচনা স্তরে রয়েছে। প্রতিটি পুজা কমিটিকেই করোনা মোকাবিলায় স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে হবে। মাস্ক মাস্ট, তেমনি দূরত্ব বিধির  উল্লেখ থাকছে। কালী পুজার আগে বেআইনিভাবে বাজি মজুতের বিরুদ্ধে পুলিশের নাকা তল্লাশি শুরু হয়েছে। প্রতিটি থানাকেই এই বিষয়ে সতর্ক থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। শারোদৎসবের মতো কালী পুজা, ছট পুজাও নির্বিঘ্নে সম্পন্ন করার আর্জি জানিয়েছেন পুলিশ কমিশনার।


PARTHA PRATIM SARKAR

Published by:Piya Banerjee
First published:

লেটেস্ট খবর