ছোবল দিয়েছে যে সাপ, তা ধরে নিয়ে হাসপাতালে হাজির আক্রান্ত ব্যাক্তি, দেখুন

ছোবল দিয়েছে যে সাপ, তা ধরে নিয়ে হাসপাতালে হাজির আক্রান্ত ব্যাক্তি, দেখুন

সোমবার দুপুরবেলার বাড়ির পাশে বিষধর এক কোবরা দেখতে পান গ্রামবাসীরা।

সোমবার দুপুরবেলার বাড়ির পাশে বিষধর এক কোবরা দেখতে পান গ্রামবাসীরা।

  • Share this:

#ইসলামপুর: সাপের কামড় খাওয়ায় সাপ নিয়ে হাসপাতালে হাজির  পশুপ্রেমী রাম ভরস দাস নামে এক ব্যাক্তি। সাপটিকে বনদফতরের হাতে তুলে দিয়েছেন তিনি। আক্রান্ত ব্যাক্তি ইসলামপুর হাসপাতালে  চিকিৎসাধীন। জানা গেছে, ইসলামপুর থানার ওলিগঞ্জের বাসিন্দা রাম ভরস দাস সাপ ধরতে পটু। গ্রাম গঞ্জে সাপ বের হলেই তাঁর ডাক পড়ে সাপ ধরতে। দক্ষতার সঙ্গে বিভিন্ন ধরণের সাপ ধরেন তিনি। ছেদ পড়ল আজ, সোমবার৷

সোমবার দুপুরবেলার বাড়ির পাশে বিষধর এক কোবরা দেখতে পান গ্রামবাসীরা। সেই বিষধর সাপ ধরতে ডাক পান রামবাবু। তিনি গিয়ে গর্ত থেকে সাপটি বের করলেও শেষ রক্ষা করতে পারেননি। সাপটি গর্ত থেকে বের হয়ে গেলেও জোরে ছোবল মারে তার আঙ্গুলে। তবে সাপ ধরতে পটু যিনি, সেই রামবাবু ছোবল খেয়েও ঘাবড়ে যাননি। ছোবল খেয়েও তিনি সঙ্গে সঙ্গে সাপটিকে একটি নেটের ঝোলায় বন্দি করেন। বন্দি করে সাপটিকে নিয়ে ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে হাজির হন। সাপটিকে বনদফতরের হাতে তুলে দিতে খবর দেওয়া চোপড়া বনকর্মীদের। এলাকার মানুষ সাপটিকে বনদফতরের হাতে তুলে দেন।

জখম রামবাবু হাসপাতালের বিছানায় বসে জানান, অসর্তকতার জন্যই বিষধর সাপ কোবরা তাঁকে ছোবল মারার সুযোগ পেয়ে যায়। ডাক্তারবাবুদের চিকিৎসার সুযোগ করে দেবার জন্যই তিনি সাপটিকে হাসপাতালে নিয়ে এসেছিলেন। চিকিৎসকরা তার চিকিৎসা শুরু করেছেন।

Published by:Pooja Basu
First published: