উত্তরবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

আনলক আবহে এ বার খুলছে সিকিম পর্যটন

আনলক আবহে এ বার খুলছে সিকিম পর্যটন

সিকিমের পর্যটন খুলে যাওয়ায় শুধুমাত্র যে পর্যটকেরা উপকৃত হবেন, তাই নয়, এতে উপকৃত হবে পর্যটন শিল্পও।

  • Share this:

#কলকাতা: গত কাল, শুক্রবারই রাজ্যের সমস্ত চিড়িয়াখানা এবং অভয়ারণ্য পর্যটকদের জন্য খুলে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। এর পরে পরেই পর্যটকদের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা এবং আন্তঃরাজ্য চলাফেরার ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে চলেছে সিকিম সরকার। অতএব, দুর্গাপুজোর মরশুমে সিকিম বেড়াতে যাওয়ার ক্ষেত্রে কার্যত আর কোনও বাধা রইল না ভ্রমণ পিপাসু বাঙালির।

তবে বেড়াতে যেতে পারলেও আগের মতো ভ্রমণের অভিজ্ঞতা খোলামেলা হবে না। ভ্রমণে অনুমতি দিলেও পর্যটকদের জন্য সিকিম সরকার জারি করছে বহু নির্দেশিকা। কোভিড সংক্রমণ ঠেকাতে হোটেলগুলিকেও নির্দেশিকা পাঠাচ্ছে সিকিম সরকার। তবে একই সঙ্গে তাদের তরফে জানানো হয়েছে, ১০ অক্টোবর থেকে পর্যটন খুলে যাবে সিকিমের। খুলবে এমনকী হেলিকপ্টার পরিষেবাও। আর এ সবের বুকিং শুরু হবে ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে। বর্তমানে ট্যাক্সি এবং অন্যান্য ভাড়া করা গাড়ি চলাচলের ওপরে যে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে, তা-ও উঠে যাচ্ছে। খুলছে সব হোটেল এবং হোম স্টে-ও। এমনকী, বিদেশিদেরও ভ্রমণের অনুমতি দেওয়া হবে ১ অক্টোবর থেকে।

সিকিমের পর্যটন খুলে যাওয়ায় শুধুমাত্র যে পর্যটকেরা উপকৃত হবেন, তাই নয়, এতে উপকৃত হবে পর্যটন শিল্পও। সাধারণত অক্টোবর থেকে ডিসেম্বর-জানুয়ারি পর্যন্ত সিকিমে ভিড় লেগে থাকে বাঙালি পর্যটকদের। কাজেই সিকিমের পর্যটন খুলে যাওয়ায় এবং একই সঙ্গে উত্তরবঙ্গের অভয়ারণ্যগুলি খুলে গেলে ফের পর্যটন শিল্পে রোজগার শুরু হবে বলে মনে করছে পর্যটন শিল্পমহল।

ইন্ডিয়ান অ্যাসোসিয়েশন অফ ট্যুর অপারেটর্স-এর প্রধান দেবজিৎ দত্ত বলেন, "এটা সত্যিই পর্যটন শিল্পের জন্য খুবই ভাল খবর। উত্তর-পূর্ব ভারতের এক অন্যতম প্রধান পর্যটন গন্তব্য হল সিকিম। সেটা খুললে শিল্পমহল উপকৃত হবে। তবে আপাতত সিকিম সরকারের নির্দেশিকা মেনেই এই কোভিড আবহে ভ্রমণ করতে হবে।"

শালিনী দত্ত

Published by: Siddhartha Sarkar
First published: September 19, 2020, 9:09 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर