পুজোর মুখে পাহাড় ও সমতলে ভয় ধরাচ্ছে করোনা! তিন দিনে আক্রান্ত ৪১৩ জন

পুজোর মুখে পাহাড় ও সমতলে ভয় ধরাচ্ছে করোনা! তিন দিনে আক্রান্ত ৪১৩ জন
শিলিগুড়ি পুরসভার ৪৭টি ওয়ার্ড এবং দার্জিলিংয়ের পাহাড় ও সমতলের গ্রামাঞ্চল মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৪১৩ জন

শিলিগুড়ি পুরসভার ৪৭টি ওয়ার্ড এবং দার্জিলিংয়ের পাহাড় ও সমতলের গ্রামাঞ্চল মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৪১৩ জন

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: পুজো আসছে। বাজারে বাড়ছে ভিড়। রাস্তাঘাটেও সেই থিক থিক কালো মাথা। ভিড় সর্বত্রই। আর সেই সুযোগেই একেবারে থাবা বসিয়েছে মারণ করোণা ভাইরাস। পুরসভা থেকে গ্রামাঞ্চল, পাহাড় থেকে সমতল - সর্বত্রই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমণ। এই মূহূর্তে রীতিমতো ভয় ধরাচ্ছে করোনা। কিন্তু তাতে কি বা এসে যায়। ন্যূনতম স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার কথা মুখে মুখে বলা হচ্ছে। বিভিন্ন বাজার, মার্কেটে মাইকিং হচ্ছে। ওই সার! সোশ্যাল ডিস্টেনশিং উধাও! রীতিমতো একজনের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছে অন্যজন। একই ছবি শহরজুড়ে।

পাহাড় থেকে গ্রামাঞ্চল সেখানেও ছবির হেরফের নেই। মাস্কও সরে গিয়েছে মুখ ও নাক থেকে। সামনেই পুজো আসছে যে। সেজেগুজে মার্কেটিংয়ে বেড়িয়ে পড়া। তাই মাস্কও উধাও। অথচ বার বার স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার কথা বলা হচ্ছে। কিসে আর কি এসে যায়! পাড়ায় পাড়ায় চলছে জমিয়ে আড্ডা! আর রাজনৈতিক কর্মসূচীগুলিতেও থিক থিক ভিড়। কোনোরকম স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার বালাই নেই। সচেতনতার কথা ঘোষণার মধ্যেই সীমাবদ্ধ। বাস্তবে উলটো ছবি। বাস, টোটো, সিটি অটোয় ভিড় আর ভিড়। ভিড় এড়িয়ে চলার পরামর্শ দিলেও মানা হচ্ছে না। অথচ চিকিৎসকদের পরামর্শ, মাস্ক মাস্ট। সঙ্গে পারস্পরিক দূরত্ব মেনে চলতে হবে। বাস্তবে কি মানা হচ্ছে? হচ্ছে না বলেই বাড়ছে গ্রাফ!

গত তিন দিনে শিলিগুড়ি পুরসভার ৪৭টি ওয়ার্ড এবং দার্জিলিংয়ের পাহাড় ও সমতলের গ্রামাঞ্চল মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৪১৩ জন! হু হু করে বাড়ছে। যার মধ্যে পুর এলাকাতেই আক্রান্ত হয়েছেন ১৭৫ জন। যা ভাবাচ্ছে স্বাস্থ্য কর্তাদের। কেননা উর্ধমুখী গ্রাফ হওয়ায় এরপর বেড পাওয়া মুশকিল হবে শহরে। পুজো যত এগোবে, গ্রাফ ততই বাড়বে। কেননা ভিড় যে বাড়ছে বাজারে। অন্যদিকে চিকিৎসায় মিলছে সাড়াও। গত ৩ দিনে কোভিড জয় করেছেন ২০৩ জন। দিনের শেষে এই তথ্যটা যথেষ্ট ইতিবাচক।


Partha Pratim Sarkar

Published by:Ananya Chakraborty
First published:

লেটেস্ট খবর