মালদহে আক্রান্ত পুলিশ, ইঁট-বৃষ্টি, গাড়ি ভাঙচুর, জখম ৪ পুলিশকর্মী

পুলিশ অভিযুক্তদের বাড়ি ঘিরতেই পুলিশকে লক্ষ্য করে ইঁট-পাথর ছোঁড়া শুরু হয়। হামলা হয় পুলিশের গাড়িতেও।

পুলিশ অভিযুক্তদের বাড়ি ঘিরতেই পুলিশকে লক্ষ্য করে ইঁট-পাথর ছোঁড়া শুরু হয়। হামলা হয় পুলিশের গাড়িতেও।

  • Share this:

#মালদহ: অভিযুক্ত ধরতে গিয়ে মালদহে আক্রান্ত পুলিশ। টিকিয়াপাড়ার ঘটনার পর চাঁচল-এর অলিওন্ডা পঞ্চায়েতের কনুয়া গ্রামে পুলিশের উপর হামলা। মঙ্গলবার রাত দেড়টা নাগাদ হামলার ঘটনা হয়। ইঁটের আঘাতে জখম চার পুলিশকর্মী।পুলিশের দুইটি গাড়ি  ভাঙচুর করা হয় বলে অভিযোগ। জখম পুলিশ কর্মীদের ভর্তি করা হয়েছে চাঁচল সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে। বুধবার বিকেলে পাল্টা অভিযান চালায় পুলিশ।

হামলার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে, অলিঅণ্ডা পঞ্চায়েতের তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানের স্বামী আনসার আলি সহ চারজনকে। এলাকায় তল্লাশীর সময় একটি এয়ারগান উদ্ধার করেছে পুলিশ। জানা গিয়েছে, ওই এলাকায় একটি রাস্তা তৈরি করা নিয়ে পঞ্চায়েত প্রধানের ভাসুর এহসান আলির সঙ্গে স্থানীয়দের একাংশের বিরোধ বাঁধে। ওই ঘটনায় চাঁচল থানায় অভিযোগ দায়ের হয়। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ বেশি রাতে গ্রামে গেলে হামলার মুখে পড়ে। পুলিশ অভিযুক্তদের বাড়ি ঘিরতেই পুলিশকে লক্ষ্য করে ইঁট-পাথর ছোঁড়া শুরু হয়। হামলা হয় পুলিশের গাড়িতেও।

এমনকী বোমা ছোড়া হয় বলেও অভিযোগ। পাল্টা পুলিশ লাঠিচার্জ করে। কাঁদানে গ্যাসের শেল ফাটানো হয়। আজ বিকেল থেকে এলাকায় মালদহের অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের নেতৃত্বে ব্যাপক ধরপাকড় অভিযান শুরু করে পুলিশ। একাধিক বাড়িতে জোর করে ঢুকে চলে তল্লাশী। উত্তেজনা থাকায় এলাকায় পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছে।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published: