• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • পাঁচটি চোরাই মোটরবাইক সহ পাঁচ দুষ্কৃতী গ্রেফতার

পাঁচটি চোরাই মোটরবাইক সহ পাঁচ দুষ্কৃতী গ্রেফতার

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার জীবন মোড় ব্রীজের কাছে ইসলামপুর থানার চাঁদমনি গ্রামের বাসিন্দা  জাফর আলি এবং মুশারফ  নামে দুইজনকে গ্রেফতার করে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার জীবন মোড় ব্রীজের কাছে ইসলামপুর থানার চাঁদমনি গ্রামের বাসিন্দা জাফর আলি এবং মুশারফ নামে দুইজনকে গ্রেফতার করে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার জীবন মোড় ব্রীজের কাছে ইসলামপুর থানার চাঁদমনি গ্রামের বাসিন্দা জাফর আলি এবং মুশারফ নামে দুইজনকে গ্রেফতার করে।

  • Share this:

#ইসলামপুর: পাঁচটি চোরাই মোটরবাইক সহ পাঁচ দুষ্কৃতীকে গ্রেফতার করল ইসলামপুর থানার পুলিশ। ঘটনাটি ইসলামপুর থানার বিল্লাপাড়া গ্রামে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার জীবন মোড় ব্রীজের কাছে ইসলামপুর থানার চাঁদমনি গ্রামের বাসিন্দা  জাফর আলি এবং মুশারফ  নামে দুইজনকে গ্রেফতার করে।  তার কাছ থেকে একটি নম্বর প্লেট বিহীন চোরাই মোটরবাইক উদ্ধার হয়। পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশী হেফাজতে নেয় ইসলামপুর পুলিশ। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে গত ৪ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার তিনপুল এলাকা থেকে সাইন আক্তার নামে এক ব্যাক্তিকে গ্রেফতার করে ইসলামপুর থানার পুলিশ।সাইনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে তিনপুল এলাকা থেকে একটি ভাংরি দোকান মালিক আব্দুল তারাক নামে এক ব্যাক্তিকে গ্রেফতার করে। সেখান থেকে একটি চোরাই মোটরবাইক উদ্ধার হয়। গত ৬ জানুয়ারি ইসলামপুর থানার বলঞ্চা গ্রামে জাফর আলির এক আত্মীয়ের বাড়ি থেকে আরও একটি চোরাই মোটরবাইক উদ্ধার হয়। ইসলামপুর থানার পুলিশ জানিয়েছেন, মোটরবাইক চোরাই চক্রে মোট পাঁচটি মোটরবাইক উদ্ধার হয়েছে। গ্রেফতার করা হয়েছে পাঁচ দুষ্কৃতী। পুলিশ নিদৃষ্ট ধারায় মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরু  করেছে। উত্তর দিনাজপুর জেলার ইসলামপুর পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার শচীন মক্কার জানিয়েছেন, ইসলামপুর বেশ কয়েকটি মোটরবাইক চুরি ঘটনায় তদন্ত শুরু করা হয়। তদন্ত নেমেই পুলিশ জাফর এবং মুশারফ নামে দুইজনকে  গ্রেফতার করা হয়।তাদের কাছ থেকে একটি নম্বরবিহীন চোরাই মোটরবাইক উদ্ধার হয়। তাকে পুলিশী হেফাজতে নেবার পরই বেশ কিছু তথ্য পুলিশের  হাতে আসে। জাফর এবং মুশারফের দেওয়া তথ্যকে কাজে লাগিয়ে পুলিশ একাধিক চোরাই মোটরবাইক উদ্ধার হয়। পুলিশ সুপার আরও জানান, ধৃতরা প্রত্যেকেই পুলিশি হেফাজতে রয়েছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তিনি আশা করছেন, মোটরবাইক চোরাই চক্রে বড়সড় চক্রের হদিশ মিলবে। ইসলামপুরে পুলিশের ভূমিকায় খুশি। সম্প্রতি ইসলামপুরে নম্বর বিহীন মোটরবাইক নিয়ে এসে ব্যাবসায়ীর কাছ থেকে টাকা ছিনতাই করে পালিয়ে গিয়েছিল। পুলিশ নম্বর বিহীন মোটরবাইক গুলি উদ্ধার করতে সমর্থ হলে ইসলামপুরে সমাজবিরোধী দৈরত্ব্য অনেক কমবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন।

Published by:Pooja Basu
First published: