• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • তিস্তায় কমছে বোরোলি মাছের ভাণ্ডার

তিস্তায় কমছে বোরোলি মাছের ভাণ্ডার

রুপোলি শস্য। কিন্তু ইলিশ নয়। ডুয়ার্সের জঙ্গল আর উত্তরবঙ্গের সঙ্গে জুড়ে গেছে আর এক ট্রেডমার্ক তিস্তার বোরোলি।

রুপোলি শস্য। কিন্তু ইলিশ নয়। ডুয়ার্সের জঙ্গল আর উত্তরবঙ্গের সঙ্গে জুড়ে গেছে আর এক ট্রেডমার্ক তিস্তার বোরোলি।

রুপোলি শস্য। কিন্তু ইলিশ নয়। ডুয়ার্সের জঙ্গল আর উত্তরবঙ্গের সঙ্গে জুড়ে গেছে আর এক ট্রেডমার্ক তিস্তার বোরোলি।

  • Share this:

    #ডুয়ার্স: রুপোলি শস্য। কিন্তু ইলিশ নয়। ডুয়ার্সের জঙ্গল আর উত্তরবঙ্গের সঙ্গে জুড়ে গেছে আর এক ট্রেডমার্ক তিস্তার বোরোলি। পারশের মতো দেখতে এক ধরণের ছোট মাছ। এই মাছের স্বাদে মজেছেন ভ্রমণপ্রিয় বাঙালি। চাহিদা অনেক আর যোগান কম। তাই অসময়ের মাছ শিকারে বোরোলির বংশ ধ্বংসের মুখে।

    মাছেদের অলিখিত রাজা। অন্তত উত্তরবঙ্গে। গালভরা নাম বারিলিয়াস বারিলা। তবে মানুষ চেনে বোরোলি নামে। চকচকে চেহারা। রসনায় অপূর্ব, তুলনাহীন। শুধু উত্তরবঙ্গ নয় বাংলাদেশের মানুষও একডাকে চেনেন বহমান তিস্তার এই ফসলকে। পদ্মা আর ইলিশ যেমন সমার্থক। তেমনই তিস্তার বোরোলি। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু, রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় যখনই উত্তরবঙ্গে গিয়েছেন বোরোলির স্বাদে তৃপ্ত হয়েছেন।

    - তিস্তায় পাওয়া যায় বোরোলি - জলপাইগুড়ির গজলডোবা ব্যারাজ থেকে কোচবিহারের মেখলিগঞ্জ পর্যন্ত তিস্তায় বোরোলি পাওয়া যায় - তিস্তা ছাড়াও তোর্সা, করলা, রায়ডাক, বালাসন, কালজানিতেও বোরোলি পাওয়া যায় - লম্বায় ৩ থেকে ৪ ইঞ্চি, চকচকে শরীর - এপ্রিল-মে অথবা অক্টোবর নভেম্বরে নদীতে বোরোলি মেলে - ফেব্রুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত ডিম পাড়ে বোরোলি

    এখন এপ্রিল। অথছ বাজারে বোরোলির দেখা নেই। একেই নদীতে দূষণ বেড়ে যাওয়ায় বোরোলির সংখ্যা কমেছে। তার উপর জোগান মেটাতে চারাপোনায় হাত দিচ্ছেন মাছ শিকারিরা। ডিম পাড়ার সময়েও জাল ফেলে বোরোলি শিকার চলায় বংশবৃদ্ধি হচ্ছে না। ডুয়ার্সে বেড়াতে গিয়ে বোরোলির নানান পদ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন পর্যটকরা।

    বোরোলির সংসার বাড়াতে নানারকম উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কখনও মাছের নানান মেনু নিয়ে উৎসব। কখনও আবার সচেতনতা শিবির। হাল কি ফিরেছে?

    ভাতে-মাছে বোরোলি কি মিলবে ভবিষ্যতে? চিন্তায় মৎস্য বিশেষজ্ঞরা। জলদূষণ না কমলে, কীটনাশকের যথেচ্ছ ব্যবহার না কমালে, জয়া, কক্সা, পিয়ালির মতো একদিন হারিয়ে যাবে বোরোলিও।

    First published: