মোর্চা-তৃণমূল সংঘাতে উত্তপ্ত পাহাড়, হাঁটতে বেরিয়ে পাহাড়ের বাসিন্দাদের সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর জনসংযোগ

মোর্চা-তৃণমূলের সংঘাত ঘিরে ফের উত্তপ্ত পাহাড়। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা সত্ত্বেও ভাষা নির্দেশিকা নিয়ে আন্দোলনের জিগির ধরে রাখতে মরিয়া মোর্চা।

মোর্চা-তৃণমূলের সংঘাত ঘিরে ফের উত্তপ্ত পাহাড়। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা সত্ত্বেও ভাষা নির্দেশিকা নিয়ে আন্দোলনের জিগির ধরে রাখতে মরিয়া মোর্চা।

  • Share this:

    #দার্জিলিং: মোর্চা-তৃণমূলের সংঘাত ঘিরে ফের উত্তপ্ত পাহাড়। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা সত্ত্বেও ভাষা নির্দেশিকা নিয়ে আন্দোলনের জিগির ধরে রাখতে মরিয়া মোর্চা। আজ, দার্জিলিঙে মিছিল করেন খোদ মোর্চাপ্রধান বিমল গুরুংও। প্রায় একই সময়ে দার্জিলিঙের রাস্তায় হেঁটে সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলেন মুখ্যমন্ত্রী। পাহাড়ের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে ব্যবসায়ী ও পর্যটকদের আশ্বাস দেন তিনি।

    মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকারের নির্দেশিকাতেই ত্রিভাষা সূত্রের কথা ছিল। এরপরেও পাহাড়ে বাংলা ভাষার বিরোধিতায় আটকে আছে মোর্চা। সামনেই জিটিএ নি‍র্বাচন। পায়ের তলার মাটি ধরে রাখতে পথে নেমেছেন মোর্চাপ্রধান। মঙ্গলবার, দার্জিলিঙে ভানু ভবন থেকে শুরু করে কাকঝোরা হয়ে চকবাজার পর্যন্ত মিছিল করেন তিনি। একইসময়ে রাস্তায় নেমে পাহাড়ে জনসংযোগ চালান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

    দার্জিলিঙে মোর্চার কেন্দ্রীয় কার্যালয় সিংমারি এলাকায়। মোর্চা পার্টি অফিসে লাগোয়া লেবং রোড ধরে প্রায় সাত কিলোমিটার রাস্তা হাঁটেন মুখ্যমন্ত্রী। রিচমন্ড হিলের কাছে তাঁর সঙ্গে মুখোমুখি দেখা হয়ে যায় বিমল গুরুংয়ের। উলটোদিক থেকে তখন গাড়ি চড়ে আসছিলেন মোর্চাপ্রধান ৷

    মোর্চার আন্দোলনের জেরে পাহাড়ে ফের অশান্তির মেঘ ঘনাচ্ছে। এমন পরিস্থিতিতে পাহাড়ে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার আশ্বাস দেন মুখ্যমন্ত্রী। মোর্চার আন্দোলন নিয়ে ক্ষোভ চেপে রাখেননি মুখ্যমন্ত্রী। বলেন,‘র‍্যালি করছে? খেয়েদেয়ে আর কাজ নেই! দার্জিলিংটাকে বারোটা বাজিয়ে দিয়েছে।’

    মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণা সত্ত্বেও কেন আন্দোলনের আগুন জ্বালিয়ে রাখতে চাইছে মোর্চা? পাহাড়ে পুরসভা নির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেসের কাছে খানিকটা হলেও কোণঠাসা মোর্চা। তৃণমূল কংগ্রেসের মিরিক জয়ের পর পর জমি হারানোর শঙ্কা গ্রাস করেছে বিমল গুরুংদের। তাই সম্ভবত অস্তিত্ব ধরে রাখতেই শক্তি প্রদর্শনের রাস্তা বেছে নিয়েছে মোর্চা।

    মোর্চার ঘরে ঢুকে কড়া টক্কর দিচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেসও। জিটিএতে আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ তুলে, মদন তামাংয়ের হত্যাকারীদের শাস্তির দাবি জানিয়ে জোরদার প্রচারে নামছে জোড়াফুল শিবির।

    First published: