• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • NEW POLITICS IN DARJEELING LEADER ANIT THAPA MAY BUILD NEW PARTY AGAINST BIMAL GURUNG SB

Anit Thapa: সেপ্টেম্বরেই পাহাড়ে জন্ম নিচ্ছে অনীতের নতুন পার্টি? দার্জিলিংয়ে নতুন সমীকরণ!

অনীতের নতুন চাল

Anit Thapa: সেপ্টেম্বরেই পাহাড়ে জন্ম নিচ্ছে অনীতের নতুন পার্টি? কালিম্পংয়ের কর্মীসভায় তেমনই ইঙ্গিত দিলেন অনীত থাপা।

  • Share this:

#দার্জিলিং: সেপ্টেম্বরেই পাহাড়ে অনীত থাপার নতুন পার্টির আবির্ভাব? নয়া ঝাণ্ডা, নয়া দল নিয়ে আসছেন অনীত? আলোচনা চলছিল। কানাঘুঁষোতেও শোনা যাচ্ছিল। আজ কালিম্পংয়ে দলীয় কর্মীসভায় অনুগামীদের কাছে এমনই ঘোষণা করেছেন অনীত, দলীয় সূত্রে জানা গিয়েছে। এর আগে দলের আর এক শীর্ষ নেতাও জানিয়েছিলেন, সমর্থকেরাই চাইছে নতুন রাজনৈতিক দল। তা নিয়ে আলোচনা চলছে। যদিও অনীত এদিন তা স্বীকার করেননি।

তিনি জানান, "এ নিয়ে তাঁর একার কোন সিদ্ধান্ত নয়। কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্যদের মতামত বড় বিষয়। সময়ই বলবে আগামীদিনে কী হবে। আমার লক্ষ্য পাহাড় গড়া।" শ্রাবণ মাসে পাহাড়ে শুভ কাজে হাত দেওয়া হয় না। কারণ বর্ষা আর ধসের মাস। তাই সেপ্টেম্বরের প্রথম সপ্তাহকেই বেছে নিয়েছেন অনীত, দলীয় সূত্রের খবর এমনই। সেইমতো নিজের শক্তি বৃদ্ধি করার লক্ষ্যে ছুটছেন পাহাড়ের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে।

অন্যদিকে বিনয় তামাংয়ের সঙ্গে বৈঠক প্রসঙ্গে এদিন বিমল গুরুঙ্গ বলেন, 'গতকাল সৌহার্দ্য পরিবেশে বৈঠক হয়েছে বিমল গুরুঙ্গ ও বিনয় তামাংয়ের। টানা চার বছর দেখা হয়নি। তবে রাজনীতি নিয়ে একটি শব্দও খরচ হয়নি। একসঙ্গেই ২০০৭ সালে জনমুক্তি মোর্চার জন্ম হয়েছিল। মাঝে কিছু ভুল বোঝাবুঝির জন্যে দূরত্ব বেড়েছিল। ও এসেছিল কিছু ব্যক্তিগত কথা জানাতে। একজন অভিভাবক হিসেবে আমি চাই সকলকে নিয়ে একযোগে চলতে। ফের বিজেপিকে একহাত নিয়ে বলেন ত্রিপাক্ষিক বৈঠকে আমরা যাচ্ছি না। ওরা ধোঁকা দিয়ে এসছে পাহাড়কে। এবারের বৈঠকেও পাহাড় কিছুই পাবে না। স্রেফ ভোট রাজনীতি করছে। পাহাড়ে বিজেপির বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমে আন্দোলন হবে।'

এদিকে বিমল-বিনয় বৈঠক নিয়ে আজ মৌনতা ভাঙলেন অনীত থাপা! তিনি বলেন, "দুই নেতার বৈঠকের ফলে আমার রাজনীতিতে কোন প্রভাব ফেলবে না। কেন বৈঠক, ওরাই এর ভালো উত্তর দিতে পারবে। বিধানসভা ভোটে আমাদের রাজনৈতিক স্লোগান পাহাড়ে ভালো সমর্থন পেয়েছি। তাদেরকে ধোঁকা দিতে পারবো না। আমি নতুন করে পাহাড় বানাতে এসছি। তবে আমি গুরুংয়ের দলে ফিরছি না। এটা ১০০ শতাংশ নিশ্চিত।"

বিমল-বিনয় বৈঠক নিয়ে কোনো মন্তব্য নয় তৃণমূলের। ওরা আলাদাভাবে রাজনীতি করছে পাহাড়ে। তৃণমূল আলাদাভাবে করছে। তবে পাহাড় রাজ্যেরই অঙ্গ। কোনোভাবে দ্বিখণ্ডিত করতে দেবেন না মুখ্যমন্ত্রী। শিলিগুড়িতে বলেন তৃণমূল নেতা গৌতম দেব। সেইসঙ্গে ত্রিপাক্ষিক বৈঠক নিয়ে কেন্দ্রকে তোপ। বৈঠকের উদ্দেশ্য, অভিসন্ধি নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। বিজেপি স্রেফ পাহাড় নিয়ে রাজনীতি করছে। বহিরাগতদের প্রার্থী করছে। পাহাড়ের জন্যে কিছুই করেনি বিজেপি।

Published by:Suman Biswas
First published: