করোনা সতর্কতাঃ রাস্তাতেই বার বার হাত ধুয়ে নিন, শহরের রাস্তায় নামান হল ওয়াটার ট্যাঙ্ক

শহরের জনবহুল মোড়, রাস্তা জল দিয়ে পরিস্কারের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ওয়াটার ট্যাঙ্কার নামানো হয়েছে রাস্তায়।

শহরের জনবহুল মোড়, রাস্তা জল দিয়ে পরিস্কারের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ওয়াটার ট্যাঙ্কার নামানো হয়েছে রাস্তায়।

  • Share this:

#শিলিগুড়িঃ দেশজুড়েই বাড়ছে করোনা। এই মূহূর্তে দ্বিতীয় ধাপে রয়েছে দেশ। করোনা মোকাবিলায় টানা ২১ দিন লক ডাউন চলছে গোটা দেশজুড়ে। কেন্দ্রীয় ও রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের তরফ থেকে যে নির্দেশিকা দিয়েছে, তা মেনে চলার পরামর্শ গোটা রাজ্যেই। এই যুদ্ধে জিততে হলে সরকারী নির্দেশ মানতে হবে।

Covid 19 মোকাবিলায় সদা সজাগ শিলিগুড়ি পুরসভাও। সতর্কতা হিসেবে একাধিক পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে গোটা শহরে। শহরের জনবহুল মোড়, রাস্তা জল দিয়ে পরিস্কারের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। ওয়াটার ট্যাঙ্কার নামানো হয়েছে রাস্তায়। মহাত্মা গান্ধী মোড় থেকে হাসমি চক, বিধান রোডে চলে সাফাইয়ের কাজ। প্রতিদিন সকালে রাস্তা পরিস্কার করার কাজ চলবে। সেই সঙ্গে অ্যাম্বুলেন্সগুলোতেও জীবাণুনাশক স্প্রে করা হয়। আনা হচ্ছে ৫০টি ফোম মেশিন। যা দিয়ে শহরজুড়ে জীবাণু মারা হবে। আসছে আরও স্প্রে মেশিন। সেসব চলে এলেই শুরু হবে বাড়ি বাড়ি, অলি গলিতেও স্প্রে করা হবে।

করোনা সতর্কতায় শুক্রবার ইণ্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের চিকিৎসকদের সঙ্গে বৈঠক করেন শিলিগুড়ির মেয়র অশোক ভট্টাচার্য। চিকিৎসা পরিষেবা যাতে কোনওভাবেই ব্যহত না হয় সে বিষয়ে আলোচনা হয়। মেয়র জানান, চিকিৎসকেরা প্রয়োজনে টেলিফোনেও রুগীদের পরামর্শ দেবেন। ইতিমধ্যেই হেল্পলাইন চালু করেছে শিলিগুড়ি পুরসভা। এবারে শহরকে জীবাণুমুক্ত করতে বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। প্রতিদিন কয়েক টন ময়লা, আবর্জনা সাফাই করা হচ্ছে। এজন্য সাফাই কর্মীরা বিশেষ পোশাকও পড়ছে। করোনা মোকাবিলায় যেভাবে পুরসভার সাফাই কর্মীরা কাজ করছে, তাদের জন্যে মাথাপিছু প্রতিদিন ১০০ টাকা করে টিফিনের জন্যে বরাদ্দ করেছে পুরসভা। পাশাপাশি শহরের বিভিন্ন রাস্তায় জলের ট্যাঙ্ক রাখছে পুরসভা, যে জলে সাধারন মানুষ ঘন ঘন হাত ধুতে পারেন। জলের ট্যাঙ্কারগুলোও ধারাবাহিকভাবে থাকবে। মেয়র জানান, জরুরীকালীন যা যা ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ সরকার দিচ্ছে সব ব্যবস্থাই করা হবে। করোনা নিয়ে সতির্ক এবং প্রস্তুত শিলিগুড়ি পুরসভা।

Partha Sarkar

Published by:Shubhagata Dey
First published: