Home /News /north-bengal /
Coochbehar Fire: কোচবিহারে বহুতলে আগুন, তালাবন্ধ ফ্ল্যাটে মৃত্যু মা-ছেলের! দুর্ঘটনা না অন্য রহস্য?

Coochbehar Fire: কোচবিহারে বহুতলে আগুন, তালাবন্ধ ফ্ল্যাটে মৃত্যু মা-ছেলের! দুর্ঘটনা না অন্য রহস্য?

কোচবিহার শহরের বহুতলের বাইরে স্থানীয়দের ভিড়৷ Photo-Prabir Kundu

কোচবিহার শহরের বহুতলের বাইরে স্থানীয়দের ভিড়৷ Photo-Prabir Kundu

কোচবিহার শহরের নিউ কদমতলা এলাকার ওই আবাসনের পাঁচ তলার ফ্ল্যাট থেকে এ দিন সকালে বিকট শব্দ শুনতে পান আবাসনের বাকি বাসিন্দারা (Coochbehar Fire)৷

  • Share this:

    #কোচবিহার: সাত সকালে কোচবিহারের বহুতলে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় চাঞ্চল্য৷ ঘরের ভিতর থেকে উদ্ধার হল মা এবং ছেলের দেহ৷ যদিও যে ফ্ল্যাটে এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে, সেটির দরজা বাইরে থেকে তালা দেওয়া ছিল (Coochbehar Fire)৷ ফলে নিছক দুর্ঘটনা নাকি এই অগ্নিকাণ্ডের পিছনে অন্য কোনও রহস্য রয়েছে, তা নিয়ে রহস্য দানা বাঁধছে৷

    জানা গিয়েছে, মৃতদের না সুপ্রিয়া সরকার (৫৭) এবং তাঁর ছেলে সুজয় সরকার (৩২)৷ মৃতরা অসমের বাসিন্দা হলেও ওই ফ্ল্যাটে থাকতেন বলে জানিয়েছেন আবাসনের অন্যান্য বাসিন্দারা৷

    আরও পড়ুন: খেলতে খেলতে ইঁটভাটার চৌবাচ্চায় ৫ ও ৭ বছরের দুই শিশু, মর্মান্তিক মৃত্যু

    স্থানীয় সূত্রে খবর, কোচবিহার শহরের নিউ কদমতলা এলাকার ওই আবাসনের পাঁচ তলার ফ্ল্যাট থেকে এ দিন সকালে বিকট শব্দ শুনতে পান আবাসনের বাকি বাসিন্দারা৷ ছুটে গিয়ে তাঁরা দেখেন, ফ্ল্যাটের ভিতর থেকে কালো ধোঁয়া বেরোচ্ছে৷ আগুন লেগেছে আন্দাজ করে আবাসনের বাসিন্দারাই দমকলে খবর দেন৷ ছুটে আসেন স্থানীয়রাও৷ বার বার ডাকাডাকি করলেও ভিতর থেকে কেউ সাড়া দেননি বলেই দাবি স্থানীয়দের৷

    আরও পড়ুন: মাকে প্রার্থী করল তৃণমূল, রাগে নির্দল হয়ে দাঁড়ালেন ছেলে! কোচবিহারে জোর লড়াই

    খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় দমকলের দু'টি ইঞ্জিন এবং পুলিশ৷ তারাই তালা ভেঙে ফ্ল্যাটের ভিতরে ঢোকে৷ এর পর ঘরের ভিতর থেকে দু'টি দেহ উদ্ধার হয়৷ আবাসনের বাকি বাসিন্দারাই দেহ দু'টি সুপ্রিয়াদেবী এবং তাঁর ছেলে সুজয়ের বলে শনাক্ত করেন৷

    তবে কী ভাবে আগুন লাগলো তা নিয়ে এখনই কিছু বলতে চাননি দমকলের আধিকারিকরা৷ তবে আবাসনের বাকি বাসিন্দারা বিকট শব্দ শোনায় গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণের সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে না৷ কিন্তু সু্প্রিয়াদেবী এবং তাঁর ছেলে ভিতরে থাকলেও ফ্ল্যাটের দরজা বাইরে থেকে কেন তালা বন্ধ অবস্থায় ছিল, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে৷ ফলে মা ছেলেকে হত্যার উদ্দেশ্যেই কেউ আগুন লাগিয়ে তালা বন্ধ করে চলে গিয়েছে কি না, সেই সম্ভাবনাও খতিয়ে দেখছে পুলিশ৷ মৃতদের পরিবারের বাকি সদস্যদের খোঁজ করে তাঁদের খবর দেওয়ার চেষ্টা চলছে৷

    Prabir Kundu

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published:

    Tags: Coochbehar, Fire

    পরবর্তী খবর