Home /News /north-bengal /
Malda: একদিকে যখন বাড়ছে করোনা সংক্রমণ, তখনই করোনা টিকা নিতে অনীহা মালদহে

Malda: একদিকে যখন বাড়ছে করোনা সংক্রমণ, তখনই করোনা টিকা নিতে অনীহা মালদহে

মালদহে করোনা ভ্যাকসিন নিতে অনীহা সাধারণ মানুষের

  • Share this:

    #মালদহ: মালদহে করোনা ভ্যাকসিন নিতে অনীহা সাধারণ মানুষের। এদিকে দেশে আবারও ঊর্ধ্বমুখী করোনার গ্রাফ। ধীরে ধীরে ফের বাড়ছে করোনার প্রকোপ। দেশের বেশ কিছু এলাকায় নতুন করে করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলছে। স্বাস্থ্য দফতর থেকে সচেতন থাকার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। মাঝে করোনা প্রকোপ কমে যাওয়ায় একশ্রেণীর মানুষের মধ্যে ভ্যাকসিন নিতে অনীহা দেখা দিয়েছে। গত কয়েক দিন ধরেই মালদহের ভ্যাকসিন কেন্দ্রগুলি ফাঁকা থাকছে। অধিকাংশ মানুষ প্রথম ডোজ নিয়েছেন। তবে দ্বিতীয় ডোজ ও বুস্টার ডোজ নিতে আগ্রহ প্রকাশ করছেন না বহু মানুষ। করোনা পরিস্থিতি অনেকটা স্বাভাবিক হয়েছে বলেই জন সাধারণের মধ্যে এমন অনীহা দেখা দিচ্ছে বলে মনে করছেন চিকিৎসকদের একাংশ।

    প্রথম থেকেই মালদহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে টিকাদান কেন্দ্রে তৈরি করা হয়েছে। এখানে শহর ও জেলার বিভিন্ন প্রান্তের মানুষ করোনা ভ্যাকসিন নিতে ভিড় করতেন। তবে বর্তমানে সেই ভিড় লক্ষ করা যাচ্ছে না। টিকাকেন্দ্রে কর্মীরা এসে বসে থাকছেন। এই রকম পরিস্থিতিতে কীভাবে টিকাকরণ কর্মসূচির উপর জোর দেওয়া যায়, সেই নিয়ে চিন্তিত জেলা স্বাস্থ্য দফতর।

    আরও পড়ুন: ফের ঘূর্ণিঝড় আছড়ে পড়তে পারে সুন্দরবনে! তড়িঘড়ি জরুরি বৈঠকে পুলিশ-প্রশাসন

    মালদহ জেলা স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, এখন পর্যন্ত জেলায় করোনা ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ নিয়েছেন ২৬ লক্ষ ৮৫,২৮৫ জন, যা শতকরা ৮০.৩ শতাংশ। দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন ১৮ লক্ষ ৪২,৩৯৩ জন, যা শতকরা ৬২.৪ শতাংশ। দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার সময় পেরিয়ে গেলেও অনেকেই ভ্যাকসিন নিচ্ছেন না। ১২ থেকে ১৪ বছর বয়সী ছেলে-মেয়েদের এখন পর্যন্ত ৮৮,৫০০ জনকে করোনার টিকা দেওয়া হয়েছে।

    আরও পড়ুন: গরমের ছুটির আগেই সোয়েটার পরে স্কুলে! এক রাতেই আবহাওয়ার ভোলবদল এই জেলায়

    আরও জানা গিয়েছে, গোটা জেলায় প্রায় অধিকাংশ মানুষকে প্রথম ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। তবে ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নিতে ৪৫ থেকে ৬০ বছর মানুষেরা আগ্রহ দেখাচ্ছে না। এদিকে দেশে আবারও করোনার ঢেউ আছড়ে পড়েছে। তাই ভ্যাকসিনের কর্মসূচির উপর জোর দিয়ে মানুষকে সচেতন করতে উদ্যোগী জেলা স্বাস্থ্য দফতর।

    Harasit Singha

    Published by:Rukmini Mazumder
    First published:

    Tags: Malda

    পরবর্তী খবর