Home /News /north-bengal /

Malda Airport: মুখ্যমন্ত্রী সক্রিয় হতেই মালদহের জন্য বড় খবর, বিমানবন্দর চালু এখন শুধুই সময়ের অপেক্ষা

Malda Airport: মুখ্যমন্ত্রী সক্রিয় হতেই মালদহের জন্য বড় খবর, বিমানবন্দর চালু এখন শুধুই সময়ের অপেক্ষা

কবে থেকে শুরু বিমান চলাচল?

কবে থেকে শুরু বিমান চলাচল?

Malda Airport: মালদহ বিমানবন্দরে এখনই চলতে পারে ১৯ আসনের ছোট বিমান, ইঙ্গিত এয়ারপোর্ট অথরিটির সমীক্ষক দলের।

  • Share this:

#মালদহ: মুখ্যমন্ত্রী সক্রিয় হতেই মালদহ বিমানবন্দরে নিয়মিত উড়ান চালুর তৎপরতা শুরু হল। সোমবার মালদহে এসে বিমানবন্দরে পরিকাঠামো খতিয়ে দেখলেন এয়ারপোর্ট অথরিটি অফ ইন্ডিয়ার বিশেষজ্ঞ দল। এখনই যা পরিকাঠামো রয়েছে তাতে মালদা বিমানবন্দর থেকে ১৯ আসনের নিয়মিত উড়ান চালানো সম্ভব, এমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে ৪২ বা ৯০ আসনের বিমান চালানোর জন্য মালদহ বিমানবন্দরে পরিকাঠামোগত কিছু উন্নতির প্রয়োজন রয়েছে। সেক্ষেত্রে রানওয়ের দৈর্ঘ্য আরও বৃদ্ধির প্রয়োজন।

এদিনের পরিদর্শনের সংক্রান্ত রিপোর্ট বিশেষজ্ঞ দল রাজ্য সরকার এবং এয়ারপোর্ট অথরিটির ওপর মহলে জানাবেন। এরপরেই পরিকাঠামোগত সমস্যাগুলি কিভাবে কাটানো সম্ভব এবং কত আসনের বিমান চালানো হবে সে বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হতে পারে। এছাড়া নিয়মিত উড়ান চালুর মালদা বিমানবন্দরে ডিজিসিএ লাইসেন্স পেতে হবে।

আরও পড়ুন: বাইরে থেকে দরজা বন্ধ করে আগুন, ভিতরে তখন স্বামী-স্ত্রী! হাড়হিম ঘটনা বাংলায়

উল্লেখ্য, গত ৮ ডিসেম্বর মালদহে প্রশাসনিক পর্যালোচনা বৈঠকে বিমানবন্দর চালুর বিষয়ে উদ্যোগ নেওয়ার কথা জানিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মালদা বিমানবন্দরে বেশকিছু ফাঁকা জমি রয়েছে ফলে রানওয়ে আরও বাড়ানো সম্ভব বলেও বৈঠকে জানান মুখ্যমন্ত্রী। এতে জেলার বিভিন্ন মহলে আগ্রহ তৈরি হয়। এদিন এয়ারপোর্ট অথরিটি অফ ইন্ডিয়ার ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (এয়ার ট্রাফিক ম্যানেজমেন্ট) ধনঞ্জয় তিওয়ারির নেতৃত্বে বিশেষজ্ঞ দল মালদা বিমানবন্দর ঘুরে দেখেন। সঙ্গে ছিলেন জেলা প্রশাসন এবং পূর্ত দপ্তরের আধিকারিকেরা। এই মুহূর্তে মালদা বিমানবন্দরে প্রায় ১১০০ মিটার তৈরি রানওয়ে রয়েছে। তবে রানওয়ের দুইপ্রান্তে ইলেকট্রিক টাওয়ার, বহুতল প্রভৃতির কারণে রানওয়ের সম্পূর্ণ অংশ নিয়মিত ব্যবহারের উপযুক্ত নয় বলে ধারণা বিশেষজ্ঞদের।

আরও পড়ুন: কলকাতায় পুর-সন্ত্রাসের অভিযোগ, আদালতে একযোগে BJP-CPIM! সব নজর ২৩-শে

এজন্যই বড় বিমান নামতে হলে রানওয়ে বাড়ানোর প্রয়োজন বলে জানিয়েছেন তাঁরা। এছাড়া পার্কিং, যাত্রী স্বাচ্ছন্দ্যের কিছু পরিকাঠামোগত উন্নতি প্রয়োজন। তবে সবটাই নির্ভর করবে কত আসনের বিমান চালু হবে সে সংক্রান্ত চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের ওপর। এদিন বিমানবন্দর পরিদর্শনের পর জেলা প্রশাসনের উচ্চপদস্থ কর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন এয়ারপোর্ট অথরিটি অফ ইন্ডিয়ার প্রতিনিধিরা। যদিও বিমান চালুর বিষয়ে ক্যামেরার সামনে কোনও মন্তব্য করতে চাননি এয়ারপোর্ট অথরিটি বা জেলা প্রশাসনের কর্তারা।

Published by:Suman Biswas
First published:

Tags: Malda, West Bengal news

পরবর্তী খবর