corona virus btn
corona virus btn
Loading

অসহায় বৃহন্নলাদের পাশে দাঁড়ালেন দার্জিলিং জেলা আইনি পরিষেবা ফোরামের সদস্যরা !

অসহায় বৃহন্নলাদের পাশে দাঁড়ালেন দার্জিলিং জেলা আইনি পরিষেবা ফোরামের সদস্যরা !

সঙ্কটে বৃহন্নলারাও। পাশে দাঁড়ালেন দার্জিলিং জেলা আইনি পরিষেবা ফোরামের সদস্যরা !

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: করোনার কোপ। রাজ্যেও বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও। স্বাভাবিকভাবেই রাজ্য জুড়েই বাড়ছে করোনা আতঙ্ক। আর এর মোকাবিলায় দেশজুড়ে চলছে লকডাউন। কার্যত স্তব্ধ দেশ। এক শ্রেণীর মানুষ এই লকডাউনকে তোয়াক্কা না করেই অবাধে ঘুরে বেড়াচ্ছে। আর লকডাউনের জেরে ঘোরতর সমস্যায় দিন মজুররা। সঙ্কটে বৃহন্নলারাও।

যাদের প্রতিদিনের রোজগারে খাবারের সংস্থান হয়ে থাকে। কয়েকশো দুঃস্থ পরিবার এই মূহূর্তে মহা সঙ্কটে। এই দিন আনি দিন খাই মানুষদের পাশে দাঁড়ালেন দার্জিলিং জেলা আইনি পরিষেবা ফোরামের সদস্যরা৷ আজ দিনভর শিলিগুড়ি লাগোয়া রাজগঞ্জ ব্লকের বারিভাষা, মাঝবাড়ি, ফকদইবাড়ি, হাতিয়াডাঙা এলাকায় হতদরিদ্র পরিবারদের হাতে তুলে দিলেন খাদ্য সামগ্রী। কয়েকশো, শিশু, বৃদ্ধ, বৃদ্ধাদের চোখে জল। গত কয়েক দিন ধরে ঠিক মতো দু'বেলা খাবার মেলেনি। আজ হাতে খাদ্য সামগ্রী পেয়ে যেন তারা বাঁচার রসদ পেলেন! সেইসঙ্গে এদিন তারা পৌঁছন শিলিগুড়ি লাগোয়া ইস্টার্ণ বাইপাসের মানসিক ও শারিরীক একাধীক প্রতিবন্ধী পরিবারের হাতে। এদিন ডাবগ্রাম ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের আওতাধীন বিভিন্ন এলাকায় থাকা দুই শতাধীক কর্মহীন শ্রমিক পরিবারের হাতেও তুলে দেওয়া হয় খাদ্য সামগ্রী। পাশাপাশি বারিভাষায় থাকা বৃহন্নলাদের হাতেও তুলে দেওয়া হয়। দার্জিলিং জেলা লিগাল এইড ফোরামের সাধারন সম্পাদক অমিত সরকার জানান, ধারাবাহিকভাবে চলবে এই খাদ্য সামগ্রী বিলি। পিছিয়ে পড়া এলাকায় মূলত পৌঁছে দেওয়া হবে খাদ্য সামগ্রী। খাদ্য বিলির পাশাপাশি করোনা কি এবং কিভাবে এর মোকাবিলা করা যাবে সে বিষয়েও সচেতনতা করা হয়। লকডাউনে যাতে কেউই বাড়ির বাইরে না বের হয়, তার প্রচারও চালান।  সাধারন মানুষকে বোঝান গৃহ বন্দী থাকার জন্যে অনুরোধও জানানো হয়।

PARTHA PRATIM SARKAR

Published by: Piya Banerjee
First published: April 2, 2020, 11:27 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर