কেন্দ্রীয় সরকারের টাকায় ভুয়ো ডাক্তার বানাচ্ছে শাসক দল, অভিযোগ কৈলাশ বিজয়বর্গীর

কেন্দ্রীয় সরকারের টাকায় ভুয়ো ডাক্তার বানাচ্ছে শাসক দল, অভিযোগ কৈলাশ বিজয়বর্গীর

কেন্দ্রীয় সরকারের টাকায় ভুয়ো ডাক্তার বানাচ্ছে শাসক দল, অভিযোগ কৈলাশ বিজয়বর্গীর

  • Share this:

Loading...

#কোচবিহার: স্বাস্থ্য খাতে কেন্দ্রীয় সরকার টাকা দিচ্ছে। আর সেই টাকায় তৃণমূল কর্মীদের ভুয়ো ডাক্তার বানিয়ে চিকিৎসা করার নামে লুটপাট হচ্ছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তাই এর দায়ভার নিয়ে তাঁর পদত্যাগ করা উচিত। কোচবিহারে সাংবাদিক বৈঠক করে মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে এই ভাষাতেই তোপ দাগলেন বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতা কৈলাশ বিজয়বর্গী। 

শুক্রবার দুপুরে কোচবিহারে আসেন বিজেপির এই কেন্দ্রীয় নেতা। প্রথমে কোচবিহারের দিনহাটায় যান। সেখানে আক্রান্ত বিজেপি কর্মীদের বাড়ি গিয়ে আক্রান্তদের সাথে কথা বলেন। পরে বিজেপির কোচবিহার জেলা কার্যালয়ে সাংবাদিক বৈঠক করে জানান, মমতা প্রজাতন্ত্রের কথা বলে। অথচ এরাজ্যে মানুষ বেশি আক্রান্ত হচ্ছে। শাসকদল বিজেপি নেতা কর্মীদের আক্রমণ করলে পুলিশ ব্যবস্থা নিচ্ছে না। আগামী ৩ দিনের মধ্যে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে পুলিশ কোনো ব্যবস্থা না নিলে রাজ্য স্তরের নেতারা কোচবিহারে এসে আন্দোলন করবেন।

পাশাপাশি, পুলিশ আধিকারিকদের বিরুদ্ধে মামলা করা হবে বলে তিনি হুঁশিয়ারি দেন। ভুয়ো ডাক্তার ইস্যুতে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী। অথচ তার রাজ্যে এত ভুয়ো ডাক্তার ধরা পড়ছে। কেন্দ্র মানুষের চিকিতসার জন্য যে টাকা দিচ্ছে সেই টাকায় তৃণমূল কর্মীদের ডাক্তার বানিয়ে লুটপাট চলছে। এই ঘটনার দায় নিয়ে মমতার পদত্যাগ করা উচিত।

গো রক্ষা ইস্যুতে বিজেপি নেতার অভিযোগ, মমতা মানুষকে ভূল বোঝাচ্ছেন। জনস্বার্থ মামলার পরিপ্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে কমিটি করা হয়েছে। সেই কমিটির নির্দেশে গো হত্যা বন্ধের কথা বলা হয়েছে। তবে এবিষয়ে রাজ্য সরকার নিজেই আইন করার ক্ষেত্রে স্বতন্ত্র। GSTবিল প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সংবিধানে রাজ্য ও কেন্দ্র একটি নিয়মে চলে। কেন্দ্র মানলেও রাজ্য তা মানছে না।

First published: 07:46:47 PM Jun 02, 2017
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर