Home /News /north-bengal /
Dooars: অবিশ্বাস্য! একসঙ্গে বিয়ে হল ৪২ জনের! চা বলয়ে গণবিবাহের আয়োজন...

Dooars: অবিশ্বাস্য! একসঙ্গে বিয়ে হল ৪২ জনের! চা বলয়ে গণবিবাহের আয়োজন...

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

Dooars: মূলত যাঁরা আর্থিকভাবে পিছিয়ে রয়েছেন, সামাজিকভাবে বিয়ে করতে প্রচুর পরিমাণে অর্থ খরচ করতে পারেন না, তাঁদের কথা ভেবেই এই আয়োজন৷

  • Share this:

    Sekh Rocky Chowdhury

    #শিলিগুড়ি: দীর্ঘ দুই বছর পর ফের গণবিবাহের আয়োজন বিন্নাগুড়ি এলাকায়। ৪২জন যুবক যুবতীর চার হাত এক হল গণবিবাহের মধ্য দিয়ে।   রবিবার সন্ধ্যায় বানারহাট ব্লকের বিন্নাগুড়ি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় এই গণবিবাহের আয়োজন করা হয়। লায়ন্স ক্লাব অব বিন্নাগুড়ি ডুয়ার্সের তরফ থেকে এই উদ্যোগ।

    আরও পড়ুন- বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টির সম্ভাবনা রাজ্যের এই জেলাগুলিতে, জানুন আবহাওয়ার আপডেট

     মূলত আদিবাসী সম্প্রদায়ের অসহায় দুঃস্থ পরিবার, যাঁরা আনুষ্ঠানিকভাবে বিবাহের আয়োজন করতে পারে না, তাঁদেরকে নিয়েই এদিন এই গণবিবাহের আয়োজন৷   সামাজিক স্বীকৃতি দেওয়া হয় এই গণবিবাহের মধ্য দিয়ে। সাধারণত চা বলয়কে কেন্দ্র করেই এই আয়োজন৷ জলপাইগুড়ি, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার এবং দার্জিলিং জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে ছেলেমেয়েদেরকে নিয়ে এখানে বিবাহ সম্পর্কে আবদ্ধ করা হয়। মূলত যাঁরা আর্থিকভাবে পিছিয়ে রয়েছেন, সামাজিকভাবে বিয়ে করতে প্রচুর পরিমাণে অর্থ খরচ করতে পারেন না, তাঁদের কথা ভেবেই এই  আয়োজন৷

    এদিনের এই গণবিবাহ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জলপাইগুড়ির ডিএসপি ক্রাইম বিক্রমজিৎ লামা, ধূপগুড়ি পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান রাজেশকুমার সিংহ, বিন্নাগুড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান দীপক শ্যাম  এবং  লাইন্স ক্লাব অফ বিন্নাগুড়ি ডুয়ার্সের সভাপতি সারিতা আগারওয়াল এবং সম্পাদক সঞ্জীব মিত্র।

    লায়েন্স ক্লাব অফ বিন্নাগুড়ি ডুয়ার্সের সভাপতি সরিতা আগারওয়াল জানান, করোনার কারণে মাঝে দু'বছর গণবিবাহের আয়োজন করা সম্ভব হয়নি, তবে এ বছর ফের গণবিবাহ হচ্ছে।

    আরও পড়ুন-রোগই বদলে দিল ভাগ্য; বগলের লোমের ছবি দেখিয়ে লক্ষ লক্ষ টাকা আয় করেন কানাডার যুবতী!

    জলপাইগুড়ি ডিএসপি ক্রাইম বিক্রমজিত লামা জানান, গণবিবাহের আয়োজন করা হয়েছে এটা খুবই প্রশংসনীয়। এই ধরনের অনুষ্ঠান হওয়া প্রয়োজন। কারণ অনেক দুঃস্থ গরিব অসহায় পরিবার রয়েছে যারা আনুষ্ঠানিকভাবে হয়তো বিয়ের অনুষ্ঠান করতে পারে না। এই ধরনের আয়োজন করলে তারাও আনুষ্ঠানিক বিয়ের আনন্দ উপভোগ করতে পারে।

    Published by:Rachana Majumder
    First published:

    Tags: Dooars

    পরবর্তী খবর