উত্তরবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

শাহের মঞ্চে বিজেপিতে যোগ, মালদহ ফিরেই তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক গাজলের বিধায়ক দিপালী বিশ্বাস

শাহের মঞ্চে বিজেপিতে যোগ, মালদহ ফিরেই তৃণমূলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক গাজলের বিধায়ক দিপালী বিশ্বাস

তৃণমূল শিবির থেকে দলে যোগ দেওয়া গাজোলের বিধায়ক দিপালী বিশ্বাসকে রবিবার স্বাগত জানাল মালদহ জেলা বিজেপি। রবিবার দুপুরে বিজেপির জেলা কার্যালয়ে ফুল ও দলীয় উত্তরীয় দিয়ে দিপালী বিশ্বাসকে বরণ করে বিজেপির জেলা নেতৃত্ব।

  • Share this:

#মালদহ: তৃণমূল শিবির থেকে দলে যোগ দেওয়া গাজোলের বিধায়ক দিপালী বিশ্বাসকে রবিবার স্বাগত জানাল মালদহ জেলা বিজেপি। রবিবার দুপুরে বিজেপির জেলা কার্যালয়ে ফুল ও দলীয় উত্তরীয় দিয়ে দিপালী বিশ্বাসকে বরণ করে বিজেপির জেলা নেতৃত্ব। একইসঙ্গে স্বাগত জানানো হয় তাঁর স্বামী প্রাক্তন সিপিএম ও তৃণমূলের নেতা রঞ্জিত বিশ্বাসকে। দিপালী বিশ্বাসের সঙ্গেই বিজেপিতে যোগ দেন তাঁর স্বামী রঞ্জিত বিশ্বাসও।

এ দিন স্বাগত জানানোর পর দলে যোগ দেওয়া বিধায়কের হাতে পার্টি ও সংঘের বেশকিছু পুস্তিকা তুলে দেয় দলীয় নেতৃত্ব। বিধায়কের সঙ্গে দলে যোগ দেওয়া নবাগতদের হাতেও দলীয় পতাকা তুলে দেন জেলা বিজেপির সভাপতি গোবিন্দ চন্দ্র মন্ডল। ১৯ ডিসেম্বর মেদিনীপুরে অমিত শাহের মঞ্চে যোগ দিয়েছিলেন বিজেপিতে। তার প্রায় তিন সপ্তাহ পর রবিবার মালদহে ফিরলেন গাজলের বিধায়ক দিপালী বিশ্বাস।

২০১৬ সালে সিপিএমের টিকিটে গাজোল বিধানসভায় বামকংগ্রেস জোট প্রার্থী হিসেবে জেতেন দিপালী। পরে ওই বছরই ২১ জুলাই মঞ্চে যোগ দেন তৃণমূলে। এ দিন পুরনো দলের বিরুদ্ধে বিষোদ্গার করেন দিপালী। অভিযোগ করে তিনি জানান, দলে যোগ দেওয়ার সময় অনেক প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল তৃণমূল। গাজোলে নতুন পুরসভা করার কথা বলা হয়েছিল। মহিলা কলেজ তৈরির কথা বলা হয়েছিল, নতুন বাস স্ট্যান্ড তৈরির প্রতিশ্রুতিও ছিল, নতুন দমকল বিভাগ তৈরি, হাসপাতাল উন্নয়নের কাজ করার কথা বলা হয়েছিল। কিন্তু কথা রাখেননি তৃণমূল। উন্নয়নের কাজ করতে না পারার কারণেই ফের দলত্যাগের সিদ্ধান্ত।

নতুন দল বিজেপি থেকে গাজোল বিধানসভায় প্রার্থী হবেন কি দিপালী বিশ্বাস? প্রশ্নের উৎরে নব্য বিজেপি নেত্রী বলেন, 'প্রার্থী কে হবেন তা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে দল। আপাতত সাধারণ কর্মী হিসেবে বিজেপির কাজ করব। এখন গাজলে দলের শক্তি বৃদ্ধি করাই মূল লক্ষ্য।' বিধায়ককে স্বাগত জানাতে এদিন বিজেপি জেলা কার্যালয়ে উপস্থিত ছিলেন গাজলের বিজেপির জেলা পরিষদ সদস্য সাগরিকা সরকার, ২০১৬ বিধানসভা নির্বাচনে গাজলের বিজেপি প্রার্থী সুধাংশু সরকার-সহ অন্যান্য নেতৃত্ব। জেলা বিজেপির সভাপতি গোবিন্দ চন্দ্র মন্ডল বলেন, বিধায়ক যোগ দেওয়ায় গাজোলে দলের শক্তি বৃদ্ধি হয়েছে।

Sebak DebSarma

Published by: Shubhagata Dey
First published: January 10, 2021, 5:18 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर