Home /News /north-bengal /
Cooch Behar: আচমকা গরমের ছুটি এগিয়ে যাওয়ায় রবীন্দ্র জয়ন্তী পালন করে ছুটি হল স্কুল 

Cooch Behar: আচমকা গরমের ছুটি এগিয়ে যাওয়ায় রবীন্দ্র জয়ন্তী পালন করে ছুটি হল স্কুল 

দিনহাটাr ভেটাগুড়ি মহাকালের ধাম প্রাইমারি স্কুলে পালিত হল আগাম রবীন্দ্রজয়ন্তী অনুষ্ঠান 

  • Share this:

#কোচবিহার: আচমকাই এগিয়ে গিয়েছে গরমের ছুটি। তাই স্কুলে বাতিল  রবীন্দ্র জয়ন্তী উদযাপন। তাতে কি? স্কুল ছুটির শেষ দিনে রবীন্দ্র জয়ন্তী উদযাপন হল দিনহাটার একটি প্রাইমারি স্কুলে। অনুষ্ঠানের নাম দেওয়া হয়েছে বৈশাখী। নাচে-গানে-কবিতায় কবি গুরুকে শ্রদ্ধা জানালেন খুদে পড়ুয়ারা। অনুষ্ঠানে অংশ নিয়েছিলেন স্কুলের শিক্ষক-শিক্ষিকারাও।

দিনহাটার ভেটাগুড়ির মহাকালের ধাম প্রাইমারি স্কুলে আজ, শনিবার অনুষ্ঠিত হয় বৈশাখী অনুষ্ঠান। ২৫ শে বৈশাখের দিন এই অনুষ্ঠান হওয়ার কথা ছিল স্কুলে। তবে তড়িঘড়ি এই অনুষ্ঠান করতে হয় ১৬ বৈশাখেই। দক্ষিণবঙ্গে অত্যধিক গরমে রাজ্য সরকার গরমের ছুটি বাড়িয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। সরকারি খাতায় আজ-ই সরকারি স্কুলগুলির শেষ দিন ছিল। এদিকে ২৫ শে বৈশাখ উপলক্ষ্যে রবীন্দ্র জয়ন্তী পালনের জন্য বিভিন্ন স্কুলে ছাত্রছাত্রীরা প্রস্তুতি নিতে শুরু করে দিয়েছিল অনেক আগে থেকেই।  তবে দক্ষিণবঙ্গে অত্যাধিক দাবদাহে গরমের ছুটি এগিয়ে দিয়েছে রাজ্য সরকার।

আরও পড়ুন: একদিকে যখন বাড়ছে করোনা সংক্রমণ, তখনই করোনা টিকা নিতে অনীহা মালদহে

কার্যত  উপায় না দেখে ছাত্র-ছাত্রীদের সঙ্গে নিয়ে  দিনটি আগাম পালনের সিদ্ধান্ত নেয় দিনহাটার মহাকালের ধাম ও প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারা। সিদ্ধান্ত হয় শনিবার স্কুল ছুটির শেষ দিনে পালিত হবে কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের জন্ম জয়ন্তী অনুষ্ঠান। ২৫ শে বৈশাখ ঠিক যেভাবে স্কুলের ছাত্রছাত্রীরা অনুষ্ঠানের আয়োজন করত, সেই ভাবেই আজকের দিনটি উদযাপন করা হয়েছে। স্কুলের প্রাক-প্রাথমিক থেকে চতুর্থ শ্রেণী পর্যন্ত ছাত্রছাত্রীরা রবীন্দ্র নৃত্য গান ও কবিতায় কবিগুরুকে শ্রদ্ধা জানিয়েছে। অংশগ্রহণ করেন স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকারাও। স্কুল শিক্ষিকা ফাল্গুনী দত্ত ভৌমিক জানান, '' প্রতিবছরের মতো এবছরও স্কুলে রবীন্দ্র জয়ন্তী উদযাপনের কথা ছিল। তাই ২৫শে বৈশাখ অনুষ্ঠান উপলক্ষে একমাস আগে থেকেই অনুষ্ঠানের প্রস্তুতি নিচ্ছিল ছাত্রছাত্রীরা। আচমকা গরমের ছুটি এগিয়ে যাওয়ায় অনুষ্ঠান বাতিল করার পরিস্থিতি তৈরি হয়। তাই মন খারাপ হয়েছিল ছাত্র-ছাত্রীদের। ছাত্র-ছাত্রীরা যাতে নিরাশ না হয় তাই আগাম স্কুলে পালন করা হলেও রবীন্দ্র জয়ন্তী অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানের নাম দেওয়া হয়েছিল বৈশাখী।''

Prabir Kundu

Published by:Rukmini Mazumder
First published:

Tags: Cooch behar

পরবর্তী খবর