বিহার নির্বাচনের ফল ঘোষণার ঠিক আগেই সীমান্ত থেকে উদ্ধার ৩০ কোটির সোনা! গ্রেফতার ২ পাচারকারী-সহ ৩

পুলিশ ও আবগারি দফতরের নাকায় উদ্ধার প্রায় ৩০ কোটি টাকার সোনা। গাড়ির চালক-সহ গ্রেফতার করা হয়েছে তিন জনকে।

পুলিশ ও আবগারি দফতরের নাকায় উদ্ধার প্রায় ৩০ কোটি টাকার সোনা। গাড়ির চালক-সহ গ্রেফতার করা হয়েছে তিন জনকে।

  • Share this:

#খড়িবাড়ি: নাকা তল্লাশিতে বড়সড় সাফল্য পেল খড়িবাড়ি থানার পুলিশ এবং শিলিগুড়ির আবগারি দফতর। বিহার নির্বাচনের জন্যে দীর্ঘদিন ধরেই খড়িবাড়ির অদূরে বাংলা এবং বিহার সীমানায় নাকা তল্লাশি চালিয়ে আসছে এই দুই দফতর। কাল বিহারের নির্বাচনের ফল ঘোষণা। তার আগে দুই রাজ্যের সীমানায় তল্লাশিতে আসে সাফল্য। পুলিশ ও আবগারি দফতরের নাকায় উদ্ধার প্রায় ৩০ কোটি টাকার সোনা। গাড়ির চালক-সহ গ্রেফতার করা হয়েছে তিন জনকে।

সাম্প্রতিককালে পুলিশের জালে বিপুল পরিমাণ সোনা উদ্ধার হয়নি। শিলিগুড়ি ও লাগোয়া এলাকা থেকে প্রচুর সোনা উদ্ধার করেছে ডিআরআই। দার্জিলিংয়ের পুলিশ সুপার সন্তোষ নিম্বালকার জানান, গুয়াহাটি থেকে ওই সোনা সড়ক পথে ভেসে প্রথমে পৌঁছয় শিলিগুড়ির তেনজিং নোরগে বাস টার্মিনাসে। তারপর গাড়ি বদল করা হয়। শিলিগুড়ি থেকে অন্য একটি গাড়িতে বিহারের দিকে পাচারের উদ্দেশ্যে রওনা হয় ধৃতেরা। খড়িবাড়ির কাছে চেকরমারিতে নাকা তল্লাশির জন্য আটক করা হয় গাড়িটিকে। গাড়ির দরজা খুলতেই সামনে আসে সোনা পাচারের বিষয়টি। ঘটনাস্থলেই জেরা করা হয়। সন্দেহ বাড়তে থাকায় আনা হয় খড়িবাড়ি থানায়। থানায় জেরাতেই সব সামনে চলে আসে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃত ২ ব্যক্তি মুম্বাইয়ের বাসিন্দা। তারা জেরায় স্বীকার করেছে, এই ধরনের পাচারের জন্যে প্রতি টিপে ১০ হাজার টাকা করে দেওয়া হয়। পুলিশ সুপার জানিয়েছেন, ধৃতদের কাছ থেকে ১৩০টি সোনার বাট উদ্ধার করা হয়েছে। উদ্ধার হওয়া সোনার ওজন ২১ কেজি ৫৭৩ গ্রাম। যার আনুমানিক বাজার দর প্রায় ৩০ কোটি টাকা।

জানা গিয়েছে, আগামিকাল ধৃতদের আদালতে তোলা হবে। তবে এই চক্রের সঙ্গে আর কারা জড়িত বা মূল পাণ্ডা কে? তা বের করার চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ। কেননা ডি আর আই যখন সোনা উদ্ধার করে সেই সময়েও অধরাই রয়ে যায় মূল পাণ্ডারা। পুলিশের প্রাথমিক তদন্তে অনুমান, ইন্দো-মায়ানমার সীমান্ত দিয়েই এই বিপুল পরিমাণ সোনা অসম হয়ে শিলিগুড়ি পৌঁছয়।

Partha Sarkar

Published by:Shubhagata Dey
First published: