পুলিশ হেফাজতে আটক ব্যক্তির মৃত্যু, উত্তেজনা মালদহের বৈষ্ণবনগরে

পুলিশ হেফাজতে আটক ব্যক্তির মৃত্যু, উত্তেজনা মালদহের বৈষ্ণবনগরে

বেশি রাতে বাড়িতে হানা দিয়ে বাবলু সেখকে আটক করে এলাকার পুলিশ। তাঁর বিরুদ্ধে জমিতে বে-আইনি পোস্ত ও গাঁজা চাষের অভিযোগ পেয়ে অভিযান চালানো হয় বলে দাবি পুলিশের।

  • Share this:

#মালদহ: পুলিশি হেফাজতে মৃত্যুর ঘটনার অভিযোগ উঠল মালদহে । মৃত বাবলু শেখ (৫৫) বৈষ্ণবনগর থানার কুম্ভিরা পঞ্চায়েতের জৈনপুরের বাসিন্দা । বেশি রাতে বাড়িতে হানা দিয়ে বাবলু সেখকে আটক করে এলাকার পুলিশ। তাঁর বিরুদ্ধে জমিতে বে-আইনি পোস্ত ও গাঁজা চাষের অভিযোগ পেয়ে অভিযান চালানো হয় বলে দাবি পুলিশের।

রাতে বাড়ি থেকে জিপে তুলে নিয়ে যাওয়ার পর আচমকা পুলিশের গাড়িতে অসুস্থ হয়ে পড়েন আটক ব্যক্তি । স্থানীয় বেদরাবাদ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। এই মৃত্যুর খবর চাউর হতেই উত্তেজনা ছড়ায় এলাকায়। গ্রামবাসীরা প্রথমে হাসপাতালে গিয়ে বিক্ষোভ দেখান । এরপর বৈষ্ণবনগর থানাতে গিয়েও বিক্ষোভ দেখানো হয়।

বিকেলে বৈষ্ণবনগর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে মৃতের পরিবার । অভিযোগ পত্রে একজন পুলিশ সাব-ইন্সপেক্টর এবং একজন অ্যাসিস্ট্যান্ট সাব ইন্সপেক্টরের বিরুদ্ধে অভিযোগ জানানো হয়েছে।

পরিবারের আরও দাবি ঘুমন্ত অবস্থায় বিছানা থেকে তুলে কার্যত টেনেহিঁচড়ে নিয়ে গিয়ে পুলিশি গাড়িতে তোলা হয় মধ্যবয়স্ক ওই ব্যক্তিকে। স্থানীয় প্রাক্তন পঞ্চায়েত প্রধান নূর ইসলামের দাবি, ওই ব্যক্তি কখনও পোস্ত বা গাঁজা চাষ করেছেন এমন বিষয় স্থানীয়দের জানা নেই। তাঁর আরও দাবি, ভুল খবরের ভিত্তিতেই ওই ব্যক্তিকে জোর করে আটক করে পুলিশ। পুলিশের গাড়িতে মৃত্যুর পর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয় বলেও দাবি করেছেন মৃতের আত্মীয় । মালদহের পুলিশ সুপার অলক রাজোরিয়া জানিয়েছেন, ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট তথ্য পেয়ে পুলিশের অভিযান চালানো হয়। মারধরের কোন অভিযোগ সঠিক নয় । তবে পুলিশের বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠায় মৃতদেহ ময়নাতদন্ত করা হয়েছে ।

Sebak DebSarma

First published: January 17, 2020, 11:11 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर