corona virus btn
corona virus btn
Loading

বৃষ্টি থামতেই উত্তরবঙ্গে সাপের উপদ্রব, সাপের কামড়ে মৃত ২, অযথা আতঙ্কিত না হতে পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

বৃষ্টি থামতেই উত্তরবঙ্গে সাপের উপদ্রব, সাপের কামড়ে মৃত ২, অযথা আতঙ্কিত না হতে পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের
  • Share this:

#ধূপগুড়ি: উত্তরবঙ্গে বৃষ্টি কমেছে। কিন্তু সেই সঙ্গে বেড়েছে সাপের উপদ্রব। জলপাইগুড়ির ধূপগুড়ির বাসিন্দারা আতঙ্কিত। এদিন ধূপগুড়ির চোদ্দো নম্বর ওয়ার্ড থেকে একটি গোখরো উদ্ধার করেন সর্প বিশেষজ্ঞ মিন্টু চৌধুরী। সাপের কামড়ে এরমধ্যেই দু’জনের মৃত্যু হয়েছে। অসুস্থ ন’জন ধূপগুড়ি ব্লক স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও জলপাইগুড়ি সদর হাসপাতালে ভরতি। সাপ নিয়ে সতর্ক থাকার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের।

ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। কিন্তু আপাতত উত্তরবঙ্গে বৃষ্টি কমেছে। সেই সঙ্গে শুরু হয়েছে সাপের উপদ্রব। জলপাইগুড়ির ধূপগুড়ির চোদ্দো নম্বর ওয়ার্ডে একটি গোখরো সাপ উদ্ধার হয়। একটি পরিত্যক্ত ঘরে আশ্রয় নিয়েছিল ছ’ফুট লম্বা গোখরোটি।

বর্ষাকালে বৃষ্টিতে পুকুর-খাল উপচে পড়ে৷ এই সময়েই সাপের ডিম পাড়ার সময়৷ আশ্রয়ের খোঁজে উঁচু জায়গায় যায় সাপ৷ সাধারণত ইঁদুরের গর্ত,গোডাউন বা ঘরে আশ্রয় নেয়৷ এমন জায়গায় সাপ বাচ্চা প্রসব করে, যেখানে মানুষের আনাগোনা কম৷

তাই বর্ষা কমলেও সাপের উপদ্রব থেকে রেহাই নেই মানুষের। এরমধ্যেই ধূপগুড়িতে সাপের কামড়ে দু’জনের মৃত্যু হয়েছে। ন’জন অসুস্থ হয়ে ধূপগুড়ি ব্লক স্বাস্থ্য কেন্দ্র ও জলপাইগুড়ি সদর হাসপাতালে ভরতি। সাপ নিয়ে অযথা আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের। তাদের মতে-ঘুমোতে যাওয়ার আগে বিছানা ঝেড়ে নেওয়া উচিত৷ মশারি টাঙিয়ে শোয়া বাধ্যতামূলক৷ রাতে আলো ছাড়া বাইরে না যাওয়া৷ ঘরে ইঁদুরের গর্ত থাকলে তা বুজিয়ে দেওয়া৷ সাপ কামড়ালে বাঁধনে বেঁধে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া৷ এবং সাপ দেখতে পেলে তাকে না মেরে বনদফতরে খবর দিতে হবে৷ বৃষ্টি কমেছে। সাপ ধরা পড়েছে। কিন্তু তাতেও আতঙ্ক কমছে না ধূপগুড়িবাসীর।

First published: July 22, 2019, 11:02 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर