• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • Adhir Chowdhury attacks TMC: বিরোধী জোট ভেস্তে দিতেই কংগ্রেসকে আক্রমণ, মমতার গোয়া সফরের আগে বড় অভিযোগ অধীরের

Adhir Chowdhury attacks TMC: বিরোধী জোট ভেস্তে দিতেই কংগ্রেসকে আক্রমণ, মমতার গোয়া সফরের আগে বড় অভিযোগ অধীরের

অধীরের নিশানায় মমতা৷ Photo-File

অধীরের নিশানায় মমতা৷ Photo-File

  • Share this:

    #শিলিগুড়ি: ২০২৪-এ বিজেপি-কে হারানোর লক্ষ্যে দুই দলই এগোচ্ছিল৷ দিল্লি গিয়ে সনিয়া এবং রাহুল গান্ধির সঙ্গে দেখা করে এসেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)৷ কিন্তু তৃণমূল (TMC) এবং কংগ্রেসের (Congress) সম্পর্কে যেন হঠাৎই চিড় ধরেছে৷ ভবানীপুরে উপনির্বাচনের আগে থেকেই কংগ্রেসকে সরাসরি আক্রমণ শুরু করতে শুরু করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়রা৷ প্রথম কিছু দিন চুপ করে থাকার পর কংগ্রেস শিবির থেকেও পাল্টা জবাব আসতে শুরু করে৷ গোয়ায় কংগ্রেসে তৃণমূল বড়সড় ভাঙন ধরানোর পর দুই দলের মধ্যে তিক্ততা আরও বেড়েছে৷

    এবার মুখ্যমন্ত্রীর গোয়া সফর নিয়ে তীব্র কটাক্ষ ছুড়ে দিলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী (Adhir Chowdhury attacks TMC)৷ একই সঙ্গে বিজেপি-র সঙ্গে তৃণমূলের গোপন আঁতাতের অভিযোগেও ফের সরব হয়েছেন তিনি৷

    এ দিনও খড়দহ এবং গোসাবায় উপনির্বাচনের প্রচারে গিয়ে কংগ্রেসকে আক্রমণ করেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় (Abhishek Banerjee)৷ তিনি অভিযোগ করেন, যেন তেন প্রকারে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে হারাতেই সিপিএম এবং আইএসএফ-এর সঙ্গে জোট করেছিল কংগ্রেস৷ অভিষেক বলেন, 'কংগ্রেস (Congress) সাত বছর ধরে বিজেপি-র কাছে হারছে৷ আর তৃণমূল সাত বছর ধরে বিজেপি-কে হারাচ্ছে৷ এটাই কংগ্রেস আর তৃণমূল কংগ্রেসের মধ্যে পার্থক্য৷ নোটায় ভোট দেওয়া মানেও ভোট নষ্ট করা, সিপিএম-কংগ্রেসকে ভোট দেওয়া মানেও তাই৷'

    আরও পড়ুন: ত্রিপুরা, গোয়ার তৃণমূলের পরের টার্গেট কোন রাজ্য? বড় পরিকল্পনা জানালেন অভিষেক

    অভিষেককে পাল্টা জবাব দিয়ে অধীর চৌধুরী বলেন, 'গাঁটছড়া কে কোথায় বাঁধছে সবাই দেখতে পাচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার স্বপ্নে প্রশান্ত কিশোরের পাম্প খেয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গ্যাস বেলুনের মত ফুলছেন। উনি বিজেপির বিরুদ্ধে লড়তে চাইলে কংগ্রেসকে আক্রমণ করতেন না। বিরোধীদের হাতে ৬৩ শতাংশ ভোট আছে, দিদির হাতে ৪ শতাংশ আছে। তবে কাকে কার সাহায্য করা উচিত? আসলে কলকাতার দিদির, দিল্লি মোদির সমঝোতা হয়েছে।'

    গোয়াতেও কংগ্রেসের বড় মাথাব্যথার কারণ হয়ে উঠেছে তৃণমূল৷ গোয়ায় কংগ্রেসে বড়সড় ভাঙন ধরিয়েছে ঘাসফুল শিবির৷ আগামী ২৮ অক্টোবর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গোয়া যাওয়ার কথা৷ মুখ্যমন্ত্রীর এই সফর নিয়েও কটাক্ষ ছুড়ে দিয়েছেন অধীর চৌধুরী৷ তাঁর দাবি, বিজেপি-র সুবিধে করে দিতেই গোয়া যাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ অধীর চৌধুরী বলেন, 'মুখ্যমন্ত্রী গোয়ায় যাচ্ছেন কারন বিজেপি-কে খুশি করতে। এটাই গোপন চুক্তি। যেখানে কংগ্রেস আছে তাকে দুর্বল কর। বিরোধী জোটকে বাঁধতে দিলে হবে না। বিজেপি-কে ছেড়ে কংগ্রেসকে আক্রমণ করছে। বিনিময়ে চুক্তি আমার পরিবারকে বাঁচাও।'

    কয়েকদিন আগে দলীয় মুখপাত্র জাগো বাংলার উৎসব সংখ্যাতেও কংগ্রেসের ভূমিকার সমালোচনা করেছিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনিও অভিযোগ করেছিলেন, বিজেপি-র বিরোধিতায় ব্যর্থ কংগ্রেস৷ তিনি দাবি করেন, গোটা দেশেই বিজেপি-র বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মুখ হয়ে ুঠেছে তৃণমূল৷ মুখ্যমন্ত্রী অবশ্য দাবি করেছিলেন, বিরোধী জোটের নেতৃত্ব কে দেবে তা নিয়ে তাঁরা চিন্তিত নন৷ কিন্তু প্রকারন্তরে তৃণমূলনেত্রী এটাও বুঝিয়ে দিয়েছিলেন, বর্তমান পরিস্থিতিতে কংগ্রেসের শর্ত মেনে বিরোধী জোট গঠনের পক্ষে নন তিনি৷ মুখ্যমন্ত্রী বলেছিলেন, সময়ের দাবি মেনে সিদ্ধান্ত নিতে হবে কংগ্রেস নেতৃত্বকে৷

    Published by:Debamoy Ghosh
    First published: