Home /News /north-bengal /
স্বেচ্ছামৃত্যুর আবেদন জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি সিভিল ইঞ্জিনিয়ারের

স্বেচ্ছামৃত্যুর আবেদন জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি সিভিল ইঞ্জিনিয়ারের

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

মনের অন্ধগলিতে কাটে দিন-রাত। অবচেতনে ভয় দেখায় প্রতিবেশীদের কটুক্তি। অদৃশ্য কোনও যন্ত্রের ঘেরাটোপে ঘেরা জীবনে হাঁপিয়ে উঠছিলেন জলপাইগুড়ি বিদ্যুৎ‍ দাশগুপ্ত। উপায় না দেখে মুখ্যমন্ত্রীর দফতরে স্বেচ্ছামৃত্যুর আবেদন করেন তিনি। অবশেষে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে সিদ্ধান্ত বদলাচ্ছেন পেশায় সিভিল ইনজিনিয়র বিদ্যুৎ দাশগুপ্ত।

আরও পড়ুন...
  • Share this:
    #জলপাইগুড়ি: মনের অন্ধগলিতে কাটে দিন-রাত। অবচেতনে ভয় দেখায় প্রতিবেশীদের কটুক্তি। অদৃশ্য কোনও যন্ত্রের ঘেরাটোপে ঘেরা জীবনে হাঁপিয়ে উঠেছিলেন জলপাইগুড়ি বিদ্যুৎ‍ দাশগুপ্ত। উপায় না দেখে মুখ্যমন্ত্রীর দফতরে স্বেচ্ছামৃত্যুর আবেদন করেন তিনি। অবশেষে মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপে সিদ্ধান্ত বদলাচ্ছেন পেশায় সিভিল ইঞ্জিনিয়ার বিদ্যুৎ দাশগুপ্ত। তাঁকে নাকি দিনরাত কটুক্তি করেন প্রতিবেশীরা। এমনকি কাজের জায়গায় গিয়েও রেহাই মেলে না। অদৃশ্য যন্ত্রের মাধ্যমে নজরদারি রাখা হয় তাঁর উপর। এমনটাই বিশ্বাস জলপাইগুড়ি শহরের ২৪ নম্বর ওয়ার্ডের পশ্চিম কেরানি পাড়ার বাসিন্দা বিদ্যুৎ দাশগুপ্তর। চাকরি জীবন শুরু অরুণাচল প্রদেশে একটি নির্মাণ সংস্থায়। ২০১১ সালে আচমকা চাকরি ছেড়ে দেন। কারণ আজও অজানা পরিবারের। আরও পড়ুন : এক নজরে দেখে নিন প্রকাশিত লোকসভা ও বিধানসভা উপনির্বাচনের ফলাফল চাকরি ছাড়ার পরই আসে মানসিক অবসাদ। বদলে যেতে থাকে আপাত শান্ত মানুষটি। সবসময়ে মনে হতে থাকে প্রতিবেশীরা তাঁকে কটুক্তি ও শারীরিক অত্যাচার করছেন। মনের ডাক্তার দেখিয়েও পিছু ছাড়ে না শব্দগুলো । তার মাঝেই ফের সিকিমে চাকরি। কিছুদিন পর শিলিগুড়ি ফিরে অন্য চাকরি। কিন্তু সমস্যা থেকেই যায়। পরিবারকে না জানিয়েই ১৮ মার্চ মুখ্যমন্ত্রীকে চিঠি লেখেন বিদ্যুৎ দাশগুপ্ত। চিঠিতে স্বেচ্ছামৃত্যুর অধিকার চান তিনি। চিঠি হাতে পেয়েই এবার কালিম্পঙ সফরে গিয়ে জলপাইগুড়ি পুলিশ প্রশাসনকে বিষয়টি জরুরি ভিত্তিতে দেখার নির্দেশ দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এরপরই কোতোয়ালি থানার পুলিশ কর্তারা বাড়ি গিয়ে তাঁর সঙ্গে কথা বলেন। আশ্বস্ত হন বিদ্যুৎ দাশগুপ্ত। সরে আসেন স্বেচ্ছামৃত্যুর সিদ্ধান্ত থেকে। এই মূহূর্তে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা করে তাঁকে সুস্থ করে তোলাই পরিবারের একমাত্র উদ্দেশ্য। আরও পড়ুন : আগামী ৬ জুন মাধ্যমিক পরীক্ষার ফলপ্রকাশ, জানাল মধ্যশিক্ষা পর্ষদ
    First published:

    Tags: Chief minister, Civil engineer, Jalpaiguri, Mamata Banerjee, Urge Death, West bengal

    পরবর্তী খবর