• Home
  • »
  • News
  • »
  • north-bengal
  • »
  • রমণীয় কণ্ঠে বন্ধুত্বের খোলা ডাক, কল সেন্টারের আড়ালে চলছিল এই ব্যবসা! ৭ জন গ্রেফতার

রমণীয় কণ্ঠে বন্ধুত্বের খোলা ডাক, কল সেন্টারের আড়ালে চলছিল এই ব্যবসা! ৭ জন গ্রেফতার

পুলিশের জালে অপরাধীরা।

পুলিশের জালে অপরাধীরা।

পুলিশের সাইবার ক্রাইম ব্রাঞ্চেও অভিযোগ জমা করে প্রতারণার শিকার দুই ব্যক্তি।পুলিশের সাইবার ক্রাইম ব্রাঞ্চেও অভিযোগ জমা করে প্রতারণার শিকার দুই ব্যক্তি।

  • Share this:

#শিলিগুড়ি: কল সেন্টারের আড়ালে ডেটিং সাইটের মাধ্যমে প্রতারণা  চালিয়ে তেলেঙ্গনা পুলিশের জালে ধরা পড়ল শিলিগুড়ির ৭ যুবক। মূল পাণ্ডা এক মহিলা-সহ ৩ জনকে খুঁজছে পুলিশ।

দীর্ঘ দিন ধরেই শহরের বুকে কল সেন্টারের আড়ালে নানা অবৈধ ব্যবসা চালিয়ে আসছে একটি চক্র। যারা ভিন রাজ্যে এই প্রতারণা চালিয়ে আসছে, এমনই অভিযোগ উঠেছিল। শিলিগুড়ি পুলিশের সাইবার ক্রাইম থানায় অভিযোগও জমা পড়ে। পুলিশি তদন্ত চলছে। অভিযোগের পরও রমরমিয়ে চলছিল কারবার।

কখনও ফ্রেণ্ডশিপ ক্লাব চালানোর ফাঁকে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়া, কখনও বা চাকরি দেওয়ার নাম করে ফাঁদ পাতা চলছিল এভাবেই। তেলেঙ্গনা পুলিশের সাইবার ক্রাইম ব্রাঞ্চেও অভিযোগ জমা করে প্রতারণার শিকার দুই ব্যক্তি।

তারই সূত্র ধরে শিলিগুড়িতে টানা ৭ দিন হানা তেলেঙ্গানা পুলিশের একটি টিমের। সঙ্গে ছিল শিলিগুড়ির প্রধাননগর থানার পুলিশ। মোবাইল ফোন এবং ব্যাঙ্কের একাউন্ট নম্বরের সূত্র ধরে সেবক রোড থেকে ৭ জনকে গ্রেপ্তার করে। ধৃতদের জেরা করে বেশ কিছু চাঞ্চল্যকর তথ্য আদায় করেছে পুলিশ। তেলেঙ্গানার দুই ব্যক্তিকে চাকরি দেওয়ার নাম করে ১৪ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ জমা পড়ে। শিলিগুড়ির বেশ কয়েকটি কল সেন্টারে আচমকা হানা দেয় পুলিশ।

ধৃত ৭ জনের মধ্যে চার জনকে নোটিশ দিয়ে তেলেঙ্গনা থানায় হাজির হওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বাকি তিন জনকে ট্রানজিট রিমাণ্ডে তেলেঙ্গানায় নিয়ে যাচ্ছে তদন্তকারীরা। আজই রওনা দিয়েছে। ধৃত ৩ জনকে আজ আদালতে তোলা হলে চার দিনের পরিবর্তে তিন দিনের রিমাণ্ডের নির্দেশ দেওয়া হয়। তেলেঙ্গানা পুলিশের সাইবার ক্রাইম ব্রাঞ্চের সার্কেল ইন্সপেকটর এম রবিন্দর রেড্ডি জানান, নির্দিষ্ট অভিযোগের নিরিখেই অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ধৃতেরা একাধিক ভিন রাজ্যের ব্যক্তিদের লাখ লাখ টাকা প্রতারণা করেছে। তাদের আবারও জেরা করা হবে। মূল পাণ্ডাদের খোঁজা হচ্ছে। ফের শিলিগুড়ি এসে তল্লাশি চালানো হবে।

Published by:Arka Deb
First published: