‘গোরি তেরা গাঁও বড়া পেয়ারা’...কণ্ঠে যেন সুরের ঝর্ণা, ফুড ডেলিভারি বয়ের গানে মুগ্ধ নেট-দুনিয়া

‘গোরি তেরা গাঁও বড়া পেয়ারা’...কণ্ঠে যেন সুরের ঝর্ণা, ফুড ডেলিভারি বয়ের গানে মুগ্ধ নেট-দুনিয়া
অনির্বাণ চক্রবর্তীর পোস্ট করা ভিডিও থেকে নেওয়া ছবি ৷
  • Share this:

#কলকাতা:  পরণে রঙ ওঠা লালরঙা পোলো টি-শার্ট ৷ ঝাঁকরা চুল ৷ চেহারায় হাজারও ক্লান্তির ছাপ স্পষ্ট ৷ পরণের টি-শার্ট ঘামে ভিজে সপ সপ করছে ৷ পরিচয় জোমোটোর ফুড ডেলিভারি বয় ৷ আমরা যাঁরা প্রতিনিয়ত অনলাইনে খাবার অর্ডার দিই ৷ আর বাড়িতে কিংবা অফিসে এসে যে সমস্ত ফুড ডেলিভারি বয়রা এসে খাবার পৌঁছে দেন, তাঁদের চেহারা প্রথমে দেওয়া বিবরণের সঙ্গে মিলে যায় ৷ তাঁদের সঙ্গে বাক্যালাপ যতটা সংক্ষেপে মিটিয়ে নেওয়া যায় ততই ভাল ৷ খাবারটা খেতে হবে ৷ কথার মধ্যে ‘এত দেরি হল কেন?’ কিংবা ‘থ্যাঙ্ক ইউ:’৷ এ ছাড়া তো তাঁদের সঙ্গে কথা হয়ই না ৷ কিন্তু এই ফুড ডেলিভারি বয়দের মধ্যেই কেউ হয়তো বড় বড় শিল্পী ৷ নিজেদের শিল্পীসত্তাকে বয়ে নিয়ে যেতেই এই পেশায় আসা ৷ সারাটাদিন ধরে কায়িক পরিশ্রম করেও তাঁদের প্রতিভাকে শান দিয়ে চলেন কেউ কেউ ৷ কেউ আবার হয়তো জন্মেছেন প্রতিভা নিয়েই ৷

এমনই এক ফুড ডেলিভারি বয়ের ভিডিও এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল ৷ গান গাওয়াটা তাঁর পেশাও নয়। তাতে কী! ঈশ্বরপ্রদত্ত প্রতিভা রয়েছে তাঁর। আর সঙ্গে অধ্যাবসায়। প্রাণজিত হালোই নামে এক জোমাটো ফুড ডেলিভারিকে এতদিন ধরে কেউ পাত্তাই দিতেন না ৷ প্রতিদিনের মতো প্রাণজিত সেদিনও গিয়েছিলেন ক্রেতার বাড়িতে খাবার পৌঁছে দিতে ৷ গুয়াহাটির বাসিন্দা অনির্বাণ চক্রবর্তীর বাড়িতে খাবার দিতে গিয়েছিলেন তিনি ৷ আর তাঁর বাড়িতে পৌঁছতেই তিনি প্রাণজিতকে অনুরোধ করেন একটি গান গাইবার জন্য ৷ আসলে ফেসবুকে এই ডেলিভারি বয়কে আগেই দেখেছিলেন অনির্বাণ ৷ আর সেখানেই তিনি প্রাণজিতের প্রতিভার পরিচয় পেয়েছিলেন তিনি ৷ অনির্বাণের অনুরোধে তিনি কালজয়ী ছবি ‘চিতচোর’-এ ইয়েসুদাসের গাওয়া গান ‘গোরি তেরা গাঁও বড়া পেয়ারা...’গানটি করেন ৷ আর সেই গানটি এই মুহূর্তে সোশ্যাল মিডিয়ায় দাপিয়ে বেড়াচ্ছে ৷ তাঁর সুরের মূর্ছনায় মুগ্ধ সোশ্যাল মিডিয়া ৷

প্রাণজিত গায়ক হওয়ার স্বপ্ন দেখে। অনির্বাণ তাঁর এই ইচ্ছার মূল্য বোঝে। প্রতিভা রয়েছে। অথচ সঠিক সুযোগের অভাব। অনির্বাণ তাই সোশ্যাল মিডিয়ার সৌজন্যে প্রাণজিতের প্রতিভা তুলে ধরার চেষ্টা করেন। গোরি তেরা গাঁও বড়া পেয়ারা... গানে মুগ্ধতা ছড়ালেন প্রাণজিত। চিতচোর সিনেমার গান কালজয়ী। তবে সেই গান গাওয়া কিন্তু সহজ কাজ ছিল না। প্রাণজিত কঠিন কাজটাই করলেন সহজে। কারণ তিনি তো প্রতিভাবান। তাঁর সেই গানের ভিডিও আপাতত ১০ হাজার লাইক পেয়েছে। সাড়ে সাত হাজার শেয়ার। ভিডিওটি দেখে ফেলেছেন প্রায় সাড়ে চার লক্ষ মানুষ ৷ প্রাণজিতের গায়ক হওয়ার স্বপ্ন পূরণ হবে? সময় দেবে সে উত্তর।

First published: 01:27:25 PM Aug 18, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर