‘জয়ললিতার মৃত্যুর তদন্ত হোক, আমার বিরুদ্ধে রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র চলছে’, নিউজ-১৮-কে শশীকলার EXCLUSIVE সাক্ষাৎকার

তামিলনাড়ুতে মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ার নিয়ে শশিকলা ও ও পন্নিরসেলভমের দড়ি টানাটানি চলছেই।

তামিলনাড়ুতে মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ার নিয়ে শশিকলা ও ও পন্নিরসেলভমের দড়ি টানাটানি চলছেই।

  • Share this:

    #চেন্নাই:  তামিলনাড়ুতে মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ার নিয়ে শশিকলা ও ও পন্নিরসেলভমের দড়ি টানাটানি চলছেই। মঙ্গলবার রাতে শশিকলার বিরুদ্ধে একের পর এক বোমা ফাটানোর পরই পন্নিরসেলভমকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নেয় দল।

    বুধবার এই বিষয়ে নিউজ ১৮-কে দেওয়া শশীকলার এক্সক্লুসিভ সাক্ষাৎকারে তিনি জানান, ‘দল চেয়েছে বলেই আমি শীর্ষ পদে ৷ পনীরসেলভম চেয়েছেন বলেই আমি শীর্ষে ৷ উনি আমায় সাধারণ সম্পাদকের প্রস্তাব দেন ৷ আমার বিরুদ্ধে রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র চলছে ৷’

    এদিন তিনি আরও বলেন, ‘ জয়ললিতার মৃত্যুর তদন্ত হোক ৷ আমি সবরকম তদন্তের জন্য প্রস্তুত ৷ আমি কেমন তা জয়ললিতা জানতেন ৷ জয়ললিতার চিকিৎসকরাও আমায় চেনেন ৷ তদন্ত কমিশন নিয়ে আমার কোনও আপত্তি নেই ৷’

    শশিকলা জানান, বারবার রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করতে চাইলেও তিনি দেখা করেননি ৷ এই মুহূর্তে তিনি উটিতে রয়েছে বলে জানানো হয়েছে ৷ আশা করি তিনি আমাদের সংবিধানকে মেনে চলবেন ৷

    সকালে ধাক্কা দিয়ে আম্মাকে ফেলে দেওয়ার অভিযোগের পর জয়ার মৃত্যু নিয়েও বিস্ফোরক পনীরসেলভম। তাঁর অভিযোগ, জয়ললিতাকে ভুল ওষুধ দিয়েছিলেন শশীকলার ঘনিষ্ঠ এক চিকিৎসক। বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রীর অভিযোগ উড়িয়ে শশীকলা নটরাজনের পালটা, দলে কোনও মতবিরোধ নেই। এআইডিএমকে সূত্রে খবর, শশীকলাকে সমর্থন করছেন ১৩৪ জন বিধায়ক।

    আম্মার মৃত্যুর পর থেকেই অস্থির তামিলনাড়ুর রাজনৈতিক মহল ৷ পন্নিরসেলভমের ইস্তফার পর মুখ্যমন্ত্রী পদে বসার জন্য আম্মার ছায়া সঙ্গী চিনাম্মা শশীকলা নটরাজনের নাম প্রস্তাব করেছে দল ৷ অন্যদিকে, শশীকলার বিরুদ্ধে সোচ্চার পানদিয়ান ৷ চিনাম্মার প্রতি তীব্র অসন্তোষ প্রকাশ করে পিএইচ পানদিয়ানের দাবি, ‘শশীকলাকে পছন্দ করতেন না জয়ললিতা ৷ শশীকলা এই পদের যোগ্য নন ৷’

    First published: