কতটা সুরক্ষিত এই ‘সারাহা অ্যাপ, ফাঁস হয়ে যাচ্ছে না তো ব্যবহারকারীর গোপন তথ্য ?

কতটা সুরক্ষিত এই ‘সারাহা অ্যাপ, ফাঁস হয়ে যাচ্ছে না তো ব্যবহারকারীর গোপন তথ্য ?

এ এক নতুন অ্যাপ। যার সাহায্যে পরিচয় গোপন রেখেই অন্যকে বলা যাবে মনের কথা। তা সে ভাল-মন্দ দুই-ই হতে পারে।

  • Share this:

#নয়াদিল্লি: এ এক নতুন অ্যাপ। যার সাহায্যে পরিচয় গোপন রেখেই অন্যকে বলা যাবে মনের কথা। তা সে ভাল-মন্দ দুই-ই হতে পারে। সোশ্যাল সাইটে এখন ভাইরাল এই অ্যাপ, সারাহা। কয়েকদিনেই সারাহ বিশ্বের গোপন সদস্য হওয়ার দৌড়ে নেটিজেনরা। কিন্তু কতটা সুরক্ষিত সারাহা? ব্যবহারকারীদের গোপন তথ্য অজান্তেই ফাঁস হয়ে যাচ্ছে না তো? সিঁদুরে মেঘ দেখছেন আইটি বিশেষজ্ঞরা।

ফেসবুকের দেওয়ালে এবার উড়ো চিঠির বন্যা। কে লিখছেন? তা জানা নেই। কিন্তু কী িলখছেন? তা পড়তে মুখিয়ে আছে নেট দুনিয়া। আর এই উড়ো চিঠি বয়ে আনছে যে পোস্টমাষ্টার, তিনি সারাহ। তাঁর যাদুতে কাত সোশ্যাল সাইটের ইউজাররা। কিন্তু কী এই সারাহ?

- বন্ধুরা আপনার সম্পর্কে কী ভাবেন?

- তা লিখে জানানো যাবে

- গুগল প্লে স্টোরে sarahah অ্যাপ ডাউনলোড

- অ্যাকাউন্টের লিঙ্ক জানাতে হবে বন্ধুদের

- বন্ধুরা পরিচয় গোপন করে মতামত জানাতে পারবেন

আদতে ভালো লাগার হলেও উড়ো চিঠি কী বয়ে আনছে কোনও বিপদ বার্তা? আশঙ্কা ঘনিয়েছে তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞদের মধ্যে। তথ্য বলছে, চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে সিস্টেম অ্যানালিস্ট জেইন-আল-আবেদিন তাওকিফ নামে সৌদি আরবের এক ব্যক্তি তৈরি করেন এই অ্যাপটি। জুলাই থেকে জনপ্রিয় হতে শুরু করে সারাহা। ডাউনলোডের সময় ইউজারের যাবতীয় তথ্য চাওয়া হচ্ছে অ্যাপে। অ্যাপের সার্ভারটিতে যে বিপুল পরিমাণ ডেটা স্টোর করা যাবে, তা দেখেই আশঙ্কা বাড়ছে হ্যাকিংয়ের। এধরনের অ্যাপে কেনই বা এত পরিমাণে ডেটা স্টোরের ক্ষমতা? এমনকী নেটিজেনদের ব্যক্তিগত তথ্য নেওয়ার ক্ষেত্রে সার্ভারটির আদৌ অনুমতি আছে কী না তাও স্পষ্ট নয়। ন্যাসকমের পূর্বাঞ্চলীয় অধিকর্তা সুপর্ণ মৈত্র জানিয়েছেন,অসতর্কভাবে অজেনা অচেনা অ্যাপে ব্যক্তিগত তথ্য শেয়ার করার ফলে হ্যাকারদের সুবিধেই করে দিচ্ছি আমরা।

ব্লু হোয়েলের মতো অনলাইন গেম প্রাণ কেড়েছে সোশাল সাইট ইউজারদের। টেসটনির নেশা এখনও কাটেনি। তথ্য ফাঁসের একাধিক অভিযোগ উঠছে। সারাহার উড়ো চিঠি কোথায় নিয়ে যাবে? প্রশ্ন থেকেই যায়।

First published: 10:31:37 AM Aug 11, 2017
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर