• হোম
  • »
  • খবর
  • »
  • দেশ
  • »
  • UNION HEALTH MINISTER DR HARSH VARDHAN SAID PRIME MINISTER NARENDRA MODI HAS GIVEN A CLEAR MESSAGE TO THE NATION BY TAKING THE FIRST DOSE OF COVAXIN RC

Coronavirus Vaccine: 'প্রধানমন্ত্রী মোদিকে দেখুন, নিশ্চিন্তে কোভ্যাক্সিন নিন', আতঙ্ক কাটাতে আর্জি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

Coronavirus Vaccine: 'প্রধানমন্ত্রী মোদিকে দেখুন, নিশ্চিন্তে কোভ্যাক্সিন নিন', আতঙ্ক কাটাতে আর্জি স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

ডক্টর হর্ষবর্ধন

যেন এই দিনটার অপেক্ষাতেই ছিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডক্টর হর্ষবর্ধন। দেশীয় করোনাভাইরাসের টিকা সোমবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নেওয়ার পরই এই টিকার গুণাগুণ নিয়ে ফের একবার সওয়াল করলেন তিনি।

  • Share this:

    #নয়াদিল্লি: যেন এই দিনটার অপেক্ষাতেই ছিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডক্টর হর্ষবর্ধন। দেশীয় করোনাভাইরাসের টিকা সোমবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি নেওয়ার পরই এই টিকার গুণাগুণ নিয়ে ফের একবার সওয়াল করলেন তিনি। এদিন হর্ষবর্ধন বলেছেন, 'করোনা টিকা কোভ্যাক্সিনের প্রথম ডোজ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী দেশকে বার্তা দিলেন যে এই টিকা কতটা উপযুক্ত।' ভারত বায়োটেকের তৈরি এই ভ্যাক্সিন নিয়ে প্রথম থেকেই যে ভুল ধারণা তৈরি হয়েছিল মানুষের মনে, এদিনের পর থেকে তা একেবারে মিটে যাবে বলেই মনে করেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

    সোমবার হর্ষবর্ধন বলেছেন, 'ইমিউনোজেনেসিটি জড়িত যেখানে সেখানে প্রথম থেকেই আমি বলে এসেছি যে দেশের দুটি টিকাই সম্পূর্ণ ভাবে নিরাপদ। আমরা প্রধানমন্ত্রীর কাছে কৃতজ্ঞ। তিনি সব সময়ই আমাদের বলেন দেশকে উদাহরণ তৈরি করতে হবে। সবার আগে তিনিই সেই দায়িত্ব নিয়েছেন, যখন থেকে ৬০ বছরের উপরের ব্যক্তিদের টিকাকরণ শুরু হয়েছে।' এরই সঙ্গে হর্ষবর্ধনের আরও দাবি, 'িপএম মোদি কোভ্যাক্সিনের প্রথম টিকা নিয়েছেন। এই টিকা নিয়ে প্রথম থেকে অনেক ভুল তথ্য ছড়ানো হয়েছিল। আমার মনে হয় দেশকে একবারে বার্তা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। সব ভুল ও মিথ্যে তথ্য এবার শেষ হওয়া উচিত।'

    হর্ষবর্ধন জানিয়েছেন, সোমবার তিনি ভ্যাকসিন নেওয়ার জন্য লিখিয়েছেন। তিনি সম্ভবত মঙ্গলবার কোভ্যাক্সিন নেবেন। নিজের টিকা নেওয়ার বিষয়ে তিনি বলেছেন, 'আমি আজকে বুকিং করব, কালকে ভ্যাকসিন নিয়ে নেব।'

    সোমবার সকাল সকালই করোনার টিকা নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। নিজে ট্যুইট করে জানিয়েছেন সেকথা। করোনার টিকাকরণের সঙ্গে যুক্ত দেশের চিকিৎসক, গবেষকদের কাজের ভূয়ষী প্রসংশাও করেছেন তিনি৷ বিশ্বজুড়ে করোনার সঙ্গে লড়াইয়ে ভারতীয় গবেষক ও চিকিৎসকদের ভূমিকা অনস্বীকার্য এবং করোনা টিকাকরণের প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত করে সাধারণের স্বস্তি এনেছেন তাঁরা, ট্যুইটে সে কথাও উল্লেখ করেছেন মোদি৷ দেশে যাঁদের করোনা টিকা নিতে কোনও সমস্যা নেই, তাঁদের করোনার ভ্যাকসিন নিতেও আর্জি জানান তিনি৷ দেশকে করোনা মুক্ত করতে সকলকে টিকাকরণ প্রক্রিয়ায় সামিল হতে বলেন দেশের প্রধানমন্ত্রী৷

    প্রধানমন্ত্রীকে ভারত বায়োটেকের কোভ্যাক্সিনের (COVAXIN-Bharat BioTech) প্রথম ডোজটি দেওয়া হয়৷ টিকাকরণ প্রক্রিয়ায় সাহায্য করেন পুদুচেরির সিস্টার পি নিভেদা৷ তাঁর তত্ত্বাবধানে টিকা নেন দেশের প্রধানমন্ত্রী৷ টিকা নেওয়ার পর মোদি স্বাস্থ্যকর্মীদের জানান যে, তিনি একদমই ব্যথা অনুভব করেননি৷ প্রধানমন্ত্রীর প্রথম ডোজ দেওয়া হল ১ মার্চ৷ দ্বিতীয় ডোজ হবে ২৮ দিন পর৷

    Published by:Raima Chakraborty
    First published: